Breaking News
Senior Citizen: কেউ আতঙ্কে, কেউ আবার দিব্যি আছেন, শহর কলকাতায় কেমন আছেন একাকী বয়স্করা?      cctv: ঘুমের ব্যাঘাত হওয়ায় মারধর! সিসিটিভি ফুটেজ দেখে গ্রেফতার বৃদ্ধার পরিচারিকা      Mamata: 'বাংলায় বিনিয়োগ করলে...' দুবাইয়ের মঞ্চ থেকে বিনিয়কারীদের পথ দেখালেন মমতা      Parineeti-Raghav:শনিবার সকাল ১০টা বাজতেই শুরু হল পরিণীতি-রাঘবের বিয়ের অনুষ্ঠান      Manish: শর্ত সাপেক্ষে জামিন পেলেন অনুব্রতর হিসেব রক্ষক মনীশ কোঠারি      Summon: পুর-নিয়োগ দুর্নীতিতে আরও ৩৪ পুর-কর্মীকে তলব, চাপে মদনের পুরসভা কামারহাটি      Anubrata: পিছল ইডির করা মামলা, মেয়ের মত অনুব্রতরও পুজো কাটতে চলেছে তিহারে      Court: আদালতে কিছুটা স্বস্তি রাজ্যের, সমবায় দুর্নীতির তদন্ত সিবিআইয়ে আস্থা সার্কিট বেঞ্চের      Nipah virus: নিপা আতঙ্ক এবার বাংলাতেও, বেলেঘাটা আইডিতে ভর্তি কেরল ফেরত পরিযায়ী শ্রমিক      Abhishek: ফের আদালতে ধাক্কা অভিষেকের, লিপস অ্যান্ড বাউন্ডস মামলায় মিলল না বাড়তি সময়     

আন্তর্জাতিক

viral video এ কেমন মা! শিশুকন্যাকে ভল্লুকের খাঁচায় ছুড়ে ফেলে পালালেন মা

মা তাঁর সর্বশক্তি দিয়ে সন্তানকে (child) বিপদ থেকে রক্ষা(rescue)করেন। যত বড় সমস্যার মুখেই পড়ুক না কেন, সন্তানরা মায়ের কাছেই আশ্রয় নেয়। পৃথিবীতে এই মানুষটি নিজের প্রাণের পরোয়া না করে সন্তানকে বিপদমুক্ত করার চেষ্টা করেন। তবে এক্ষেত্রে দেখা গেল উল্টো চিত্র। মৃত্যু খাঁচায় মেয়েকে (daughter) ছুড়ে ফেলে পালালেন মা।

এমন নজিরবিহীন ঘটনার সাক্ষী থাকল উজবেকিস্তানের একটি চিড়িয়াখানায় আসা সকলে। তিন বছরের ছোট্ট মেয়েটিকে নিয়ে চিড়িয়াখানায় ঘুরতে এসছিলেন মা। আচমকাই মেয়েটিকে ভল্লুকের খাঁচার মধ্যে ছুড়ে ফেলে ঘটনাস্থল থেকে চম্পট দেন ওই মা। তারপরই হইচই পড়ে যায় সেখানে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, ওই খাঁচাটি ১৬ ফুট গভীরে রয়েছে। সকলে মিলে ভালুকের মজার মজার কাণ্ডকারখানা দেখছিলেন। তখনই তাঁরা দেখেন, তিন বছরের একটি মেয়েকে হঠাৎ ভল্লুকের খাঁচার মধ্যে ছুরে ফেলে দিলেন বাচ্চাটির মা। তখন নীরব দর্শক হয়ে দেখা ছাড়া তাঁদের কাছে আর কোন উপায় ছিল না। ঘটনাটি দেখতে পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে তাঁরা চিৎকার করতে শুরু করেন।

কয়েকজন দৌড়ে গিয়ে খবর দেন চিড়িয়াখানার কর্মীদের। ৬-৭ জন মিলে চলে আসে ভালুকের খাঁচায়। ভালুককে খাবারের লোভ দেখিয়ে অন্যদিকে নিয়ে যায় ভালুকটিকে। আর শিশুটিকে উদ্ধার করেন।

উল্লেখ্য, শিশুটিকে খাঁচার মধ্যে ছুড়ে ফেলার সঙ্গে সঙ্গে ভল্লুকটি ছুটে আসে। প্রথমে বোঝার চেষ্টা করে। বাচ্চাটি কান্না শুনে কিছুক্ষণ বাচ্চাটিকে দেখতে থাকে। কোনোরকম ক্ষতি না করে কেবল বাচ্চাটিকে শুঁকে চলে যায়। প্রাণে বাঁচে মেয়েটি।

