Breaking News
ED: মিলে গেল কালীঘাটের কাকুর কণ্ঠস্বর, শ্রীঘই হাইকোর্টে রিপোর্ট পেশ ইডির      Ram Navami: রামনবমীর আনন্দে মেতেছে অযোধ্যা, রামলালার কপালে প্রথম সূর্যতিলক      Train: দমদমে ২১ দিনের ট্রাফিক ব্লক, বাতিল একগুচ্ছ ট্রেন, প্রভাবিত কোন কোন রুট?      Sarabjit Singh: ভারতীয় বন্দি সরবজিৎ সিং-এর হত্যাকারী সরফরাজকে গুলি করে খুন লাহোরে      BJP: ইস্তেহার প্রকাশ বিজেপির, 'এক দেশ এবং এক ভোট' লাগু করার প্রতিশ্রুতি      Fire: দমদমে ঝুপড়িতে বিধ্বংসী অগ্নিকাণ্ড, ঘটনাস্থলে দমকলের একাধিক ইঞ্জিন      Bengaluru Blast: বেঙ্গালুরু ক্যাফে বিস্ফোরণকাণ্ডে কাঁথি থেকে দুই সন্দেহভাজনকে গ্রেফতার করল এনআইএ      Sheikh Shahjahan: 'সিবিআই হলে ভালই হবে', হঠাৎ ভোলবদল শেখ শাহজাহানের      CBI: সন্দেশখালিকাণ্ডে সিবিআই তদন্তের নির্দেশ কলকাতা হাইকোর্টের...      NIA: ভূপতিনগর বিস্ফোরণকাণ্ডে এবার কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ NIA     

PanchayatElection

Arabul Islam: পঞ্চায়েত নির্বাচনে খুনের মামলায় গ্রেফতার 'তাজা নেতা' আরাবুলকে পুলিসি হেফাজতের নির্দেশ

পঞ্চায়েত নির্বাচনে খুনের মামলায় গ্রেফতার ভাঙড়ের দাপুটে তৃণমূল নেতা আরাবুল ইসলাম। বৃহস্পতিবার উত্তর কাশীপুর থানার পুলিস আরাবুলকে গ্রেফতার করে। পুলিস সূত্রে খবর, খুনের অভিযোগে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই আরাবুলকে গ্রেফতারের ঘটনায় ভাঙড়ে শোরগোল পড়ে গিয়েছে। আজ, শুক্রবার তাঁকে বারুইপুর আদালতে পেশ করা হয়। ১২ দিনের পুলিসি হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

পুলিস সূত্রে খবর, আরাবুল ইসলাম ও তাঁর ছেলে আসেন উত্তর কাশীপুর থানায়। সেখানে উপস্থিত ছিলেন ভাঙড় ডিভিশনের ডিসি সৈকত ঘোষ। সূত্রের খবর, পঞ্চায়েত ভোটে ঝামেলার ঘটনায় বৃহস্পতিবার জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডাকা হয় আরাবুল ইসলামকে। ভাঙরের দাপুটে এই তৃণমূল নেতা ও তাঁর ছেলে আসেন উত্তর কাশীপুর থানায়। জানা গিয়েছে, পঞ্চায়েত ভোটে অশান্তির পাশাপাশি আইএসএফ কর্মী খুনের ঘটনাতেও আরাবুল ইসলামের নামে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল। অর্থাৎ বিজয়গঞ্জ বাজারে গণ্ডগোলের ঘটনায় খুন, অস্ত্র আইন, খুনের চেষ্টা, সরকারি কর্মচারীদের কাজে বাধা-সহ একাধিক ধারায় মামলা হয়। তার প্রেক্ষিতেই এই গ্রেফতারি বলে জানা গিয়েছে।

উল্লেখ্য, সাত মাসের পুরনো মামলায় ধৃত তাজা নেতা আরাবুল ইসলাম। যদিও একই মামলায় এখনও মুক্ত বিধায়ক শওকত মোল্লা। কান পাতলেই ভাঙরে শোনা যাচ্ছে গোষ্ঠী দ্বন্দ্বের কথা।

2 months ago
Election: পঞ্চায়েত নির্বাচনী হিংসায় ঠিক কত জনের মৃত্যু, কত জন ক্ষতিপূরণ পেল জানতে চায় কোর্ট

পঞ্চায়েত নির্বাচনে মারপিঠ, খুন, মনোনয়ন জমা দিতে না দেওয়া, ভোট লুঠ সহ বিভিন্ন অভিযোগ ওঠে রাজ্য সরকার অর্থাৎ তৃণমূলের বিরুদ্ধে। তা নিয়ে অল্প বিস্তর হাইকোর্টে মামলাও দায়ের হয়েছে। এবার পঞ্চায়েত নির্বাচনী সংক্রান্ত মামলায় ফের রাজ্য সরকারের উপর অসন্তুষ্ট হাইকোর্ট। সূত্রের খবর, পঞ্চায়েত নির্বাচনের মামলায় রাজ্যের ক্ষতিপূরণে খুশি নয় কলকাতা হাইকোর্ট। সূত্রের খবর, রাজ্যের পেশ করা তথ্যের উপর অসন্তুষ্ট হয়ে আরও তথ্য জানতে চায় আদালত।

