Breaking News
ED: মিলে গেল কালীঘাটের কাকুর কণ্ঠস্বর, শ্রীঘই হাইকোর্টে রিপোর্ট পেশ ইডির      Ram Navami: রামনবমীর আনন্দে মেতেছে অযোধ্যা, রামলালার কপালে প্রথম সূর্যতিলক      Train: দমদমে ২১ দিনের ট্রাফিক ব্লক, বাতিল একগুচ্ছ ট্রেন, প্রভাবিত কোন কোন রুট?      Sarabjit Singh: ভারতীয় বন্দি সরবজিৎ সিং-এর হত্যাকারী সরফরাজকে গুলি করে খুন লাহোরে      BJP: ইস্তেহার প্রকাশ বিজেপির, 'এক দেশ এবং এক ভোট' লাগু করার প্রতিশ্রুতি      Fire: দমদমে ঝুপড়িতে বিধ্বংসী অগ্নিকাণ্ড, ঘটনাস্থলে দমকলের একাধিক ইঞ্জিন      Bengaluru Blast: বেঙ্গালুরু ক্যাফে বিস্ফোরণকাণ্ডে কাঁথি থেকে দুই সন্দেহভাজনকে গ্রেফতার করল এনআইএ      Sheikh Shahjahan: 'সিবিআই হলে ভালই হবে', হঠাৎ ভোলবদল শেখ শাহজাহানের      CBI: সন্দেশখালিকাণ্ডে সিবিআই তদন্তের নির্দেশ কলকাতা হাইকোর্টের...      NIA: ভূপতিনগর বিস্ফোরণকাণ্ডে এবার কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ NIA     

Explosion

Murshidabad: জামিন পেয়েই বোমাবাজি! পুরনো বিবাদে প্রাণ সঙ্কটে...

পুরনো বিবাদ মাথাচাড়া দিচ্ছে ফের। জামিন পেয়েই এলাকায় বোমাবাজি চালাল অভিযুক্তের দল। অন্তত ৭টি বোমার বিস্ফোরণে (Bomb explosion) কেঁপে উঠল মুর্শিদাবাদের (Murshidabad) সাগরপাড়ার নোটিয়াল ঘোষপাড়া এলাকা। আইনের বাঁধনও ঢিলে? জামিন পেয়েই এলাকায় বোমা হাতে দাপাদাপি!

ঘটনার সূত্রপাত মাস সাতেক আগে। অভিযোগ, পুকুরে মাছ ধরার বিবাদে ধুন্ধুমার বাধে ঘোষপাড়া এলাকায়। সংঘর্ষে মৃত্যু হয় পাইলট শেখ নামে এক ব্যক্তির, জখম ছিলেন আরও ৫ জন। ঘটনায় গ্রেফতার হয় বেশ কিছু অভিযুক্ত। কিন্তু জেল থেকে মুক্তি পেতেই ফের তাণ্ডব শুরু। অভিযোগ, টাকায় মামলা রফা করতে রাজি না হলেই বোমাবাজি, ভাঙচুর চালায় অভিযুক্তরা। এবার নিহত পাইলট শেখের কোলের শিশু এবং তাঁর স্ত্রীর প্রাণ সঙ্কটে।

জেল থেকে ছাড়া পেয়েই মাত্রা ছাড়াচ্ছে বোমাবাজদের স্পর্ধা? কেন সজাগ ছিল না পুলিস? তদন্ত চলছে নিজের তালে, কিন্তু ন্যায্য বিচার কি মিলছে? লাগামহীন হয়ে পড়ছে বাংলার সন্ত্রাস। কেন রাশ টানতে পারছে না প্রশাসন? বোমার সহজলভ্যতা বাড়ছে। হাতে হাতে ঘুরছে বিস্ফোরক! কোথায় দাঁড়িয়ে বোমা-বারুদের রাজ্য?

7 months ago
Bomb: নীলগঞ্জ বিস্ফোরণের স্মৃতি উস্কে ফের বিস্ফোরণ দত্তপুকুর থানা এলাকায়

দত্তপুকুর (Duttapukur) থানার নীলগঞ্জের ভয়াবহ বিস্ফোরণের (explosion) স্মৃতি এখনও টাটকা। স্বজন হারানোর ক্ষতটা এখনও দগদগে। তার মধ্যেই ফের বোমা বিস্ফোরণে কেঁপে উঠল দত্তপুকুর থানার কদম্বগাছির উলা মাঝের পাড়া গ্রাম। জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার রাতে একটি ক্ষেতের পাশে মজুত করে রাখা বোমা বিস্ফোরণ হয়। বিস্ফোরণের তীব্রতা এতটাই ছিল যে বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। অভিযোগ, এর আগেও বহুবার উলা মাঝের পাড়ায় বোমা বিস্ফোরণ হয়েছে। এলাকায় বোমা বাঁধত আইএসএফ কর্মীরা। অভিযোগ এলাকাবাসীদের। ঘটনায় আতঙ্ক ছড়িয়েছে এলাকায়।