সূত্রের খবর, পুলিস আটক করেছে ওই মহিলাটিকে। তার বিরুদ্ধে খুনের চেষ্টায় মামলাও রুজু করা হয়েছে। শিশুটির মাথায় গুরুতর চোট লেগেছে বলে জানা গিয়েছে। উল্লেখ্য হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ওই শিশু কন্যাটি।

2 years ago
bangladesh army বাংলাদেশে টহলরত সেনার উপর জঙ্গি হামলা, নিহত ১ সেনাকর্তা, ৩ জঙ্গি

ফের বাংলাদেশের পার্বত্য চট্টগ্রামে টহলদারি দলের ওপর হামলা। জানা গিয়েছে, ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার বাংলাদেশের সময়ে মধ্যরাতে চট্টগ্রামের বান্দরবনে। এই হামলার পিছনে রয়েছে জেএসএস জঙ্গি সংগঠনের সদস্যরা। গুলিতে এক সেনা কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও এক সেনা সদস্য।

উল্লেখ্য, সেনাবাহিনীর পাল্টা গুলিতে তিন জেএসএস সদস্য নিহত হয়। ঘটনাস্থল থেকে একটি এসএমজি, তিনটি দেশীয় অস্ত্র, ২৬০ রাউন্ড গোলাবারুদ, সন্ত্রাসীদের ব্যবহৃত পোশাক এবং অন্যান্য সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে।

জানা গিয়েছে, নিহত সেনা কর্মকর্তার নাম মহম্মদ হাবিবুর রহমান। তিনি রাম আর্মি ক্যাম্পের একজন সিনিয়র ওয়ারেন্ট অফিসার ছিলেন। আহত সেনা সদস্যের নাম ফিরোজ। আগামী দিনে আরও কোনও বড় ধরনের হামলা হতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন রাম আর্মির সেনাবাহিনীরা।

2 years ago
marriage : ওমিক্রনের দাপটে নিজের বিয়ে পিছিয়ে দিলেন প্রধানমন্ত্রী

কথায় রয়েছে, 'আপনি আচরি ধর্ম পরেরে শেখাও'।  একপ্রকার তেমনটাই করে দেখালেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরর্ডান।

তিনি জানান, ঊর্ধ্বমুখী ওমিক্রন সংক্রমণের কারণে আপাতত বিয়ের অনুষ্ঠান বাতিল করছেন স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী।  সূত্রের খবর, দীর্ঘদিনের সঙ্গী  ক্লার্ক গেফোর্ড-এর সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধবেন বলেই জানা গিয়েছিল। কিন্তু বর্তমানে পরিস্থিতির কারণে বাকি নিউজিল্যান্ডবাসীর মতো কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হলেন তিনি।

রবিবার প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরর্ডান ঘোষণা করে বলেন, এটাই জীবন। তিনি সবারই মত। কারোর থেকে আলাদা নয়। অতিমারীর ভয়াবহ প্রভাব পড়েছে হাজার হাজার নিউজিল্যান্ডবাসীর উপর। প্রিয়জনেরা অসুস্থ হলেও তাঁর পাশে থাকতে না পারাটা অত্যন্ত কষ্টের। তাঁর কাছে এটা বেশি বেদনাদায়ক। তাঁর বিয়ের অনুষ্ঠান পূর্ব সূচি মেনে অনুষ্ঠিত হবে না।  করোনা ও ওমিক্রনের বাড়বাড়ন্তের জেরেই বিয়ে পিছিয়ে দেওয়ার মত কঠিনতপম সিদ্ধান্তে উপনীত হলেন।

ওমিক্রনের দাপটে নিউজিল্যান্ডে ফিরছে কঠোর বিধিনিষেধ। মাস্ক পরাকে বাধ্যতামূলক করেছে নিউজিল্যান্ড সরকার। রেস্তরাঁ, বার ও বিয়ের অনুষ্ঠানে অমন্ত্রিতের সংখ্যা কমিয়ে ১০০ করে দেওয়া হয়েছে। উল্লেখ্য, নিউজিল্যান্ডের কনিষ্ঠতম প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বগ্রহণ করা জাসিন্ডা আরর্ডান করোনা ঠেকিয়ে গোটা বিশ্বে বেশ প্রশংসা কুড়িয়েছেন। এবারেও দেশবাসীকে প্রাধান্য দিয়ে নিজের বিয়ের পরিকল্পনা পিছিয়ে প্রশংসার পাত্র হলেন তিনি।

2 years ago


four day work week চাকুরিজীবিদের জন্য সুখবর, সপ্তাহে ৪দিন কাজ আর ৩ দিন ছুটি

সপ্তাহে চারদিন কাজ আর তিনদিন ছুটি। শুনেই মনটা কেমন আনন্দে ভরে গেল তাই না? সত্যি সত্যি যদি এমনটা হত কতই না ভালো হত। রোজকার ট্রেনে- বাসে বাদুড় ঝোলার মত ঝুলে অফিস পৌঁছানোর ঝক্কিটা কিছুটা হলেও কমত। হ্যাঁ এমনই সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে ব্রিটেন সরকার। খুব শীঘ্রই এই নিয়ম চালু হতে পারে ব্রিটেনে।