সূত্রের খবর, পঞ্চায়েত নির্বাচনে রাজ্যের পেশ করা তথ্যের পরেও আদালত জানতে চায়, পঞ্চায়েত নির্বাচনে মৃত ব্যক্তির সংখ্যা কত! এছাড়া হোম গার্ডের চাকরি দেওয়া সকল ব্যক্তির নাম, যাদেরকে ২ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয়েছিল তাদের নাম, নির্বাচনী হিংসায় আহতদের সংখ্যা কত? তাদের কত টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয়েছে?

সূত্রের খবর, পঞ্চায়েত নির্বাচনী সংক্রান্ত মামলায় বিরোধীদের তরফে আদালত প্রমাণ পেয়েছে পঞ্চায়েত নির্বাচনে হিংসায় ৫৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। কিন্তু শুধুমাত্র ৭ জনকে ক্ষতিপূরণ ও চাকরি দেওয়া হয়েছে।  ২ লক্ষ টাকা দেওয়া হয়ছে কয়েক জনকে। বাকিদের কেন কিছু পায় নি। কেন বাকিদের কিছু দেওয়া হয়নি? আহত কতজন? কি ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয়েছে?জানতে চায় আদালত।২৬ নির্বাচন কমিশন কে জানাতে হবে সব তথ্য।

7 months ago
Mamata:পঞ্চায়েত নির্বাচনী সন্ত্রাস নিয়ে তৃণমূলকে তুলোধনা মোদির, পাল্টা কটাক্ষ মমতার

পঞ্চায়েত নির্বাচন (Panchayat Elections) নিয়ে সন্ত্রাসের অভিযোগ তুলতেই প্রধানমন্ত্রীকে পাল্টা দিলেন তৃণমূল সুপ্রিম মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। বিজেপি আমলে একাধিক দুর্নীতি নিয়ে তোপ দাগেন তিনি। পাশাপাশি বিরোধী জোট নিয়ে প্রমাণ ছাড়াই একাধিক ভুল মন্তব্য করছেন বলেও অভিযোগ তাঁর। 

বিজেপির ক্ষেত্রীয় পঞ্চায়েতিরাজ পরিষদের পূর্বাঞ্চলীয় সম্মেলনের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। সেখানে এরাজ্যের সদ্যোসমাপ্ত পঞ্চায়েত নির্বাচন নিয়ে মুখ খোলেন তিনি। শসক দলের বিরুদ্ধে একের পর এক তোপ দাগেন। কিন্তু তার ঘণ্টা খানেকের মধ্যে অডিও বার্তায় পাল্টা জবাব দেন মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়।  

তিনি অভিযোগ করেন, টিম ইন্ডিয়া প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী যা ইচ্ছে বলে যাচ্ছেন। মমতার আরও অভিযোগ, প্রধানমন্ত্রী চাইছেন দেশের সাধারণ মানুষ দুর্ভোগে থাকুক, গরিব মানুষ মারা যাক। একই সঙ্গে মোদী জমানার দুর্নীতির কথাও উল্লেখ করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পি এম কেয়ার ফান্ড, রাফাল চুক্তি সহ একাধিক ক্ষেত্রে দুর্নীতি হয়ে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

8 months ago


Modi:'ভোট লুঠ করে জিতেছে তৃণমূল,' পঞ্চায়েত নির্বাচনে হিংসা নিয়ে সরব প্রধানমন্ত্রী মোদী

পঞ্চায়েত নির্বাচনের (Panchayat Elections) হিংসার (violence) ঘটনা নিয়ে ফের মুখ খুললেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (PM)। কোলাঘাটে বিজেপির পঞ্চায়েতি রাজ সম্মেলনে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভাষণ দেন তিনি। সেখানেই বাংলার গণতান্ত্রিক পরিবেশ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন প্রধানমন্ত্রী। 

শনিবারের ওই ভার্চুয়াল সভায় প্রধানমন্ত্রী অভিযোগ করেন, ভোটে জয়ের পর প্রাণঘাতী হামলা চালাচ্ছে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস। ভোট লুঠ করা হয়েছে। পাশাপাশি, বিরোধীরা যাতে প্রার্থী না দিতে পারে তার জন্য তড়িঘড়ি ভোটের দিন ঘোষণা করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ তাঁর। রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচনকে কেন্দ্র করে যে রক্তের খেলা চলেছে তা গোটা দেশ দেখেছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি। 