একের পর এক বিস্ফোরণের পরেও কেন তৎপর নয় প্রশাসন? এর আগে বিস্ফোরণের ঘটনার কথা কিছুই কি জানা নেই প্রশাসনের? যদিও আগে একাধিকবার বিস্ফোরণের অভিযোগ সম্পর্কে নাকি কিছু জানা নেই অঞ্চল তৃণমূল সভাপতি নিজামুল কবির। এমনটাই দাবি করলেন তিনি।  বোমা তৈরির কাজ করে শাসকদলের লোক। পাল্টা অভিযোগ আইএসএফ কর্মী আব্দুর রহিম-এর।

দত্তপুকুর থানার অন্তর্গত নীলগঞ্চের বিস্ফোরণের জের কাটতে না কাটতেই ফের কদম্বগাছিতে বিস্ফোরণ। যে কদম্বগাছি দত্তপুকুর থানার আওতাধীন। একই থানার অন্তর্গত দুটি জায়গায় কিছুদিনের ব্যবধানে বিস্ফোরণ। তবে কি কোথাও প্রশাসনের নজরদারিতে ফাঁক থেকে যাচ্ছে? নীলগঞ্জ বিস্ফোরণে পর ধারাবাহিকভাবে ওই এলাকা থেকে বহু বিস্ফোরক উদ্ধার করা হয়েছিল। নড়েচড়ে বসেছিল প্রশাসন। প্রশাসনিক তৎপরতা শিথিল হতেই ফের আবারও কি মজুত করা হচ্ছিল বোমা? উঠছে প্রশ্ন।

7 months ago
Explosion: দত্তপুকুরের পর গোঘাট, অবৈধ বাজি কারখানায় বিস্ফোরণ, অভিযোগ পুলিসি নিষ্ক্রিয়তার

উত্তর ২৪ পরগনার দত্তপুকুরের পর এবার আরামবাগের গোঘাটে বেআইনি বাজি কারখানায় বিস্ফোরণ। বাড়ির মধ্যেই বাজি তৈরি হত বলে জানা গেছে। সেখানেই বুধবার আনুমানিক দুপুর ১২টা নাগাদ বাজি তৈরি করতে গিয়ে এই বিস্ফোরণে ঘটে বলে অনুমান।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, আরামবাগের গোঘাটের মান্দারণ পঞ্চায়েতের মোষপুর এলাকার বাসিন্দা সেখ লাল্টু নিজের বাড়িতেই বেআইনিভাবে গোপনে বাজি কারখানা চালাতো। সেখানে হঠাৎই এই  বিস্ফোরণ ঘটেছে। আগুন লেগে যায় চালা ঘরে। ঘটনা জেনে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন এলাকার বাসিন্দারা। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যায় গোঘাট থানার পুলিশ। ঘটনার পর এলাকায় প্রচুর মানুষ জমায়েত হয়। যদিও প্রকাশ্যে কেউ ভয়ে এবিষয়ে মুখ খুলতে চাননি। তবে, ঘটনাস্থলে ছড়িয়ে ছিটিয়ে পড়ে রয়েছে ওই চালাঘরের ছাউনি ও টিন। এদিক ওদিক পরে রয়েছে বাজি তৈরির সরঞ্জাম, বাজির খোল সহ অন্যান্য জিনিসপত্র। এমনকী বারুদে ভরা বাজি তৈরির মেশিন পড়ে রয়েছে পরিত্যক্ত জায়গায়। ঘটনার পর পলাতক বাড়ির মালিক সেখ লাল্টু।

প্রায় দশ বছর আগে বোমা তৈরি করতে গিয়ে এই বাড়িতেই বড়সড় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছিল। সেই সময় উড়ে গিয়েছিল বাড়ির চাল। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল প্রতিবেশীদের বাড়িও। এমনকী মৃত্যু হয়েছিল বাড়ির এক মহিলার। সেই ঘটনার পর ফের এই ঘটনায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে এলাকা জুড়ে। অনেকেই ভয়ে মুখ খুলতে না চাইলেও প্রতিবেশী কয়েকজন বলেন, আগের ঘটনার অভিজ্ঞতা ও আতঙ্কের কথা। তাদের ধারণা বাজি তৈরি করতে গিয়েই এই বিস্ফোরণ ঘটেছে। কিন্তু এখানেই প্রশ্ন দত্তপুকুরের ঘটনার পরেও কেন শিক্ষা নিচ্ছে না প্রশাসন? তাহলে কি প্রশাসন কোনও খোঁজখবর রাখেনি নাকি পুলিশ প্রশাসনের মদতেই এই বাজি তৈরির কারখানা চলতো। যদি ফের বড়সড় দুর্ঘটনা ঘটতো তার দায় কে নিত?