ব্রিটেন সরকার প্রথমে এটি পাইলট প্রজেক্ট হিসেবে চালু করতে চায়। কী কী সুবিধা হচ্ছে বা কী কী অসুবিধের মধ্যে পড়তে হচ্ছে তা এই প্রজক্টের মাধ্যমে প্রথমে দেখা হবে। ব্রিটেনের প্রায় ১২টি কোম্পানিতে প্রথম এই পাইলট প্রজেক্ট চালু করা হবে। সেই কোম্পানিগুলি এতে রাজিও হয়ে যায়। আগামী জুন মাস থেকেই এই পরীক্ষামূলক কাজের পদ্ধতি শুরু করা হবে। ডিসেম্বর পর্যন্ত চালু থাকবে এই প্রজেক্ট। তারপরে এই নিয়মই চলবে কিনা, তার সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

ইতিমধ্যে ৩০ টি ব্রিটিশ কোম্পানি এই প্রজেক্ট চালুর পক্ষে মত দেন। সপ্তাহে কর্মীদের কাজের সময় ৩২ ঘণ্টা। আর এই প্রস্তাবে সায়ও দিয়েছেন তাঁরা। এমনকি কর্মীদের কাজের সময় কমানোর দরুন তাঁদের বেতন বা অন্য কোনো সুযোগ সুবিধায় প্রভাব পড়বেনা বলেও জানান তারা। এই ৩২ ঘণ্টায় যা কাজ তা প্রয়োজনে কর্মীরা ৫ দিনেও সম্পন্ন করতে পারেন বলে প্রস্তাবে বলা হয়েছে।

এই সিদ্ধান্তের পিছনে যে যুক্তি দেখিয়েছেন ব্রিটেন সরকার তা হল, কর্মীরা ভালোভাবে থাকলে কাজের পরিমাণ আপনাআপনি বাড়ে। এই ধরনের পরীক্ষামূলক পদ্ধতি এর আগে আয়ারল্যান্ড ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রেও করা হয়েছিল। বিশ্বের আরও বেশ কিছু দেশও এই পদ্ধতি পরীক্ষা করে দেখবে বলে জানা যায়। তার মধ্যে কানাডা, অস্ট্রেলিয়া ও নিউ জিল্যান্ড অন্যতম। ভারতেও এ নিয়ে ভাবা হচ্ছে বলে খবর। তবে এক্ষেত্রে ভারতে সময়সীমার পরিমাণ কিছুটা বাড়বে।

2 years ago
free toto : ঘোজাডাঙা সীমান্তে পর্যটকদের জন্য চালু বিনামূল্যে টোটো পরিষেবা

বসিরহাট মহকুমার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে ঘোজাডাঙা সীমান্ত। ঘোজাডাঙা সীমান্তে জিরো পয়েন্টে পর্যটকদের জন্য বিনামূল্যে চালু হল টোটো পরিষেবা।এই পরিষেবা চালু হওয়ায় খুশি ভারত ও বাংলাদেশ, দুই দেশের যাত্রীরাই। সূত্রের খবর, যে সমস্ত মানুষ ভারত থেকে বাংলাদেশে যান বা বাংলাদেশ থেকে ভারতে প্রবেশ করেন, তাঁরা সীমান্তবর্তী এলাকা থেকে জিরো পয়েন্ট হয়ে আবার অন্য দেশে যখন প্রবেশ করেন, তখন অনেকটাই তাঁদের পায়ে হেঁটে যেতে হয়।

এছাড়াও দেখা গেছে, বাংলাদেশ থেকে প্রচুর অসুস্থ রোগী ভারতে আসেন চিকিৎসা করানোর জন্য। বাংলাদেশ সীমান্ত থেকে তাঁদের ভারতীয় সীমান্তে আসতে হলে প্রায় চারশো থেকে পাঁচশো মিটার পায়ে হেঁটে আসতে হয়। তার ফলে তাঁরা আরও অসুস্থ হয়ে পড়েন। এরকম নানা অসুবিধার কথা মাথায় রেখে ভারতীয় ক্লিয়ারিং অ্যান্ড ফরওয়ার্ডিং অর্থাৎ সিএনএফ-এর পক্ষ থেকে ঘোজাডাঙা সীমান্তে চালু হল সম্পূর্ণ বিনামূল্যে টোটো পরিষেবা।