ভোট গণণা প্রসঙ্গ টেনে এনেও তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন প্রধানমন্ত্রী। তার অভিযোগ, গণনা কেন্দ্রে কোনও বিজেপি প্রতিনিধিকে বসতে দেওয়া হয়নি। শাসক দলের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ করার পাশাপাশি দলের কর্মীদের পরিশ্রমের জন্য কুর্নিশ জানান তিনি। এবিষয়ে তাঁর বক্তব্য, পশ্চিমবঙ্গের পুরনো বৈভব ফেরানোর চেষ্টা করছে দলের কর্মী ও সমর্থকরা। 

আদিবাসী সমাজের পাশে দাঁড়িয়ে তৃণমূল কংগ্রেসকে কটাক্ষ করতে ছাড়েননি তিনি। কটাক্ষের সুরে তাঁর বক্তব্য, 'ওখানে আমাদের আদিবাসী ভাইবোনকে কী ভাবে অত্যাচারিত হতে হয় তা আমাদের জানা আছে। এই পরিস্থিতির মধ্যেও অনেক বিজেপি প্রতিনিধিরা জয়ী হয়েছেন। আমি সেই সব প্রতিনিধিদের অনেক শুভেচ্ছা জানাচ্ছি।'

8 months ago
Election: পঞ্চায়েত ভোট মিটে গেলেও আরও দশ দিন রাজ্যে থাকবে কেন্দ্রীয় বাহিনী

পঞ্চায়েত ভোট মিটে গেলেও আরও ১০ দিন রাজ্যে থাকবে কেন্দ্রীয় বাহিনী (Central Force)। সোমবার সকালে এই সংক্রান্ত একটি মামলার শুনানিতে এই নির্দেশ দিয়েছেন কলকাতা হাইকোর্টের (Calcutta High Court) প্রধান বিচারপতি টি এস শিবজ্ঞানম। পাশাপাশি তাঁর নির্দেশ, আগামী ১০ দিন কোথাও কোনও অশান্তির খবর পেলেই সেখানে বাহিনীকে পাঠাতে হবে।

পঞ্চায়েত ভোটের ফল ঘোষণার পরেও ১০ দিন বাহিনী থাকার নির্দেশ দিয়েছিল আদালত। কিন্তু তারপরেও পরিস্থিতি খারাপ হতে পারে। এই আশঙ্কা করে কলকাতা হাইকোর্টে একটি মামলা করে প্রিয়ঙ্কা টিব্রেওয়াল।

রাজ্যের পরিস্থিতি বিচার করে আরও একমাস রাজ্যে কেন্দ্রীয় বাহিনী রাখা যায় কিনা তা কেন্দ্রের কাছে জানতে চেয়েছিল কলকাতা হাইকোর্ট। কেন্দ্র জানিয়েছে, রাজ্যে আরও ১০ দিন রাজ্যে বাহিনী থাকবে।

9 months ago


Election: পঞ্চায়েত নির্বাচন মিটতেই লোকসভার প্রস্তুতি, জেলা শাসকদের নিয়ে বৈঠক নির্বাচন কমিশনের

পঞ্চায়েত ভোটের রেশ কাটতে না কাটতেই এবার লোকসভা নির্বাচনের প্রস্তুতি শুরু করে দিল কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন। ইতিমধ্যে কলকাতায় এসেছেন মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক আরিজ আফতাব। শনিবার শহরের একটি অভিজাত হোটেলে রাজ্যের সব জেলাশাসকদের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। প্রাথমিক পর্যায়ের একাধিক বিষয়ে আলোচনা হয়।

সূত্রের খবর এরপর ১৯ অগাস্ট রাজ্যে আসবে নির্বাচন কমিশনের ৩ সদস্যের এক প্রতিনিধি দল। যার নেতৃত্বে থাকবেন ডেপুটি নির্বাচন কমিশনার নীতীশ ব্যাস। তবে শুধু এরাজ্য নয়, সব রাজ্যেই প্রতিনিধি দল যাবে বলে জানা গিয়েছে।

নির্বাচনের প্রস্তুতি পর্ব খতিয়ে দেখবে কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশনের প্রতিনিধি দলের সদস্যরা। তারপর বিভিন্ন জেলায় জেলায় সমীক্ষা এবং ভোটার তালিকা সংশোধনের কাজ শুরু হবে।

কেন্দ্রে নরেন্দ্র মোদী সরকারের মেয়াদ শেষ হচ্ছে ২০২৪ সালের ১৬ মে। তার আগেই নির্বাচন প্রক্রিয়া শেষ করতে হবে। বিভিন্ন সূত্রের খবর সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামী বছর এপ্রিল মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহের মধ্যে নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে।

9 months ago
HighCourt: ভোট দিল ভূতে! চাঞ্চল্যকর অভিযোগে বিডিওর কাছে রিপোর্ট তলব হাইকোর্টের

