Breaking News
Abhishek Banerjee: বিজেপি নেত্রীকে নিয়ে ‘আপত্তিকর’ মন্তব্যের অভিযোগ, প্রশাসনিক পদক্ষেপের দাবি জাতীয় মহিলা কমিশনের      Convocation: যাদবপুরের পর এবার রাষ্ট্রীয় বিশ্ববিদ্যালয়, সমাবর্তনে স্থগিতাদেশ রাজভবনের      Sandeshkhali: স্ত্রীকে কাঁদতে দেখে কান্নায় ভেঙে পড়লেন 'সন্দেশখালির বাঘ'...      High Court: নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় প্রায় ২৬ হাজার চাকরি বাতিল, সুদ সহ বেতন ফেরতের নির্দেশ হাইকোর্টের      Sandeshkhali: সন্দেশখালিতে জমি দখল তদন্তে সক্রিয় সিবিআই, বয়ান রেকর্ড অভিযোগকারীদের      CBI: শাহজাহান বাহিনীর বিরুদ্ধে জমি দখলের অভিযোগ! তদন্তে সিবিআই      Vote: জীবিত অথচ ভোটার তালিকায় মৃত! ভোটাধিকার থেকে বঞ্চিত ধূপগুড়ির ১২ জন ভোটার      ED: মিলে গেল কালীঘাটের কাকুর কণ্ঠস্বর, শ্রীঘই হাইকোর্টে রিপোর্ট পেশ ইডির      Ram Navami: রামনবমীর আনন্দে মেতেছে অযোধ্যা, রামলালার কপালে প্রথম সূর্যতিলক      Train: দমদমে ২১ দিনের ট্রাফিক ব্লক, বাতিল একগুচ্ছ ট্রেন, প্রভাবিত কোন কোন রুট?     

Sandeshkhali

Sandeshkhali: "শক্তি স্বরূপা" সম্বোধন প্রধানমন্ত্রীর, বসিরহাটের বিজেপি প্রার্থী রেখা পাত্রকে ফোন মোদীর

রেখা পাত্র। সন্দেশখালির প্রতিবাদী মুখ। বর্তমানে বসিরহাটের বিজেপি প্রার্থী। রেখার মেসেজ পেয়ে খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ফোন করলেন রেখাকে। 'শক্তি স্বরূপা' বলে সম্বোধন করে বলেন রেখার সাহসিকতার জন্যই সন্দেশখালির ত্রাস এখন গরাদের ওপারে।

সন্দেশখালির মা, বোনেদের পাশে থাকার জন্য প্রধানমন্ত্রীকেও ধন্যবাদ জানান রেখা। রেখার নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার পর সন্দেশখালির মানুষের কী প্রতিক্রিয়া তা রেখার কাছে জানতে চান প্রধানমন্ত্রী। রেখা জানান, সন্দেশখালিতে যে কয়েকজন তৃণমূলের সমর্থন করছিল,  রেখা প্রার্থী হওয়ার পর তাঁঁরা বিরোধীতা করেছিলেন। তাঁরাও এখন মেনে নিয়েছেন। তাঁরা তাঁকে জানিয়েছেন, তৃণমূলের উস্কানিতেই তাঁরা এসব করেছেন। তাঁরা যা করেছেন, সে সবের জন্য তাঁরা ক্ষমাও চেয়েছেন।’

রেখা প্রধানমত্রীকে আরও জানিয়েছেন, কীভাবে ২০১১ সালের পর থেকে সন্দেশখালির মানুষ ভোটে অংশগ্রহণ করতে পারেনি। এবার যেন তারা নিরাপত্তার সঙ্গে ভোটে অংশগ্রহণ করতে পারেন সেটা দেখার জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানান রেখা। প্রধানমন্ত্রী রেখাকে আশ্বস্ত করে বলেন, রেখার কথা নিশ্চয় নির্বাচন কমিশনের কানে পৌঁছবে। সন্দেশখালির মানুষের পাশে থাকবে কমিশন, যাতে তারা নিরপেক্ষভাবে ভোট দিতে পারে।

রেখা প্রধানমন্ত্রীকে জানিয়েছেন, সন্দেশখালির সকল মানুষের জন্য তিনি কাজ করতে চান। এমনকি যাঁরা বিরোধীতা করেছেন তাঁদের জন্যও। প্রধানমন্ত্রী এ কথা শোনার পর খুশি হন, রেখাকে বলেন, বিজেপি সঠিক প্রার্থী বাছাই করেছে। একদিন দেশ রেখার এই ভাবনার জন্য গর্বিত হবে।

রেখা বলেছেন, 'সন্দেশখালিতে মা-বোনেদের অত্যাচারের পাশাপাশি পুরুষদের উপরেও আক্রমণ হচ্ছে। মারধর করা হয়। কিন্তু তাঁরাও আমার ভাই। তাঁদের সুরক্ষার জন্যও আমি লড়াই করব।'