 দু’দেশের সীমান্তে প্রথম ঘোজাডাঙা বর্ডারেই চালু হল এই পরিষেবা। জানা গিয়েছে, ২৪ ঘণ্টাই মিলবে এই পরিষেবা। করোনার জন্য অল্প সংখ্যক মানুষ এখন যাতায়াত করছেন দুই দেশের মধ্যে। সেজন্য আপাতত দু’টো টোটো রাখা হয়েছে। আগামী দিনে টোটোর সংখ্যা আরও বাড়ানো হবে বলে জানা গেছে। সব মিলিয়ে এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছে দুই দেশের পর্যটকরা।

2 years ago


Britain mask ব্রিটেনে মাস্ক আর বাধ্যতামূলক থাকছে না, বহু বিধিনিষেধও প্রত্যাহার

এবার থেকে মাস্ক ছাড়াই বেরনো যাবে। শিথিল করা হচ্ছে করোনার বিধিনিষেধ। কেবল ভ্যাকসিনেশন সার্টিফিকেট থাকলেই পাওয়া যাবে ছাড়। দীর্ঘ ২ বছর ধরে করোনা থেকে রেহাই পেতে মানুষের নতুন পরিধান হয়েছে মাস্ক। আর সেই পরিধান এতটাই গুরুত্বপূর্ণ যে না পরলে শাস্তির মুখেও পড়তে হয়েছে সাধারণ মানুষকে। এবার এই নয়া জিনিসটি থেকে মুক্তি পেতে চলেছেন ব্রিটেনবাসী। 

বুধবার ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন দেশবাসীর উদ্দেশে ঘোষণা করেছেন, তাঁদের দেশে ওমিক্রনের আতঙ্কের সর্বোচ্চ সীমা অতিক্রান্ত হয়ে গেছে। তাই ডিসেম্বরে নতুন করে যেসব বিধিনিষেধ জারি করা হয়েছিল, চলতি সপ্তাহের মাঝামাঝি থেকেই তা প্রত্যাহার করে নেওয়া হবে। 

বরিস জনসন জানিয়েছেন, ব্রিটেনবাসীকে দীর্ঘদিন ধরে সামাজিক দূরত্ববিধি মেনে চলতে হয়েছে। যা একপ্রকার যন্ত্রণাদায়ক। সেখান থেকে এবার মুক্তি পেতে চলেছেন ব্রিটেনবাসী। এছাড়াও চলতি সপ্তাহ থেকে ব্রিটেনবাসীকে পরতে হবে না মাস্ক। সামাজিক অনুষ্ঠান কিংবা বার বা রেস্তরাঁ এবং নাইট ক্লাবে যাওয়ার জন্য আর লাগবে না কোভিড-পাশ। 

বরিস জনসন যখন ব্রিটেনবাসীর উদ্দেশে বক্তব্য রাখেন, সেদিন থেকেই ওয়ার্ক ফ্রম হোম আর বাধ্যতামূলক নয় বলে জানান। বাড়ির বাইরে বেরনোতেও থাকছে না আর কোনও নিষেধাজ্ঞা। এরূপ সিদ্ধান্তের পিছনে যে যুক্তি দেখিয়েছেন তা হল, বুস্টার ডোজের কর্মসূচিও ইতিমধ্যে তাঁদের দেশে সফলভাবে সম্পন্ন হয়েছে। ৯০ শতাংশ ষাটোর্ধ্ব মানুষ বুস্টার ডোজ পেয়ে গেছেন। এছাড়া ব্রিটেন করোনা সংক্রমণের দিক থেকে সবচেয়ে বিপজ্জনক পর্যায় পেরিয়ে গিয়েছে। তাই ব্রিটেন সরকার এই সিদ্ধান্ত নিতে পারল বলে জানান ব্রিটেন প্রধানমন্ত্রী। তবে মাস্ক পরার গুরুত্ব কতটা, তা দেশবাসীর উপরেই ছেড়ে দিল বরিস সরকার। 

2 years ago
China army kidnap minor ফের সীমান্তে ঢুকে নাবালককে অপহরণ চিনা সেনার

ফের ভারতীয় কিশোরকে অপহরণের অভিযোগ উঠল চিনা সেনার বিরুদ্ধে। অরুণাচল প্রদেশ থেকে এক ভারতীয় কিশোরকে অপহরণের অভিযোগ করেছেন স্থানীয় সাংসদ তাপির গাঁও। ওই অপহৃত কিশোরকে ফিরিয়ে আনতে ইতিমধ্যে ভারতীয় সেনা কথাবার্তা শুরু করেছে চিনা সেনার সঙ্গে।