ভোটারের সংখ্যা থেকে বেশি ভোট পড়ার অভিযোগ উঠল হাবড়ার একাধিক বুথে। ঘটনাচক্রে ওই একই ব্লকে ব্যালট পেপার খেয়ে ফেলার অভিযোগ উঠেছিল তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী মহাদেব মাটির বিরুদ্ধে। এই বিষয়টি প্রকাশ্যে আসতেই বিস্ময় প্রকাশ করেছেন কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি অমৃতা সিনহা। এবিষয়ে বিডিওর রিপোর্ট তলব করেছেন তিনি।

ভোটারের থেকে বেশি ভোট পড়ার অভিযোগ তুলে কলকাতা হাইকোর্টে মামলা দায়ের করেন বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের প্রার্থীরা। তাঁদের অভিযোগ, হাবড়া ২ ব্লকের তিনটি বুথে মোট ভোটারের থেকে বেশি সংখ্যক ভোট পড়েছে। এবিষয়ে আগামী ৪ অগাস্ট আদালতে রিপোর্ট জমা দেবেন হাবড়া ২-এর বিডিও। 

অন্যদিকে পঞ্চায়েত নির্বাচনে তৃণমূল বিধায়কের হুমকির বিরুদ্ধে করা মামলায় রাজ্য নির্বাচন কমিশনের কাছ থেকে রিপোর্ট তলব করলেন বিচারপতি অমৃতা সিনহা। কুলপির এক সিপিএম প্রার্থীর করা মামলায় এই নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

কুলপির রামকৃষ্ণপুর ২ গ্রাম পঞ্চায়েতের সিপিআইএম প্রার্থী ছিলেন অর্পিতা বণিক সর্দার। তাঁর অভিযোগ, ভোট গণনার দিন প্রথমে তাঁকে জয়ী ঘোষণা করা হয়েছিল। তারপর কয়েকজন দুষ্কৃতী নিয়ে ওই গণনাকেন্দ্রে ঢোকেন তৃণমূল বিধায়ক যোগ রঞ্জন হালদার। অভিযোগ তারপরেই একটি মাত্র ভোটে তৃণমূল প্রার্থীকে জয়ী ঘোষণা করা হয়।

9 months ago
BJP: পুলিসের অনুমতি না পেলেও নির্বাচনী হিংসার বিরুদ্ধে রাজপথে বিজেপি

কলকাতার রাজপথে মিছিলের অনুমতি পেল না রাজ্য বিজেপি (BJP)। বুধবার অনুমতি ছাড়াই পঞ্চায়েত ভোটের হিংসার প্রতিবাদে বুধবার রাস্তায় নামল বিজেপি। মিছিলে রয়েছেন রাজ্যের প্রথম সারির নেতারা। রয়েছেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি সুকান্ত মজুমদার, বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী সহ দিলীপ ঘোষরা।

এদিকে, পুলিসের অনুমতি না পেলেও কলেজ স্কোয়ার থেকে মিছিল শুরু করেছেন তাঁরা। জানা গিয়েছে, বুধবার কলেজ স্ট্রিট থেকে ধর্মতলা পর্যন্ত মিছিল করবে বিজেপি। এদিকে, শুক্রবার তৃণমূলের 'শহীদ দিবস' পালন। ধর্মতলায় ইতিমধ্যেই প্রস্তুতি শুরু হয়েছে । ধর্মতলাতে বিজেপির মিছিল হলে সমস্যা হতে পারে। সেক্ষেত্রে, পুলিস যে অনুমতি দেবে না মিছিলে, তা আগেভাগেই জানত রাজ্য বিজেপি। তাই তাঁরা পুলিসের অনুমতি ছাড়াই মিছিল শুরু করেছেন বলে খবর।

বিজেপি মুখপাত্র শমীক ভট্টাচার্য বলেন, 'গণতান্ত্রিক ব্যবস্থায় প্রতিবাদ করা, মিটিং-মিছিল করা রাজনৈতিক দলের অধিকার। তাই মিছিল মিছিলের মতো চলবে। পুলিস তো আটকানোর চেষ্টা করবেই। পুলিস ব্যারিকেড করবে, আমরা ব্যারিকেড ভাঙব। এভাবেই রাজনৈতিক আন্দোলন চলে।'

১২ হাজার ৪৯২ টি বুথ দখল, প্রায় ৬৫০ জন গুরুতর আহত, প্রায় ২ হাজার জন আহত। ১১ জনের মৃত্যু। এছাড়া নির্বাচন কমিশন ও মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ নিয়ে কলকাতার রাজপথে মহামিছিলে পা মেলালেন বিজেপি নেতা-কর্মীবৃন্দরা। বুধবার সকাল থেকেই এই মিছিল নিয়ে উত্তাপ ছড়িয়েছে। একদিকে যখন মিছিল রুখতে গার্ডরেল দিয়েছে পুলিস অন্যদিকে তখন রাজ্য নির্বাচন কমিশনারের ছবি বুকে নিয়ে ধিক্কার মিছিল বিজেপির, পাশাপাশি কোমরে দড়ি বেঁধে অভিনব প্রতিবাদে নেমেছে বিজেপি।