রাজনীতির অভিজ্ঞতা না থাকা রেখা, খেটে খাওয়া কষ্টে দিন কাটানো রেখা, সন্দেশখালির উত্তপ্ত পরিস্থিতিতে, কন্যাসন্তানকে কোলে নিয়ে মিছিলে হাঁটা রেখা। তৃণমূল নেতা শেখ শাহজাহান, উত্তম সর্দার, শিবপ্রসাদ হাজরাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদে গর্জে ওঠা রেখার আত্মবিশ্বাস মুগ্ধ করে প্রধানমন্ত্রীকে। প্রধানমন্ত্রীর বিশ্বাস রেখা নির্বাচনে জয়লাভ করে দিল্লিতে পৌঁছবেই।

3 months ago
Sandeshkhali: 'মুখ্যমন্ত্রী-ই বহিরাগত', ক্যাম্পের ২য় দিনে সন্দেশখালিতে আক্রমণাত্মক প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়াল

মারধর থেকে নারী নির্যাতন, সন্দেশখালি জুড়ে বিভিন্ন অভিযোগ সামনে আসছিল। অভিযোগ আসছিল জোর করে জমি দখলেরও। এই অবস্থায় নিপীড়িতদের অভিযোগ শুনতে কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশে সন্দেশখালিতে দ্বিতীয় দিনের ক্যাম্পে বিজেপির আইনজীবী নেত্রী প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়াল। সঙ্গী আরও ১২ জন আইনজীবীকে সঙ্গে নিয়ে দিনভর বিভিন্ন অভিযোগ শুনলেন। শুনলেন শাহজাহান বাহিনী কীভাবে গায়ের জোরে সব দখল করেছে। শুনলেন বিজেপি করায় কীভাবে সর্বস্ব হারাতে হয়েছে মানুষকে।

মানুষের অভিযোগ শুনেই ক্ষোভে ফেটে পড়লেন। শাহজাহান অ্যান্ড কোম্পানির বিরুদ্ধে সন্দেশখালির মানুষের প্রতিরোধ দেখে তৃণমূল বারংবার বহিরাগত তত্ত্ব উসকে দিয়েছে। খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অভিযোগ করছিলেন, অশান্তির পিছনে বহিরাগতদের ইন্ধন রয়েছে। বহিরাগত তত্ত্বেই মুখ্যমন্ত্রীকে একহাত নিয়েছেন বিজেপির আইনজীবী, নেত্রী প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়াল।

মানুষের অভিযোগ শুনতে সন্দেশখালি ২ নম্বর ব্লকের থানা সংলগ্ন মাঠে রবিবার ক্যাম্প করা হয়েছিল। ক্যাম্পে অভিযোগ জানাতে দলে দলে ভিড় জমান স্থানীয়রা । ক্যাম্পে যাওয়ার আগে সন্দেশখালির  ত্রিমণী বাজারের কালীমন্দিরে মানুষের মঙ্গল কামনায় পুজো দেন প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়াল।

3 months ago
Sandeshkhali: শাহজাহান মামলায় ফের সন্দেশখালিতে হানা ইডির, ঘেরা হল শাহজাহানের ‘সাগরেদদের’

ফের শাহজাহান মামলায় তৎপর ইডি। এক্সপোর্ট কোম্পানির মাধ্যমে যেভাবে মাছের ব্য়বসায় আমদানি রপ্তানি করা হত, এবার সেই মামলার তদন্তে নেমেছে ইডি আধিকারিকরা। ইডির সঙ্গে রয়েছে সিআরপিএফ এবং বিএসএফ জওয়ান। বৃহস্পতিবার ইডি হানার আগেই সিআরপিএফ এবং বিএসএফ জওয়ান দিয়ে ঘিরে ফেলা হয়েছে সন্দেশখালি। এরপর মাছ ব্য়বসায়ী শেখ নজরুল মোল্লা এবং আইনুর মোল্লার বাড়িতে গিয়ে পৌঁছয় ইডি। 

এদিন মাছ ব্যবসায়ী ছাড়াও ইটভাটার সঙ্গে যুক্ত ব্যবসায়ীর বাড়িতেও হানা দিয়েছেন ইডি আধিকারিকরা। জানা গিয়েছে, মাছ ব্যবসার পাশাপাশি বিল্ডার্সের ব্য়বসাও রয়েছে আইনুর মোল্লার। তারপর নজরুল মোল্লার বাড়িতে পাঁচ থেকে ছয়জনের একটি ইডির দল পৌঁছয় তাঁর বাড়িতে। সেখানে তাঁর পুত্র হারুন আল রশিদকে জিজ্ঞাসাবাদ চালায় ইডি আধিকারিকরা। সূত্রের খবর, এরা সকলেই শেখ শাহজাহানের আত্মীয়দের বাড়িতেও গিয়ে পৌঁছয় ইডি। 

3 months ago


Sandeshkhali: সন্দেশখালিকাণ্ডে আটকদের জিজ্ঞাসাবাদের আবেদন, বসিরহাট মহকুমা আদালতের দ্বারস্থ সিবিআই

রেশন দুর্নীতির তদন্তে নেমে গত ৫ জানুয়ারি ইডি আধিকারিকদের উপর হামলার ঘটনায় ইতিমধ্যেই সিবিআইএর হাতে গ্রেফতার ৪ জন। রাজ্য পুলিসের পক্ষ থেকে গ্রেফতার করা হয় ৭ জনকে। এই ৭ জন হলেন আলী হোসেন ঘরামী, সঞ্জয় মন্ডল, সুকমল সদ্দার, মেহেবুব মোল্লা, আমিনুর শেখ, এনামুল শেখ এবং আইজুল শেখ।