জানা যাচ্ছে, ওই অপহৃত কিশোরের নাম মিরাম তারোন। অরুণাচল প্রদেশের জিদো গ্রামের বাসিন্দা মিরাম। মঙ্গলবার ওই বছর ১৭-এর কিশোরকে অরুণাচল প্রদেশের আপার সিয়াং জেলার লুংটা জোর এলাকা থেকে অপহণ করে পাবলিক লিবারেশন আর্মি। সেসময় মিরামের সঙ্গে তার বন্ধু জনি ইয়েইইংও ছিল। তারা দুজনে শিকারে বেরিয়েছিল বলে জানায় জনি। যদিও তাকেও চেষ্টা করা হয়েছিল অপহরণের। জনি হাত ছাড়িয়ে পালিয়ে আসে। এসে স্থানীয় কর্তৃপক্ষকে অপহরণের কথা জানায়। তারপরই সামনে আসে বিষয়টি।

এদিন টুইট করেন সাংসদ তাপির গাঁও। তিনি টুইটে কেন্দ্রীয় সরকারকে অপহৃত কিশোরকে ফেরত আনার বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নিতে বলেন। পাশাপাশি তিনি অপহৃত কিশোরের ছবিও পোস্ট করেছেন। তিনি আরও লেখেন, ঘটনার বিষয়ে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী নীতিশ প্রামাণিককেও জানিয়েছেন। পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এবং প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং এবং ভারতীয় সেনার নজরে এনেছেন ঘটনাটি।

উল্লেখ্য, ওই কিশোরের মুক্তির জন্য ইতিমধ্যে ভারতীয় সেনা তৎপর হয়েছে। শুরু হয়েছে কূটনৈতিক প্রক্রিয়া। প্রোটকল অনুযায়ী, পিএলএ অপহৃত কিশোরকে ফিরিয়ে দেবে বলে আশাবাদী ভারতীয় সেনা।

ইতিমধ্যে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে টুইট করে কটাক্ষ করেছেন রাহুল গান্ধী। তিনি লেখেন, সাধারণতন্ত্র দিবসের ঠিক আগে চিন ভারতীয় ভূখণ্ডে ঢুকে ১৭ বছরের নাবালককে অপহরণ করল। তিনি মিরাম তারনের পরিবারের সঙ্গে আছেন। প্রধানমন্ত্রীর নীরবতাই তাঁর বক্তব্য।


প্রসঙ্গত, ২০২০ সালের সেপ্টেম্বরে চিনা সেনা ৫ ভারতীয় কিশোরকে অপহরণ করেছিল। অরুণাচল প্রদেশের আপার সুবানিসিরি জেলা থেকেই তাদের অপহরণ করেছিল পিএলএ। এক সপ্তাহ পরে তাদের মুক্তি দেয় চিনা সেনা। এছাড়াও ২০১৮ সালে ওই এলাকায় প্রায় ৩ কিলোমিটার রাস্তা তৈরি করেছিল চিনা সেনা। সেবার কেন্দ্র সরকারের বিশেষ কোনও ভ্রুক্ষেপ লক্ষ্য করা না গেলেও এবার কী পদক্ষেপ নেয়, সেটাই লক্ষণীয়।

2 years ago
Afghanistan earthquake আফগানিস্তানে জোড়া ভূমিকম্প, মৃত্যু ২৬ জনের

জোড়া ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল আফগানিস্তান। সোমবার বিকেলে কয়েক ঘন্টার ব্যবধানে দু'দুবার আফগানিস্তানের পশ্চিমে অবস্থিত বাদঘিস প্রদেশে ভূমিকম্প হয়। সূত্রের খবর, ঘটনায় অন্তত ২৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। যার মধ্যে ৫ জন মহিলা এবং ৪ জন শিশুও রয়েছে।

সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, ওই অঞ্চলের বহু বাড়ি ধূলিসাৎ হয়ে গিয়েছে। আমেরিকার জিওলজিক্যাল সার্ভের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, স্থানীয় সময় দুপুর ২ টোয় প্রথম ভূমিকম্প অনুভূত হয়। রিখটার স্কেলে যার মাত্রা ছিল ৫.৩। বিকেল ৪টের সময় আবার ভূমিকম্প হয়। রিখটার স্কেলে যার তীব্রতা ছিল ৪.৯। বাদঘিস প্রদেশের রাজধানী কালা-এ-নাও-এর ৪১ কিলোমিটার পূর্বে এবং ৫০ কিলোমিটার দক্ষিণপূর্বে এই ভূমিকম্প অনুভূত হয়। ওই প্রদেশের দক্ষিণে অবস্থিত কাদিস জেলা সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

আফগানিস্তানের এই প্রত্যন্ত অঞ্চলটি সবচেয়ে অনুন্নত। যার ফলে রিখটার স্কেলে কম্পনের মাত্রা কম হলেও ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ অধিক। একাধিক বাড়িতেও দেখা গেছে ফাটল। ভেঙে পড়েছে প্রচুর বাড়ি। মনে করা হচ্ছে মৃত্যুর সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