7 months ago


Arrest: কলকাতা বিমানবন্দর থেকে দত্তপুকুর বিস্ফোরণ কাণ্ডে মূল চক্রীকে গ্রেফতার করল এসটিএফ

দত্তপুকুর বিস্ফোরণ কাণ্ডে বড়সড় সাফল্য পেল রাজ্যের স্পেশাল টাস্ক ফোর্সের অফিসাররা। বৃহস্পতিবার সন্ধে নাগাদ কলকাতা বিমানবন্দর থেকে গ্রেফতার করা হয় বাজি কারখানার মূল চক্রী মহম্মদ নজরুল ইসলামকে। ঘটনার পর থেকেই ভিন রাজ্যে গিয়ে গা ঢাকা দিয়েছিল সে।

জানা গিয়েছে, বিস্ফোরণের পরেই রাজ্য ছাড়ার পরিকল্পনা করে অভিযুক্ত নজরুল ইসলাম। তারপরেই চেন্নাই পালিয়ে যায়। সেই সঙ্গে প্রচুর পরিমাণে বেআইনি বাজি রাজ্যের বাইরে পাচার করার চেষ্টা করেছিল। যদিও আগেই সেগুলি আটক করে পুলিশ। এবং দুজনকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করেই মূল চক্রীর হদিশ পাওয়া সম্ভব হয়।

মহম্মদ নজরুল ইসলামের ফের রাজ্য ফিরে আসার বিষয়ে জানতে পারে পুলিশ। সেইমতো পরিকল্পনা শুরু হয়। আগে থেকেই কলকাতা বিমানবন্দরে তৈরি ছিলেন পুলিশ আধিকারিকরা। বিমানবন্দরের বাইরে বেরোনোর সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে নজরুলকে গ্রেফতার করা হয়।

দিন কয়েক আগে দত্তপুকুরে একটি অবৈধ বাজি কারখানার ব্যাপক বিস্ফোরণ হয়। ঘটনায় বেশ কয়েকজনের মৃত্যু হয়। ঘটনার পরে শাসক দলের একাধিক নেতার বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছিলেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

8 months ago
License: 'জেলা থেকে পাওয়া যাবে না লাইসেন্স,' দত্তপুকুর বিস্ফোরণকাণ্ডের পর সতর্ক নবান্ন

এগরা, মহেশতলা এরপর দত্তপুকুর। পরপর অবৈধ বাজি কারখানায় বিস্ফোরণ কাণ্ডে তোলপাড় হয়েছে রাজ্য। প্রতিবারই সতর্ক হয়েছে প্রশাসন। কিন্তু প্রতিবারই গাফিলতির কারণে দুর্ঘটনা এড়াতে পারেনি প্রশাসন। সেজন্যই এবার অবৈধ বাজি কারখানা রুখতে বড় সিদ্ধান্ত নিলো রাজ্য সরকার। এবার জেলা প্রশাসনকে নির্দেশ দেওয়া হল, যাতে জেলা স্তর থেকে আর কোনও লাইসেন্স না দেওয়া হয়। বৃহস্পতিবারই এ বিষয়ে আলোচনা হয়েছে বলে সূত্রে খবর।

বৃহস্পতিবার নবান্নে ছিল জেলাশাসকদের সঙ্গে মুখ্যসচিবের বৈঠক। বিভিন্ন প্রশাসনিক বিষয়েই আলোচনা হয়েছে এদিন। নবান্ন সূত্রের খবর, মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী জেলাশাসকদের বলেছেন, যাতে আর কোনও বাজি কারখানাকে জেলাস্তর থেকে লাইসেন্স না দেওয়া হয়। পুলিশ সুপারদেরও এ ব্যাপারে সতর্ক করেছে নবান্ন। মুখ্যসচিবের নির্দেশ আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে সব জেলায় বাজি বাজেয়াপ্ত করতে হবে। প্রয়োজনে ইটেলিজেন্স ব্যুরো বা আইবি-র নজরদারি বাড়িয়ে সব কারখানায় অভিযান চালাতে হবে বলেও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। জনবসতিপূর্ণ এলাকায় বারবার এভাবে বিস্ফোরণের ঘটনাই চিন্তার ভাঁজ ফেলেছে প্রশাসনের শীর্ষকর্তাদের কপালে।