এই ৭ জনকে এবার নিজেদের হেফাজতে চেয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করতে চাইছে সিবিআই। এ বিষয়ে বুধবার বসিরহাট মহকুমা আদালতে আবেদন সিবিআইয়ের। বুধবার বসিরহাট মহাকুমা আদালত চত্বরে ১০ থেকে ১২ জনের একটি সিবিআই প্রতিনিধি দল সঙ্গে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা৷ সন্দেশখালি কেসের তদন্তে ও নথি সংগ্রহ করতে বসিরহাট  আদালতে তারা আসেন বলেই সিবিআই সূত্রে খবর৷ পাশাপাশি শেখ শাহজাহান এবং তাঁর ঘনিষ্ঠ ফারুক আকুঞ্জিকেও মুখোমুখি বসিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের সম্ভাবনা।

ইডি আধিকারিকদের উপর হামলার ঘটনায় ৫৫ দিন পর গ্রেফতার হয়েছিলেন শেখ শাহজাহান। কোথায় আত্মগোপন করেছিলেন তিনি? সিবিআই সূত্রে খবর, একদিকে যখন তাঁর ফাঁসির দাবিতে সরব ছিল সন্দেশখালি, তখন তিনি ছায়াসঙ্গী ফারুক আকুঞ্জির বাড়িতে লুকিয়ে ছিলেন। সেকারণেই সমগ্র বিষয়ে এই ঘটনায় জড়িতদের নিজেদের হেফাজতে জিজ্ঞাসাবাদের প্রয়োজন রয়েছে বলে দাবি সিবিআইয়ের। এখন এই সন্দেশখালি কাণ্ডের জল কতদূর গড়ায়, আর কোন কোন ব্যক্তি এই ঘটনায় জড়িত সেদিকেই তাকিয়ে বাংলার ওয়াকিবহাল মহল।

3 months ago
Sandeshkhali: ইডির উপর হামলায় তৃণমূল পঞ্চায়েত প্রধানের বাড়িতে সিবিআই হানা, তলব আরও ২

ইডির উপর হামলার ঘটনায় তিনজন তৃণমূল নেতাকে গ্রেফতার করেছে সিবিআই। গ্রেফতারির পর তাঁদের নিজাম প্য়ালেসেই রাখা হয়েছিল। মঙ্গলবার সকালে জিয়াউদ্দিন মোল্লা, দিদার বক্স মোল্লা ও ফারুক আকুঞ্জিকে নিজাম প্যালেস থেকে বের করে নিয়ে যাওয়া হল বসিরহাট আদালতের উদ্দেশ্যে। পাশাপাশি মঙ্গলবার আরও তিনজনকে তলব করল সিবিআই। তাঁরা হলেন সিদ্দিক মোল্লা, আবিবুর রহমান, রহমান আকুঞ্জি।

সিবিআইয়ের একটি সূত্রে খবর, উত্তর ২৪ পরগনার সন্দেশখালির বেড়মজুরে সিদ্দিক মোল্লা নামে এক ব্যক্তির বাড়িতে হানা দেয় সিবিআই। সেখানেই জানা গিয়েছে, সিদ্দিক মোল্লা হলেন বেড়মজুরের পঞ্চায়েত প্রধান। গত ৫ জানুয়ারি ইডির উপর হামলার ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তৃণমূলের এই পঞ্চায়েত প্রধানকে এদিন কলকাতার সিবিআই দফতরে আসতে বলা হয়েছে।

গতকাল অর্থাৎ সোমবার ইডির উপর হামলার ঘটনায় তদন্তে নেমে সন্দেশখালির একাধিক জায়গায় অভিযান চালিয়েছে সিবিআই আধিকারিকরা। ন্যাজাট থানার অধীনস্থ ফাঁড়িতেও তদন্তের প্রয়োজনে গিয়েছেন তদন্তকারীরা। কেন্দ্রীয় গোয়েন্দারা ধৃত শাহজাহান শেখের এক প্রতিবেশীর বাড়িতেও যান। রহমান আকুঞ্জি নামে এক ব্যক্তির খোঁজ না পেয়ে তাঁর বাড়ির এক সদস্যের হাতে নোটিশ দেন সিবিআই। কিন্তু রহমানের সৎ মা সিবিআইয়ের সামনেই তাঁদের দেওয়া নোটিশ ছিঁড়ে ফেলে দেন বলে অভিযোগ।

3 months ago


Arrest: ইডির উপর হামলায় গ্রেফতার শাহজাহান ঘনিষ্ঠ তিন তৃণমূল নেতা

সন্দেশখালিকাণ্ডে ইডির উপর হামলার ঘটনায় শাহজাহান ঘনিষ্ঠ তিনজনকে গ্রেফতার করল সিবিআই। এর মধ্য়ে রয়েছেন জিয়াউদ্দিন মোল্লা, শাহজাহানের ডান হাত হিসেবে তাঁর এলাকায় পরিচিত। আর বাকি দুই জন হলেন ফারুক আকুঞ্জি এবং দিদার বক্স মোল্লা। 