9 months ago


Damage: পঞ্চায়েত নির্বাচনে ৩৭ লক্ষের ক্ষতি স্কুলগুলিতে, কমিশনকে রিপোর্ট নবান্নের

পঞ্চায়েত নির্বাচনের জন্য ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে রাজ্যের বিভিন্ন স্কুলে। সেই সংক্রান্ত একটি তালিকা তৈরি করে ইতিমধ্যে নবান্নে জমা করেছে রাজ্যের স্কুল শিক্ষা দফতর। ওই রিপোর্ট অনুযায়ী চেয়ার, টেবিলের পাশাপাশি একাধিক স্কুলের ওয়াশ বেসিনও উধাও হয়ে গেছে।

যে কোনও নির্বাচনের পর স্কুল ও কলেজের কোনও ক্ষয়ক্ষতি হলে তা দ্রুত ক্ষতিপূরণ দেয় নির্বাচন কমিশন। একই ভাবে  পঞ্চায়েত নির্বাচনের ক্ষতিক্ষতির বিষয়ে জানাতে জেলাগুলিকে এবিষয়ে নির্দেশ দিয়েছিল রাজ্য নির্বাচন কমিশন। তারপরেই শিক্ষা দফতর একটি রিপোর্ট তৈরি করে নবান্নে পাঠিয়েছে।

ওই রিপোর্ট অনুযায়ী সবথেকে বেশি ক্ষতি হয়েছে মুর্শিদাবাদ জেলায়। একাধিক স্কুলের ফ্যান, লাইট, ইলেকট্রিক তারের কেসিং উধাও হয়ে গিয়েছে। এছাড়াও বাথরুমের প্যান, ওয়াশ বেসিন, মগ, হাইবেঞ্চ, লো বেঞ্চ নিয়ে চম্পট দিয়েছে দুষ্কৃতীরা। স্কুল শিক্ষা দফতর জানিয়েছে পঞ্চায়েত ভোটের জেরে মোট ৩৬ লাখ ৫৭ হাজার টাকার ক্ষতি হয়েছে। তা দ্রুত মেটাতে নবান্নকে অনুরোধ করা হয়েছে।

9 months ago
Attack: বিজেপি প্রার্থীকে তুলে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠল তৃণমূলের বিরুদ্ধে

পঞ্চায়েত নির্বাচন (Panchayat Elections) পর্ব শেষ হয়ে গেলেও রাজ্য়জুড়ে অশান্তি কিন্তু এখনও অব্য়হত রয়েছে। বিজেপির পঞ্চায়েত সমিতির প্রার্থীকে তুলে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, হবিবপুর পঞ্চায়েত সমিতির ২৮ নম্বর আসনের প্রার্থী সুদীপ্ত বসুকে তৃণমূলে যোগদান করানোর জন্য তুলে নিয়ে যায় কিছু তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। এই ঘটনাটি ঘটেছে মালদহের (Malda) হবিবপুর এলাকায়। 

অভিযোগ, সুদীপ্তকে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দেওয়ার জন্য রীতিমতো চাপ দেওয়া হয়। অভিযোগ, তাঁকে একটি অপরিচিত জায়গায় তুলে নিয়ে যায় তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। তারপরেই বিজেপি কর্মী সমর্থক ও তাঁর পরিবারের চেষ্টায় তাঁকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়। তবে এই বিষয়ে থানায় এখনও পর্যন্ত কোনো লিখিত অভিযোগ করা হয়নি বিজেপির তরফে। 

অন্যদিকে তৃণমূলের অভিযোগ, বিজেপির জয়ী প্রার্থী ইচ্ছা করেই তৃণমূলে যোগদান করতে এসেছিল। পাশাপাশি পঞ্চায়েত নির্বাচনে বিজেপি করার অপরাধে প্রাণ হালদার নামে এক বিজেপি কর্মীকে মারধরের অভিযোগ উঠল তৃণমূলের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে দীঘা সুকান্ত পল্লী ২০৪ নম্বর বুথে৷ আহত কর্মী বর্তমানে বনগাঁ মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন৷ 

শনিবার, রাতে আহত ওই কর্মীর সঙ্গে বনগাঁ মহাকুমা হাসপাতালে দেখা করতে আসেন বিজেপি বিধায়ক স্বপন মজুমদার সহ বিজেপি নেতারা৷ প্রাণ বলেন "গ্রামে বিজেপি জিতেছে সেই আক্রোশে তাঁকে চায়ের দোকান থেকে ডেকে নিয়ে স্কুলের পিছনে ধরে মারধর করেছে তৃণমূলের দু তিনজন।