2 years ago


Drone Attack আবুধাবিতে ড্রোন হামলায় নিহত ২ ভারতীয়

ড্রোন হামলায় মৃত্যু হল ২ ভারতীয়র। ঘটনাটি ঘটেছে আবুধাবি বিমানবন্দরের কাছে। ঘটনায় ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে খবর। আহত ৬ জন। মৃতদের মধ্যে ২ জন ভারতীয় এবং ১ জন পাকিস্তানি।

বিমানবন্দরে ড্রোন হামলার ফলে ছোটখাট আগ্নিকাণ্ড ঘটে। এছাড়াও আবুধাবি পুলিসের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, মুসাফাহ আবুধাবি ন্যাশনাল অয়েল কোম্পানির তেল সংরক্ষণের জায়গায় তিনটি তেলের ট্যাংকারে বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। প্রাথমিক তদন্তে ছোট বিমানের মতো একটি জিনিসের সন্ধান পাওয়া গিয়েছে। ইতিমধ্যে সন্দেহভাজন ড্রোন হামলার দায় স্বীকার করেছে ইয়েমেনের হুতি বিদ্রোহী গোষ্ঠী।

যদিও বড় কোনও ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। ওই দুর্ঘটনাস্থল থেকে আবুধাবির রাজা বা প্রেসিডেন্সিয়াল প্রাসাদের দূরত্ব ২০ কিলোমিটার৷ এবং ঘটনাস্থল থেকে ১০ কিলোমিটার দূরেই মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, সৌদি আরব-সহ আরও বিভিন্ন দেশের দূতাবাস রয়েছে৷ ফলে বড়সড় কোনও নাশকতার ছক থাকতে পারে বলেও মনে করা হচ্ছে। বাড়ানো হচ্ছে নিরাপত্তা।

2 years ago
Corona insurance যেনতেন প্রকারে করোনা আক্রান্ত হতে চান তিনি!

করোনায় কাবু গোটা বিশ্ব। দ্বিতীয় ঢেউয়ের পর একটু স্বস্তি মিললেও ফের তৃতীয় ঢেউয়ে নাভিশ্বাস উঠেছে বিশ্ববাসীর। করোনা সংক্রমণ থেকে রেহাই পেতে মানুষের এখন ভরসা মাস্ক, স্যানিটাইজার। কেউ কেউ ৩ লেয়ারের মাস্ক পরছেন, আবার কেউ ৪ বা ২। কিন্তু করোনা থেকে বাঁচতে সকলেই পরছেন মাস্ক। সরকার থেকে শুরু করে সমাজসেবী, সাধারণ মানুষ সকলেই প্রতিনিয়ত মাস্ক পরার কথা বলছেন। কিন্তু স্বেচ্ছায় কেউ করোনায় আক্রান্ত হতে চান? আবার তার জন্য টাকা ব্যয় করতেও রাজি। শুনেই কেমন ভ্রু কুঁচকে গেল, তাই না? তবে সম্প্রতি এমনই ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন এক ব্যক্তি।

ওই ব্যক্তি থাইল্যান্ডের বাসিন্দা। তিনি করোনা পজিটিভ একজন মহিলার সঙ্গে পার্টি করতে চান। উদ্দেশ্য একটাই, পার্টি চলাকালীন মেয়েটি যেন তাঁকে করোনা পজিটিভ করে দেয়। অবশ্য তিনি স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছেন, কোনও রোমান্টিক সম্পর্কে যেতে চান না। এমন একটি মেয়েকে খুঁজছেন যে পার্টির সময় তাঁকে করোনা পজিটিভ করে দিতে পারবে।

এমনকি ওই ব্যক্তি একজন দালালের সাহায্য নিয়েছেন। যাতে তিনি তাঁর উদ্দেশ্য পূরণের জন্য উপযুক্ত মহিলা পেতে পারেন। তবে বিশেষ কয়েকটি শর্তও দিয়েছেন তিনি। মহিলাকে প্রথমে তাঁর অ্যান্টিজেন টেস্ট পজিটিভ দেখাতে হবে এবং তারপর তাঁকে করোনা পজিটিভ করতে হবে। এই কাজের জন্য ওই ব্যক্তি মহিলাটিকে ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ১১ হাজার টাকা দিতেও প্রস্তুত। পাশাপাশি তিনি ওই দালালকে প্রায় ১৩০০ টাকাও দিচ্ছেন।