প্রসঙ্গত, গত ৫ জানুয়ারি ইডি আধিকারিকদের উপর হামলার ঘটনার ভিডিও ফুটেজে দেখা গিয়েছিল জিয়াউদ্দিন মোল্লাকে। ঘটনার তদন্তে নেমে শাহজাহান শেখের কললিস্টে জিয়াউদ্দিন মোল্লার নাম দেখা গিয়েছে। এই বিষয়ে এবার জিজ্ঞাসাবাদ করতে শাহজাহান ঘনিষ্ঠ তৃণমূল নেতা জিয়াউদ্দিন মোল্লাকে তলব সিবিআই এর। 

সোমবার জিয়াউদ্দিন মোল্লাকে দীর্ঘক্ষণ জিজ্ঞাসাবাদের পর নিজাম প্য়ালেস থেকে গ্রেফতার করা হয় তাঁকে। আগামীকাল অর্থাৎ মঙ্গলবার তাঁকে আদালতে পেশ করা হবে বলে সূত্রের খবর।

3 months ago
Sandeshkhali: সন্দেশখালিতে নতুন করে বামেদের সভার দিনই জারি ১৪৪ ধারা

ভোটমুখী বঙ্গে সন্দেশখালি ইস্যুতে উত্তেজনার পারদ ক্রমশই ঊর্ধ্বমুখী। তৃণমূলের ব্রিগেডের পাল্টা সভার ডাক দেয় সিপিএম। বাম নেতা সুজন চক্রবর্তী এবং প্রাক্তন স্থানীয় সিপিএম বিধায়ক নিরাপদ সর্দারের নেতৃত্বে সন্দেশখালি ২ নম্বর ব্লকে সভার আয়োজন করে বামেরা। বামেদের সভার দিন সন্দেশখালিতে নতুন করে জারি ১৪৪ ধারা। সোমবার সকাল থেকে ধামাখালি ঘাট সংলগ্ন এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয় বসিরহাট জেলা পুলিসের পক্ষ থেকে। এতে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে সাধারণ মানুষকে।

ধামাখালি ঘাট ছাড়াও সরবেড়িয়া মোড় ও রাজবাড়ি বাজার এলাকাকেও ১৪৪ ধারার আওতায় আনা হয়েছে ন্যাজাট থানার পক্ষ থেকে। আগামী ১৩ তারিখ পর্যন্ত ১৪৪ ধারা জারি থাকবে বলে খবর সূত্রের। তবে এই মুহূর্তে অনেকটাই শান্ত সন্দেশখালি। কি কারণে নতুন করে জারি করা হল ১৪৪ ধারা? তা নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। তাতেই কার্যত বিপাকে পড়েছেন নিত্যযাত্রীরা। দ্রুত ১৪৪ ধারা তুলে নেওয়ার দাবি সাধারণ মানুষের।

3 months ago
Shankar Adhya: ইডির উপর হামলার তদন্তে বনগাঁয় শঙ্কর আঢ্যের বাড়িতে সিবিআই

সন্দেশখালির পর এবার ইডির উপর হামলার তদন্তে বনগাঁয় গেল সিবিআই। সোমবার সকালে ফরেনসিক টিম ও কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানদের সঙ্গে নিয়ে শঙ্কর আঢ্যের বাড়িতে কেন্দ্রীয় এজেন্সি। বাড়ি পুরো ঘিরে রেখেছেন কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা।

রেশন দুর্নীতি কাণ্ডে ধৃত রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক ঘনিষ্ঠ বনগাঁ পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান শঙ্কর আঢ্যর বাড়িতে গত ৫ জানুয়ারি তল্লাশি চালাতে যায় ইডি। প্রায় ১৬ ঘণ্টা ধরে তল্লাশি চালানোর পর রাত সাড়ে ১২টা নাগাদ তাঁকে গ্রেফতার করা হয়। তাঁকে গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়ার পথে বাড়ির বাইরে মব তৈরি হয়। হামলা চালানো হয় ইডি আধিকারিকদের গাড়ির উপর। ইডি আধিকারিকদের গাড়ির উপরে হামলার ঘটনায় বনগাঁ থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয় ইডির তরফে। পরবর্তীতে কলকাতা হাইকোর্ট সেই তদন্তভার দেয় সিবিআই-এর হাতে।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সিবিআই আধিকারিকরা শঙ্করের বাড়ি সংলগ্ন এলাকায় আসেন এবং সমস্ত কিছু খতিয়ে দেখেন। ভিডিওগ্রাফি করে নিয়ে যান। সোমবার ফের ইডির উপর হামলার ঘটনায় বনগাঁয় তদন্তে যায় সিবিআই ও তাদের ফরেনসিক টিম। সমস্ত তদন্ত প্রক্রিয়া ডিজিটাল এভিডেন্স হিসেবে সংগ্রহ করা হচ্ছে। এরপর পরবর্তীতে সিবিআই আধিকারিকরা বনগাঁ পুরসভার বর্তমান চেয়ারম্যান গোপাল শেঠ-এর বাড়িতে যান। তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। প্রায় সাড়ে ৩ ঘন্টা ধরে তদন্ত চালায় সিবিআই।