9 months ago


Bomb: শুক্রবারও উদ্ধার বহু বোমা, নির্বাচন মিটে গেলেও বোমাতঙ্ক মিটছে না রাজ্যে

পঞ্চায়েত নির্বাচনে বোমার আঘাতে মৃত্যু হয়েছে বেশ কিছু মানুষের, সেসময় গোটা রাজ্য অর্থাৎ পশ্চিমবঙ্গ বারুদের তলায় ছিল, এ বললেও ভুল বলা হবে না। নির্বাচন ঘোষণার আগে থেকেই গোটা রাজ্য জুড়ে দফায় দফায় বোমা উদ্ধার হয়েছে। পঞ্চায়েত ভোট মিটলেও পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে উদ্ধার হচ্ছে মজুত রাখা তাজা বোমা। তেমনই শুক্রবারও রাজ্যের দুটি জেলায় পৃথক ভাবে বহু বোমা উদ্ধার হয়। সূত্রের খবর, বীরভূমের দুটি পৃথক জায়গা এবং উত্তর ২৪ পরগনার দেগঙ্গা থেকে বহু বোমা উদ্ধার করে স্থানীয় প্রশাসন।

সূত্রের খবর, শুক্রবার গোপন সূত্রের থেকে খবর পেয়ে নানুরের ব্রাহ্মণখণ্ড গ্রামের একটি পুকুর পাড় থেকে দু ড্রাম বোমা উদ্ধার করে নানুর থানার পুলিস। ওই একই দিনে বীরভূমের তারাপীঠ থানার পরুন গ্রামে লাহা নিস্পরুন হাইস্কুলের পাশে একটি পুকুরপাড় থেকে ১১ টা ৩৫ মিনিটে  উদ্ধার হয় ব্যাগ ভর্তি তাজা বোমা। শুক্রবার সকালে ওই এলাকার বাসিন্দারা বোমা ভর্তি দুটি ব্যাগ পড়ে থাকতে দেখেন। এরপর পুলিসে খবর দিলে তারাপীঠ থানার পুলিস ঘটনাস্থলে গিয়ে বোমা উদ্ধার করে ও জায়গাটিকে ঘিরে রাখে। পুলিশের অনুমান দুটি ব্যাগে  ১২-১৫ টি বোমা রয়েছে। খবর দেওয়া হয় বোম্ব স্কোয়াডে। কে বা কারা স্কুলের পাশে বোমা গুলি মজুত করে রেখেছে সেই বিষয়টি নিয়ে তদন্ত করছে তারাপীঠ থানার পুলিস।

একই দিনে উত্তর ২৪ পরগনার দেগঙ্গার কলসুর সরদার পাড়ার জনবহুল এলাকার একটি পুকুর থেকে শুক্রবার দুপুরে দুটি তাজা বোমা উদ্ধার করল দেগঙ্গা থানার। পুলিস ও স্থানীয় সূত্রে খবর, এদিন দুপুরে স্থানীয়রা পুকুরে স্নান করতে গিয়ে দেখেন একটি ব‍্যাগে পলিথিনে মোড়া দুটি তাজা বোমা, পুকুরের জলে ভাসতে দেখে তাঁরা পুলিসকে খবর দেয়। পঞ্চায়েত নির্বাচন মিটলেও জনবহুল এলাকায় বোমা উদ্ধারে আতঙ্ক ছড়ায় এলাকায়।

9 months ago
BJP: 'তৃণমূলকে ভোট দিয়ে ভুল করেছি,' প্রায়শ্চিত্ত করতে মস্তকমুণ্ডন স্থানীয়দের

পঞ্চায়েত নির্বাচনে দীর্ঘ ১৫ বছরের তৃণমূলের শক্ত ঘাঁটি দখল। আনন্দে মস্তকমুণ্ডল করতে দেখা গেল বিজেপি-কর্মী সমর্থকদের। তাঁদের কথায়, এতদিন তৃণমূলকে যে ভোট দিয়েছেন তাঁরা, সেই পাপের প্রায়শ্চিত্ত করতেই মাথা ন্যাড়া করেছে একের পর এক বিজেপি সমর্থক ও কর্মীরা। নদিয়ার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তবর্তী কৃষ্ণগঞ্জ ব্লকের ভাজনঘাট টুঙ্গি গ্রাম পঞ্চায়েতের ঘটনা।

জানা গিয়েছে, ওই পঞ্চায়েতে দীর্ঘ ১৫ বছর তৃণমূলের দখলে ছিল। তবে, এবছর ১৮টি আসনের মধ্যে ১২টিতেই জয় পেয়ে পঞ্চায়েত দখল করেছে বিজেপি। তারপরই শুরু হয়ে গিয়েছে সেলিব্রেশন। বৃহস্পতিবার ওই এলাকায় দেখা গেল সকাল থেকে লাইন দিয়ে মস্তকমুণ্ডন করছেন একের পর এক বিজেপির কর্মী-সমর্থকরা। গেরুয়া সমর্থকদের দাবি, মানুষের উন্নয়নের স্বার্থে এতদিন কোনও কাজ করেনি তৃণমূল পরিচালিত পঞ্চায়েত। এতদিন তাঁদের ভোট দিয়ে ভুল করেছেন তাঁরা। তাই মাথা ন্যাড়া করে মস্তকমুণ্ডন করেছেন তাঁরা।