এই অদ্ভুৎ দাবি জানিয়ে ওই ব্যক্তি থাইল্যান্ডের একটি বিমা কোম্পানিতে বিজ্ঞাপন দিয়েছেন। বিমা কোম্পানি তাদের বিজ্ঞাপনের মূল বিষয় রেখেছে করোনা। কেউ করোনার কবলে পড়লে তাকে ৪ লাখ টাকা দেওয়া হবে। আগে বিমা কোম্পানিগুলি এত তদন্ত করত না। কিন্তু এখন বিমা সংস্থার কর্মীরা টাকা দেওয়ার পূর্বে বাড়ি বাড়ি গিয়ে রোগী দেখেন। বিমার টাকা পাওয়ার জন্য থাইল্যান্ডে এখন অনেকেই করোনা আক্রান্ত হতে চাইছেন। সেই ব্যক্তিও এখন বিমার টাকা পাওয়ার লোভে করোনা আক্রান্ত হতে চাইছেন।

2 years ago


Petrapol business পেট্রাপোলে অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ এক্সপোর্ট-ইমপোর্টের কাজ

বিএসএফ পেট্রাপোল বন্দরে আইসিপিতে ঢুকতে দিচ্ছে না ট্রান্সপোর্টের সঙ্গে যুক্ত কর্মীদের, এমনটাই অভিযোগ করে বিক্ষোভে সামিল তাঁরা। ফলে সমস্যা হচ্ছে বাণিজ্যের কাজে।

ওই সমস্ত কর্মীদের আইসিপিতে ঢুকতে দেওয়ার দাবিতে সোমবার সকাল থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্দরে এক্সপোর্ট-ইমপোর্টের কাজ বন্ধ করে দেন কর্মীরা।

উত্তর ২৪ পরগনার বনগাঁ ট্রান্সপোর্ট অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে জানানো হয়, মাস ছয়েক আগে অতি আধুনিক ল্যান্ডপোর্ট অথরিটি আসার পর প্রথমে তাঁদের যাঁরা কুলি ছিলেন, তাঁরা কাজ হারান। মূলত বাংলাদেশের যাত্রী যাঁরা মাল বহনে অক্ষম ছিলেন, তাঁদের মাল বহন করতেন ওই কুলিরা। তবে তাঁদের হয়ে লড়াই করার চেষ্টা তাঁরা করেছিলেন। কিন্তু লাভ হয়নি।

এরপর আইসিপিতে ঢুকতে বাধা দেয় বিএসএফ। মূলত বাইরের লোক ঢুকতে বাধা দেওয়া হচ্ছে বলে জানানো হচ্ছে। কিন্তু বাইরের লোক কারা? যতদিন এই এক্সপোর্ট-ইমপোর্টের কাজ শুরু হয়েছে, তবে থেকেই এই সমস্ত কর্মীরা যুক্ত রয়েছেন। কিন্তু তাঁদের সঙ্গে এই বিচার কাম্য নয় বলেই সংগঠনের দাবি। শুধু তাঁরাই নয়, এই পেট্রাপোল আইসিপির মধ্যে শতাধিক কর্মী যুক্ত রয়েছেন। তাঁদের কথা মাথায় রেখেই আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়েছে বনগাঁ ট্রান্সপোর্ট অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে।

2 years ago
Bangladesh সংস্কৃতিতে এগিয়ে যাচ্ছে ওপার বাংলা

দুই বাংলা। একটি ভারতের অঙ্গরাজ্য, অন্যটি স্বাধীন বাংলাদেশ। ১৯৭১ থেকে সরকার গড়ে দেশ চালাচ্ছে এক ঝাঁক বাঙালি। দুই বাংলা বিভক্ত হলেও সংস্কৃতি ভাগ হয়েছে কি? গানবাজনা আজও সেদেশে বাংলাতেই। রবীন্দ্র সংগীত উৎসবের মূল আকর্ষণ থাকে বাংলাদেশে। নতুন শিল্পীরা উঠে আসে রবীন্দ্র/নজরুলের গান গেয়েই। ব্যান্ড আছে সে দেশেও, কিন্তু ব্যান্ডেও রবীন্দ্র সংগীত মাস্ট। ধুতি এদেশ থেকে উঠেই গিয়েছে, ওদেশের পুরুষদের পোশাকে ধুতি ছিল না মোটেই। কিন্তু লুঙ্গি কালচার আছে। মেয়েদের আজও অনুষ্ঠানে যেতে হলে ৯০ শতাংশ শাড়ি পরতে হয়, তা যে কোনও বয়সের হোক না কেন। "মেছো বাঙালি"র বদনাম ও দেশের মানুষই গ্রহণ করেছে। কতরকম ভাবে কত মাছ খাওয়া যায়, তা ওই বাঙালিরা বোঝাচ্ছে নিয়মিত। আমাদের রাজ্যে চাইনিজ ফুড যতটা জনপ্রিয়, ও দেশে কিন্তু সব খাবার দোকানে ভাত, ডাল, শাক মাস্ট। সঙ্গে নানান পদের মাছ।