তদন্তে জানা যায়, শঙ্করের বাড়ির ঢিল ছোড়া দূরত্বে থাকা CCTV ক্যামেরার তার খোলা অবস্থায় পড়ে রয়েছে। এই ঘটনা নিছকই কাকতালীয় নাকি এর পিছনেও লুকিয়ে কোনও রহস্য? ধন্দ কাটাতে বনগাঁ পুরসভায় সিসি ক্যামেরার ফুটেজ চেয়ে নোটিশ সিবিআই এর। ফুটেজ চেয়ে নোটিশ তলব গোপাল শেঠকেও।

3 months ago


Sandeshkhali: ব্রিগেড নয়, ন্যাজাটমুখী, কর্মসংস্থান-দুর্নীতি রোধের বার্তা শুভেন্দু-সুকান্তর

একদিকে শাসকের ব্রিগেড, অন্যদিকে পদ্মশিবিরের ন্যাজাট। রাজ্যে একই দিনে দুই হাইভোল্টেজ ইভেন্ট। সন্দেশখালি ইস্যুতে কোনদিকে পাল্লা ভারী থাকবে, তা নিয়ে নজর ছিল সবপক্ষের। কিন্তু রবিবার সকাল থেকে দেখা গেল ধামাখালি, ভোলাখালি সহ বিভিন্ন ফেরিঘাট ঢেকেছে পদ্মের পতাকায়। লঞ্চ বোঝাই করে মানুষও সকাল সকাল রওনা দিয়েছেন বিজেপি সভায় যোগ দিতে। সভায় বক্তব্যের শুরুতেই সন্দেশখালির লড়াইকে কুর্ণিশ, পাশে থাকার বার্তা শুভেন্দু-সুকান্তদের। তাঁদের সঙ্গে গলা মেলালেন সন্দেশখালির বাসিন্দারা।

মহিলাদের আন্দোলন, প্রতিবাদ আর বহু অপেক্ষার পর গ্রেফতার সন্দেশখালির একদা ত্রাস শাহজাহান-শিবু-উত্তমরা। যাদের নামে এক সময় কাঁপত সন্দেশখালি, আজ তারাই গরাদের ওপারে। বীরভূমের কেষ্টর সঙ্গে তুলনা করে কটাক্ষ সুকান্ত মজুমদারের।

শিবু-উত্তম-শাহজাহান গারদে। সন্দেশখালির বাসিন্দারা বলছেন, এখন তাঁদের উপর জোর করার লোক নেই। ঘরে বসে আছেন তৃণমূলের বুথ সভাপতি খোদ। ব্রিগেডের গর্জনে না গিয়ে বাড়িতেই সন্দেশখালির ১৭১ নম্বর বুথের তৃণমূল সভাপতি মন্টু মাইতি। সিপিএম থেকে আসা শিবু-উত্তম-শাহজাহানরাই তৃণমূল শেষ করেছে। তিনি বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন সিএন-এর ক্যামেরার সামনে।


4 months ago
TMC Brigade: হাই-ভোল্টেজ রবিবার! 'জনগর্জন' সভা মমতা-অভিষেকের, সন্দেশখালিতে শুভেন্দু

একেবারেই হাইভোল্টেজ রবিবার। একদিকে তৃণমূলের 'জনগর্জন' সভা। আর অন্যদিকে তৃণমূলের ব্রিগেডের পালটা আজ সন্দেশখালিতে সভা করবেন শুভেন্দু অধিকারী। উপস্থিত থাকবেন সন্দেশখালির মহিলারা। কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশে এই সভা হবে।

সামনেই লোকসভা নির্বাচন। দিন ঘোষণা না হলেও একেবারে জোরদার প্রচারে নেমে পড়েছে ডান-বাম রাজনৈতিক দলগুলি। বিশেষ করে বাংলায় সন্দেশখালির ইস্যুকে কেন্দ্র করে লাগাতার বিক্ষোভ-মিছিল, আন্দোলনে নেমেছিল বঙ্গ বিজেপি। সন্দেশখালির বুকেই সভা করবেন আজ শুভেন্দু-সুকান্তরা।

এক ইঞ্চি ময়দান ছাড়তে নারাজ ঘাসফুল শিবিরও। ব্রিগেডের 'জনগর্জন' সভার মধ্যে দিয়ে একেবারে পুরোদমে লোকসভা নির্বাচনে নেমে পড়বেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। শুধু তাই নয়, ব্রিগেডের ময়দান থেকেই সন্দেশখালি ইস্যুতেও বার্তা দিতে পারেন তাঁরা, এমনটাই সূত্রের খবর।