যদিও, বিষয়টিকে গুরুত্ব দিতে নারাজ তৃণমূল। পাল্টা শাসকদলের কটাক্ষ, পঞ্চায়েত ভোটে পর্যুদস্ত হয়েছে বিজেপি। লোকসভা ভোটের আগেই ‘শেষকৃত্য’ সম্পন্ন করে রাখল বিজেপি।

9 months ago
Re Election: বিধায়কের বিরুদ্ধে ব্যালট লুঠের অভিযোগ, ফের নির্বাচন হবে হাওড়ায় নির্দেশ কমিশনের

ফের রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচন। গণনা পর্ব মিটে যাওয়ার পরেও ফের ১৫টি বুথে নির্বাচনের নির্দেশ রাজ্য নির্বাচন কমিশনার রাজীব সিনহার। হাওড়ার সাঁকরাইলের ১৫টি বুথে ফের নির্বাচন হবে। ওই ১৫টি বুথের গণনাকে কার্যত বাতিল ঘোষণা করেছে কমিশন।

পঞ্চায়েত নির্বাচনের মনোনয়ন, ভোটগ্রহণ ও গণনা, তিন পর্যায়ে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে এলাকা। গণনার দিন সাঁকরাইলের ১৫টি বুথে ভোট দেওয়া ব্যালট পেপার ছিনতাই করা হয়। গণনার কাজ সম্পূর্ণ হয়নি। সাঁকরাইলে তৃণমূল বিধায়ক প্রিয়া পালের বিরুদ্ধে ব্যালট লুঠের অভিযোগ ওঠে।

পাশাপাশি উত্তর ২৪ পরগনার হাবড়ার দুটি বুথ ও হুগলির সিঙ্গুরেও পুনর্নির্বাচন হবে।  সাঁকরাইলের ২৪৭-২৫৪ নম্বর, মোট ৯টি বুথ, সারেঙ্গার ২৬৭, ২৬৮, ২৭১ ও ২৭৭ নম্বর বুথেও নির্বাচন বাতিলের নির্দেশ। সিঙ্গুরের বেরাবেরির ১৩ নম্বর বুথে ফের নির্বাচন হবে। হাবড়া ২-এর ভুরকুন্ডার ১৮ নম্বর বুথ, ৩১ নম্বর বুথ, ও গুমা পঞ্চায়েত কেন্দ্রের ১২০ নম্বর বুথেও নির্বাচনের সিদ্ধান্ত কমিশনের।

9 months ago


ED: নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় এবার অনুব্রত মন্ডলকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারে ইডি

পঞ্চায়েত নির্বাচনে তৃণমূলের জয়ে খুশি অনুব্রত মন্ডল। কিন্তু কবে জেল থেকে মুক্তি হবে, তা জানতে পারেননি। গরুপাচার মামলায় এক বছর ধরে জেলে আছেন বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি। এবার নিয়োগ দুর্নীতি মামলাতেও প্রশ্নের মুখে পড়তে পারেন অনুব্রত। নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় অনুব্রত মন্ডলকে জেরা করতে পারে ইডি, এমনটাই সূত্রের খবর।

ইডি সূত্রে খবর, নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় তদন্তে নেমে মিলেছে বিস্ফোরক তথ্য। এই মামলায় এখনও অবধি তৃণমূল নেতা, মন্ত্রী সহ বহু সরকারি আধিকারিকও গারদের ওপারে আছেন। এবার এই মামলায় বীরভূমের বেতাজ বাদশাকেও জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারে ইডি।

সূত্রের খবর, বয়ান রেকর্ড করার জন্য ইতিমধ্যেই দিল্লির রাউস অ্যাভিনিউ আদালতে আবেদন করেছেন তদন্তকারী আধিকারিকরা। আগামী ২০ জুলাই বিচারক রঘুবীর সিংয়ের বেঞ্চে এই আবেদনের শুনানি আছে। ইডির আবেদন মঞ্জুর হলে অনুব্রতকে প্রাথমিক নিয়োগ দুর্নীতি নিয়ে জেরা করতে পারে ইডি।

নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় শাসক দলের একের পর এক নেতা-মন্ত্রীর নাম জড়িয়েছে। জেলে আছেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়, বিধায়ক মানিক ভট্টাচার্য, জীবনকৃষ্ণ সাহার মতো নেতারা। টাকা নিয়ে চাকরি বিক্রির অভিযোগ উঠেছে।

9 months ago
Tmc: নির্বাচনী হিংসায় ঘাত-প্রতিঘাতে অন্যদের তুলনায় ৪ গুন বেশি মৃত্যু তৃণমূলেরই