কোভিডকালে টিভি সিরিয়ালের চাহিদা বেড়ে গিয়েছে। তার সঙ্গে নানান রিয়ালিটি শো, যা আমাদের টিভি অনুষ্ঠানে পাই। কিন্তু এখানেও ফারাক বিস্তর। আমাদের সিরিয়ালগুলিতে ঘুমাতে গেলেও অভিনেত্রী সিল্ক পরে থাকেন। কারণ বলেন, দর্শককে কর্পোরেট মুড দেখাতে হবে। সেই সঙ্গে চর্বিত চর্বনের মতো একই ঘটনা ঘুরিয়ে ফিরিয়ে এক ঝাঁক অভিনেতা-অভিনেত্রীদের দিয়ে করানো হয়। তার সাথে সবই ইনডোর শুটিং। কিন্তু বাংলাদেশে সিরিয়ালে আউটডোর দৃশ্য থাকবেই। এক ঝাঁক অভিনেতা-অভিনেত্রীকে নির্দিষ্ট এপিসোডগুলিতে দরকার হয় না। নায়ক-নায়িকা ঘুরেফিরে তাঁদের ডায়লগ বলেন, তাতেই মুগ্ধ হয় মানুষ, সুচিত্রা-উত্তমের যুগে চলে যায়। অসাধারণ চিত্রনাট্য প্রতিটি মেগা সিরিয়ালে।  অভিনয়েও দুর্দান্ত ভূমিকা। ওরা আমাদের সিনেমা চিরকাল দেখেছে, নিয়েছে রসদ। যা কিনা আমাদের টলিউড ওদের থেকে নিতে পারেনি। মোটের উপর সংস্কৃতিতে বাংলাদেশ অনেক এগিয়ে যাচ্ছে।

টালিগঞ্জ ভাববে কি?

2 years ago
rat: ইঁদুরের মৃত্যুতে রাষ্ট্রীয় শোক কম্বোডিয়ায়

বিশ্বাস করানো মুশকিল কিন্তু এটাই বাস্তব যে একটি ইঁদুরের মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ কম্বোডিয়া। আমরা ইঁদুরের সম্বন্ধে জানি যে কোথাও আগুন লাগলে প্রথম বুঝতে পারে ইঁদুর। লুকোনো আগুনের ঘ্রান পেলেই ইঁদুর বেরিয়ে আসে মানুষ বুঝতে পারে কোথাও আগুনে লেগেছে। এ ছাড়া গল্পে আছে একবার এক জ্বালে আটকে থাকা সিংহকে বাঁচিয়েছিলো এক ইঁদুর। তা ছাড়া টম এন্ড জেরির কার্টুনতো বাচ্চাদের বিশেষ আকর্ষণের কিন্তু সেসব তো গল্প ,বাস্তব নেই।

বাস্তবে ইঁদুর একটি অতি বিরক্তিকর প্রাণী ক্ষতি ছাড়া কোনও উপকারে আসে না। ইঁদুর কেউ বিজ্ঞানের কাজ ছাড়া কেউ পোষেও না। কিন্তু এই ইঁদুর বা মাগওয়া একটি দেশকে বারবার মাইনসের হাত থেকে বাঁচিয়েছে।

এই মাগওয়ার জন্ম আফ্রিকার তাঞ্জানিয়ায়। সেখান থেকে ট্রেনিং দিয়ে যুদ্ধের কাজে নামায় কম্বোডিয়া সরকার। কম্বোডিয়ায় এক সময়ে রাজতন্ত্র ছিল। শোনা যায় তাদের বিরুদ্ধে গেলেই প্রাণদণ্ড হতো। ১৯৭০ থেকে সেখানে কমিউনিস্ট আন্দোলন শুরু হয় এবং রাজাকে সরিয়ে ১৯৭৫ এ সমাজতন্ত্রের শাসন শুরু হয়। এরপর কম গৃহযুদ্ধ হয় নি, আমেরিকা এবং দক্ষিণপন্থীরা পুরোনো রাজতন্ত্রকে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়। ওই দেশে চাদর বেছানোর মতো মাইন বিছিয়ে রাখা হয়েছে বারম্বার। ৪০ হাজার মানুষের প্রাণ যায় ওই মাটিতে বিছানো মাইন। এই মাইনের গন্ধ পায় সাধারণত ইঁদুররা। কিন্তু যুদ্ধক্ষেত্রে ইঁদুরকে ব্যবহার করা হয়েছে খুবই কম। এই ইঁদুরকেই মাগওয়া নাম দেওয়া হয়।


এই কম্বোডিয়ার ইঁদুরটিকে সে দেশে নিয়ে আশা হয় ২০১৬ তে।  এরপর ইঁদুরটি বহু মাইন্ খুঁজে দিয়ে হাজার হাজার মানুষের প্রাণ বাঁচাতে সাহায্য করে। ইদানিং শরীর ভালো যাচ্ছিলো না তার। সৈনিকদের সঙ্গে খেলে তা