নতুন রূপে তৈরি করা হয়েছে 'জনগর্জন' সভা মঞ্চ। ৩৩০ ফুট লম্বা র‍্যাম্প মূল মঞ্চের সামনে তৈরি হয়েছে। মূলত বিদেশের বিভিন্ন মিউজিক কনসার্ট কিংবা ফ্যাশন শো'তে এমন র‍্যাম্প দেখা যায়। সেই মঞ্চ তৈরি হয়েছে ব্রিগেডের। আর এই র‍্যাম্প ধরেই জনতার মাঝে পৌঁছে যাবেন তৃণমূল সুপ্রিমো। অন্যদিকে মূল মঞ্চ লম্বায় ৭২ ফুট, মাটি থেকে ১২ ফুট উপরে তৈরি করা হয়েছে। মঞ্চের পিছনে থাকছে এলসিডি। যাতে ব্রিগেডের সমস্ত কোণা থেকে সবাই দেখতে পারেন। শুক্রবার রাত থেকে বিভিন্ন জেলা থেকে কর্মীরা আসতে শুরু করেছে।

যদিও সন্দেশখালিতে সভার আগে মহিলাদের ভয় দেখানোর অভিযোগ সামনে আসছে। বিজেপির দাবি, সন্দেশখালির মানুষ যাতে বিজেপির সভায় না যেতে পারে সেজন্য ভয় দেখানো হচ্ছে। যদিও শাসকদলের তরফে এই অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে।

শুভেন্দু অধিকারী জানিয়েছেন, বাস কিংবা অন্য কিছু তো তৃণমূলের ব্রিগেডের জন্য পাওয়া যাবে না। সন্দেশখালির মহিলারাই মাঠ ভরাবেন বলে দাবি বিরোধী দলনেতার। তাঁর সঙ্গে এদিন সন্দেশখালির সভায় থাকবেন রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদারও।

4 months ago


Sandeshkhali: সন্দেশখালিকাণ্ডে নয়া মোড়, ইডি হামলার দিন শাহজাহানের সঙ্গে কথা হয়েছিল যাঁর...

শেখ শাহজাহান মামলায় উঠে আসছে একের পর এক চাঞ্চল্য়কর তথ্য়। গত পাঁচ তারিখ ইডির ওপর হামলার ঘটনার সময় শাহজাহানের সঙ্গে ফোনে কথা হয়েছিল যাঁর, তিনি হলেন সন্দেশখালির বিধায়ক সুকুমার মাহাতো। সিএন এর ক্যামেরার সামনে তিনি শাহজাহানের সঙ্গে কোথপোথনের কথা স্বীকার করে নেন। 

এরপর সুকুমার মাহাতো বলেন, গত ৫ জানুয়ারি সন্দেশখালিতে অশান্তির খবর সংবাদমাধ্যমে দেখার পরেই, 'আমি নিজে শাহজাহানকে ফোন করে গোটা বিষয়টি জানতে চেয়েছিলাম। শাহজাহান তখন জানান, তিনি তখন বাড়িতে ছিলেন না। কারা এই হামলা করছে জানেন না। খুব বেশি হলে কুড়ি থেকে ত্রিশ সেকেন্ড কথা হয়েছিল। তারপর আবারও আমি ফোন করি শাজাহানকে। কিন্তু দ্বিতীয়বার তাঁকে আর ফোনে পাওয়া যায়নি। ফোন সুইচ অফ বলছিল। এই ফোন কল ধরে যদি সিবিআই আমাকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে চায়, অবশ্যই আমি সহযোগিতা করব।'


4 months ago
Sandeshkhali: আবারও শাহজাহানের বাড়িতে সিবিআই, খোলা হল বাড়ির সিল

বৃহস্পতিবারের পর শুক্রবার ফের শেখ শাহজাহানের ডেরায় সিবিআই টিম। কেন্দ্রীয় বাহিনীকে সঙ্গে নিয়ে আকুঞ্জিপাড়ায় শাহজাহানের বাড়িতে যায় সিবিআই অফিসাররা। সেই সঙ্গে রয়েছে ফরেনসিক বিশেষজ্ঞরা। ৫ই জানুয়ারি এখানেই আক্রান্ত হয়েছিলেন ইডির আধিকারিকরা।

আগামীকাল অর্থাৎ শনিবার দশ দিনের পুলিসি হেফাজতের মেয়াদ শেষ হচ্ছে শাহজাহান শেখের। তারপর তাঁকে পেশ করা হবে আদালতে। তবে তার আগে একাধিক তথ্য প্রমাণ সংগ্রহ করার উদ্দেশ্য়ে এদিন শাহজাহানের বাড়িতে তল্লাশি অভিযান শুরু করে সিবিআই। গত ২৪ শে জানুয়ারি শাহজাহান শেখের এই বাড়ি সিল করেছিলেন ইডি আধিকারিকরা। এদিন ইডির দুই অফিসারের উপস্থিতিতে সেই সিল খুলে ভিতরে প্রবেশ করলেন সিবিআই অফিসাররা। 

পাশাপাশি সিবিআই আধিকারিকরা যান সরবেড়িয়ায় শেখ শাহজাহান-এর মার্কেটে। সেখানে গিয়ে দেখা যায় তালাবদ্ধ অবস্থায় রয়েছে অফিস। তারপর খোলা হয় শাহজাহানের অফিসে যাওয়ার সিঁড়ির দরজা। মার্কেটে যায় সিএফএসএল-এর টিমও। 