মণি ভট্টাচার্য: পঞ্চায়েত নির্বাচন (Panchayat Election) ঘোষণার পর থেকে এখনও অবধি রাজ্যে মৃত্যুর সংখ্যা হাফ সেঞ্চুরি পার। কিন্তু এবার মৃত্যুর পরিসংখ্যান বলছে অন্যবারের তুলনায় চিত্রটা কিছুটা আলাদা। প্রত্যেকটি একক দলের কর্মীদের মৃত্যুর সংখ্যার তুলনায় ৪ গুন্ বেশি তৃণমূল কর্মীদের মৃত্যু হয়েছে। একটি অলিখিত সূত্রের খবর অনুযায়ী, এখনও অবধি রাজনৈতিক হিংসা (Political Violence), বোমা বিস্ফোরণ, ইত্যাদি সব মিলিয়ে মোট ৫৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। যদিও এই হিংসা ও মৃত্যু নিয়ে রাজ্য নির্বাচন কমিশনার জানিয়েছেন, মৃত্যু হয়েছে ১০ জনের। এছাড়া মমতা বন্দোপাধ্যায় অথাৎ মুখ্যমন্ত্রীর দাবি মৃত্যু হয়েছে ১৯ জনের। 

পঞ্চায়েত নির্বাচনে রাজনৈতিক হিংসায় বিরোধী দলগুলির থেকে শাসক দলের কর্মীর মৃত্যু বেশি হয়েছে এ ঘটনা বিরল, এমনটাই রাজনৈতিক মহলের দাবি, এঘটনায় অবশ্য শুভেন্দু অধিকারী মমতা বন্দোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করে বলেন, 'মমতা বন্দোপাধ্যায় মৃত্যুর হিসেবে কমিয়ে বলছেন।'

যদিও সূত্রের খবর অনুযায়ী, গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব, বোমাবাজি, রাজনৈতিক হিংসায় রাজনৈতিক কর্মীর ছেলে, পোলিং এজেন্ট, প্রার্থীর পরিবার সহ তৃণমূল কর্মী বা তৃনমূল সমর্থনকারী মোট ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে। যেখানে সমানভাবে বিজেপি কর্মী ও বিজেপি সমর্থনকারী মোট ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া ৭ জন কংগ্রেস কর্মীও রাজনৈতিক হিংসায় প্রাণ হারিয়েছেন। রাজনৈতিক হিংসায় বাদ যায়নি নির্দল বা সিপিআইএম। সিপিআইএম কর্মীদের ৪ জন প্রাণ হারিয়েছে, হিংসায় প্রাণ গিয়েছে ১ জন নির্দল কর্মীরও। এ ছাড়া ভাঙড়ে হিংসায় বৃহস্পতিবার অবধি প্রাণ গিয়েছে ৩ জন আইএসএফ কর্মীরও। ফলে এই পরিসংখ্যানে স্পষ্ট যে অন্য যে কোনও একক দলের কর্মীদের নিরিখে তৃণমূল কর্মীরাই বেশি প্রাণ হারিয়েছেন। বুধবার সাংবাদিক বৈঠকে মমতা বন্দোপাধ্যায় ১৯ জনের মৃত্যুর হিসেব দেখালেও রাজনৈতিক হিংসায় যে তৃণমূলেরই বেশি মৃত্যু হয়েছে সেটা স্পষ্ট ভাবে জানিয়ে দেন তিনি।

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার বেলা ১২টা অবধি অলিখিত সূত্রের খবর অনুযায়ী, পঞ্চায়েত নির্বাচনী হিংসায় দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ১৪ জন, মুর্শিদাবাদে ১৪ জন, কোচবিহারে ৬ জন, মালদহে ৬ জন, উত্তর দিনাজপুরে ৪ জন, নদিয়ায় ৩ জন, পুরুলিয়ায়, উত্তর ২৪ পরগনায়, পূর্ব বর্ধমানে ২ জন করে মৃত্যু হয়েছে, এছাড়া বীরভূম, দক্ষিণ দিনাজপুর, পশ্চিম মেদিনীপুরে ১ জন করে মৃত্যু হয়েছে।

পাশাপাশি অলিখিত সূত্রের খবর অনুযায়ী, ২০০৩ সালে পঞ্চায়েত নির্বাচনে ১ দফার ভোটে ৮০ জনের মৃত্যু হয়েছে, যেখানে নির্বাচন কমিশন জানিয়েছিল ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। ২০০৮ সালে ৩ দফার ভোটে ৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছিল। যেখানে নির্বাচন কমিশন জানিয়েছিল ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। পাশাপাশি ২০১৩ সালে পঞ্চায়েত নির্বাচনে ৩১ জনের মৃত্যু হয়েছে, যেখানে নির্বাচন কমিশন জানিয়েছিল ১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া ২০১৮ সালে ৩ দফার ভোটে ৭৫ জনের মৃত্যু হয়েছে, যেখানে নির্বাচন কমিশন জানিয়েছিল ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া ২০২৩ সালে ১ দফা নির্বাচনে এখনও অবধি ৫৬ জনের মৃত্যু হয়েছে, যেখানে নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

9 months ago