সূত্রের খবর, শাহজাহান শেখের বাড়ির বাইরে রাস্তার মাপ নেন সিবিআই অফিসাররা। তাঁর বাড়ির আশপাশের মেজারমেন্ট নিয়ে তথ্য-প্রমাণ সংগ্রহ করা হচ্ছে। যে রাস্তায় ইডি আধিকারিকদের উপর হামলার ঘটনা ঘটেছিল, সেই রাস্তার দৈর্ঘ্য-প্রস্থ মেপে দেখেছেন সিবিআই অফিসাররা। 

4 months ago
Sandeshkhali: এবার শেখ শাহজাহানের বাড়িতে সিবিআই হানা, সিল অবস্থায় বাড়ি ও অফিস

এবার সন্দেশখালিতে শেখ শাহজাহানের বাড়িতে হানা দিল সিবিআই আধিকারিকরা। শাহজাহানকে সিবিআই হেফাজতে নেওয়ার পরের দিনই সন্দেশখালিতে গেল সিবিআই। বৃহস্পতিবার বিকেলে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে সঙ্গে নিয়ে আকুঞ্জিপাড়ায় শাহজাহানের বাড়িতে প্রথমে যান সিবিআই আধিকারিকরা। কিন্তু শাহজাহানের বাড়ি আগে থেকেই সিল থাকায় বাধ্য় হয়ে ফিরে আসতে হয় তাঁদের। তবে সিল থাকা অবস্থায় বাড়ির ছবি তোলেন সিবিআই অফিসারেরা।

আকুঞ্জিপাড়ার বাড়ি থেকে বেরিয়ে সিবিআই আধিকারিকরা সরাসরি পৌঁছে যান সরবেড়িয়ায় শেখ শাহজাহান-এর মার্কেটে। সেখানে শাহজাহানের অফিসে গিয়েও দেখেন তালা বন্ধ। তারপর মার্কেটের বিভিন্ন অংশের ছবি তুলেই আবার ফিরে যান সিবিআই অফিসাররা। 

প্রসঙ্গত, গত ৫ জানুয়ারি সন্দেশখালিতে রেশন দুর্নীতি মামলায় শাহজাহানের বাড়িতে হানা দিয়েছিল ইডি আধিকারিকরা। প্রথমবার তল্লাশি অভিযান করতে না পারায় দ্বিতীয়বার সন্দেশখালিতে যান ইডি অফিসাররা। তারপর টানা কয়েক ঘণ্টা শাহজাহানের বাড়ি তল্লাশি করে তাঁর বাড়ি সিল করে দিয়ে চলে যায়। তারপর ৫৬ দিনের মাথায় পুলিসের হাতে গ্রেফতার হন সন্দেশখালির 'বাদশা' শেখ শাহজাহান। 

শাহজাহান গ্রেফতার হয়েই তৃণমূল থেকে বহিষ্কৃত হন। এবার ৫ জানুয়ারির মূল ঘটনার সূত্র ধরে সন্দেশখালির পরবর্তী ঘটনাপ্রবাহের তদন্তে শাহজাহানকে জেরা করছে সিবিআই। এই মামলায় তদন্তে গতি রাখতে ইডি কর্তা গৌরব ভারিলকে তলব করে সিবিআই। তাঁর বয়ান নথিবদ্ধ করে আকুঞ্জিপাড়ার ঘটনার বিবরণ সম্বন্ধে ওয়াকিবহাল হতে চাইছে। সিবিআই তলবে সাড়া দিতে ইডি কর্তা নিজাম প্যালেসে হাজিরও হয়েছেন।

অন্যদিকে, বিজেপি নেতা বিকাশ সিং জামিন পাওয়ার পর গতকাল অর্থাৎ বুধবার রাতে বাড়ি ফিরেছে। বিকাশের বাড়ি ফেরা ও শাহজাহানের সিবিআই হেফাজতের খবরে সন্দেশখালিতে চলছে আন্দোৎসব। আবিরের সঙ্গে ব্যান্ড পার্টির শব্দে নাচছেন সন্দেশখালির সিং পাড়ার মহিলারা। তাঁদের সঙ্গে রয়েছেন বিজেপি নেতা বিকাশ সিং। গ্রামে ঢুকে শিব মন্দিরে পুজো দিলেন তিনি। 

4 months ago


Sandeshkhali: আবারও সন্দেশখালির পথে বাধা, নিউটাউনে বিক্ষোভ বিজেপি মহিলা মোর্চার

ফের সন্দেশখালিতে প্রবেশের মুখে বাধাপ্রাপ্ত বিজেপি মহিলার প্রতিনিধি দল। বৃহস্পতিবার নিউটাউন থেকে বিজেপি মহিলা মোর্চার একটি প্রতিনিধি দল সন্দেশখালি যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। কিন্তু রওনা দেওয়ার আগেই সন্দেশখালিতে ১৪৪ ধারার অজুহাত দিয়ে পুলিস তাঁদের নিউটাউনেই আটকে দেন। 

এরপরেই বিজেপি মোর্চার দলের সদস্য়ের সঙ্গে বচসায় জড়িয়ে পড়ে পুলিস। বিজেপি মহিলা মোর্চার দলের সদস্য় ও কর্মীদের টেনে হিঁচড়ে তোলা হয় প্রিজন ভ্য়ানে। ব্য়ারিকেডের মাধ্য়মে বাধা দেওয়া হয় তাঁদের। আটক করা হয় লকেট চট্রোপাধ্য়ায়, অগ্নিমিত্রা পল ও ভারতী ঘোষকে। ঘটনার জেরে নিউটাউন থানার সামনেই বসে অবস্থান বিক্ষোভ শুরু করে বিজেপি মহিলা মোর্চার প্রতিনিধি দল।

সম্প্রতি বিজেপি প্রতিনিধি দল সন্দেশাখালি ঢুকতে গিয়েছিলেন। কিন্তু ১৪৪ ধারা জারি থাকার কারণে কেউই যেতে পারেননি সন্দেশখালিতে। এখন ১৪৪ ধারা প্রশাসন তুলে নেওয়ার পর কেন বারংবার পুলিসি বাধার মুখে পড়তে হচ্ছে ? কখনও সন্দেশখালি আবার কখনও ধামাখালি কিংবা বেড়মজুরে বাধাপ্রাপ্ত হচ্ছেন। 

4 months ago
Sandeshkhali: সন্দেশখালিকাণ্ডে স্বতঃপ্রণোদিত মামলার সঙ্গে মোট চারটি মামলা একত্রে শুনানি করতে চায় প্রধান বিচারপতি

সন্দেশখালি নিয়ে স্বতঃপ্রণোদিত মামলার সঙ্গে মোট চারটি মামলা একত্রে শুনানি করতে চায় প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ। শেখ শাহজাহান গ্রেফতার হয়েছে, কিন্তু সন্দেশখালিতে এখনও শাহজাহানের ভয় বর্তমান। সেখানে এখনও তার অনেক ছায়ারা ঘোরাফেরা করছে। মানুষের হিউম্যান রাইটস লঙ্ঘিত হয়েছে। এখনও শান্তি ফেরেনি সন্দেশখালিতে। তাই সন্দেশখালিতে শান্তি ফেরানো নিয়ে চিন্তিত আদালতের তৈরি করা আদালত বান্ধব এবং মামলার আবেদনকারীরা। তাঁরা আদালতে দাবি করেন, সন্দেশখালিতে দ্রুত শান্তি ফিরিয়ে আনার। সার্বিক শান্তি ফেরাতে প্রধান বিচারপতির কাছে আর্জি জানান তাঁরা। প্রশাসনকে তৎপর হওয়ার বার্তা দেন প্রধান বিচারপতি টি এস শিবজ্ঞানম। আগামী ৪ এপ্রিল মামলার পরবর্তী শুনানি।

অন্যদিকে, শেখ শাহজাহানের আইনজীবী দৃষ্টি আকর্ষণ প্রধান বিচারপতি ডিভিশন বেঞ্চের। প্রধান বিচারপতির নির্দেশের প্রেক্ষিতেই গ্রেফতার হয় শেখ শাহজাহান। তাই তাঁর জামিনের বিষয়ে শুনানি এখানেই করা হোক বলে আদালতে আবেদন করেন শাহজাহানের আইনজীবী। কিন্তু প্রধান বিচারপতি জানিয়ে দেন শেখ শাজাহানকে জামিনের জন্য কলকাতা হাইকোর্টের নির্দিষ্ট ডিভিশন বেঞ্চে আবেদন জানাতে হবে।

সন্দেশখালির ঘটনায় সাক্ষীদের নিরাপত্তা দেওয়ার আর্জিও বৃহস্পতিবার জানানো হয় কোর্টে। বিশেষত যারা এলাকায় থাকেন তাদের জীবন-জীবিকার নিরাপত্তা প্রয়োজন। যেহেতু সিবিআইয়ের হাতে এখন তদন্ত হস্তান্তর করা হয়েছে। সিবিআইকেই এই মামলায় যারা সাক্ষী হিসাবে কোনও বয়ান দিয়েছে বা কথা বলেছে তাদের নিরাপত্তা দেওয়ার ব্যবস্থা করতে হবে নির্দিষ্ট আইন ও গাইডলাইন মেনে। এই আবেদনের ভিত্তিতে প্রধান বিচারপতি নির্দেশ দেন তদন্তকারীদের এই ব্যাপারে আদালতকে হলফনামা দিয়ে জানাতে হবে। নির্দেশ প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চের।

আইনজীবী প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল এদিন আদালতে জানান সন্দেশখালিতে প্রায় ৮০ জন আক্রান্ত রয়েছেন, যাদের অভিযোগ রয়েছে। একথা শোনার পর, আক্রান্তদের বিষয়ে জানাতে প্রধান বিচারপতি একটা আবেদন জমা দিতে নির্দেশ দেন তাঁর বেঞ্চে বিচারাধীন মামলায়। এলাকার মানুষ যারা আক্রান্ত বলে অভিযোগ জানাতে চান তারা তাদের পরিচয় এবং কিভাবে আক্রান্ত ওই আবেদনে স্পষ্ট করে জানাতে হবে।

4 months ago