8 months ago


Sougata: দত্তপুকুর বিস্ফোরণ কাণ্ডে মুখ্যমন্ত্রীর দফতরের বিরুদ্ধেই তোপ দাগলেন সাংসদ সৌগত

দত্তপুকুর বিস্ফোরণকাণ্ডে মুখ্যমন্ত্রীর দফতরের বিরুদ্ধেই তোপ দাগলেন সাংসদ সৌগত রায়। দমদমের সাংসদ তথা তৃণমূলের বর্ষীয়ান নেতা সৌগত রায় একটি দলীয় সভা থেকে পুলিসের বিরুদ্ধে গাফিলতির অভিযোগ তোলেন। তিনি বলেন, 'পুলিশের একাংশের অবহেলা ছিল। পুলিশকে আরও কড়া পদক্ষেপ করতে হবে।' খড়দহের একটি দলীয় সভায় অংশ নিয়েছিলেন সাংসদ। সেখান থেকেই বিস্ফোরক উক্তি করেন তিনি।

দত্তপুকুর বিস্ফোরণকাণ্ডে পুলিশের ভূমিকা নিয়ে স্থানীয় বাসিন্দারা একাধিক অভিযোগ করছেন। এই প্রসঙ্গে প্রশ্ন করা হয় সৌগত রায়কে। তিনি বলেন, “দত্তপুকুরের ঘটনা খুবই দুঃখজনক। পুলিশের তলার স্তরে নিশ্চয়ই কোনও অবহেলা ছিল। আমরা আশা করি এরপর আর এরকম হবে না। পুলিশ আরও সক্রিয় হবে।” তিনি আরও বলেন, “মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আগেই নির্দেশ দিয়েছিলেন, যা বেআইনি বাজি কারখানা রয়েছে, তোমরা বার করো। তারপরও কীভাবে এত বড় বাজি কারখানা থেকে গেল? সেখানকার থানার আইসি ও ওসিকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। পুলিশকে আরও কড়া ব্যবস্থা করতে হবে।”

দত্তপুকুরের বাজি কারখানার বিস্ফোরণের অভিঘাত এতটাই ছিল, যে গোটা বাংলার পরিস্থিতি তেতে উঠেছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছতেই স্থানীয় বাসিন্দাদের ক্ষোভ উগরে পড়ে তাদের ওপর। স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশ অভিযোগ করেছিলেন, পুলিশ সব জেনেও চুপ ছিল। এমনকি প্রথমে এলাকার যে সব যুবক বেআইনি বাজি কারখানার প্রতিবাদ করেছিলেন, পুলিশ তাঁদেরকেই মিথ্যা মামলায় ফাঁসিয়ে গ্রেফতার করেছিল। মুখ্যমন্ত্রী তথা পুলিশমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় খোদ পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, ” কেউ কেউ বেআইনি কাজ করছেন এবং পুলিশ সেটা চোখ বুজে দেখছে। লোকাল থানায় যাঁরা দায়িত্বে আছেন তাঁরা মাক্সিমাম কী করছেন, সেটা আর বললাম না!”  পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন অর্জুন সিংও। তিনি বলেন, “পুলিশ কেন নেতাদের কথা শুনবে? তারা চাইলে এক মিনিটে বন্ধ করে দিতে পারে বাজি কারখানা।” ঘটনার পরই সাসপেন্ড করা হয় দত্তপুকুর থানার আইসি ও নীলগঞ্জ ফাঁড়ির ওসি।

এই ঘটনার পরই রাজ্যের বিভিন্ন জেলার পুলিশ সুপার ও কমিশনারদের সঙ্গে বৈঠক করেন রাজ্য পুলিশের এডিজি জাভেদ শামিম। ভার্চুয়ালি বৈঠক করেন। দত্তপুকুরের ঘটনা কার্যত পুলিশের কাছে ‘অ্যালার্মিং’ বলেও চিহ্নিত করেছেন জাভেদ শামিম।

8 months ago
Keramat: কেরামতের ক্যারামতি, জামিন পেয়ে ফের বেশি করে শুরু করেন বাজি ব্যবসার কাজ

কে এই কেরামত আলি ? রবিবার দত্তপুকুরে বাজি কারখানায় বিস্ফোরণের পর কারখানার মালিকের খোঁজেই এখন জোর তল্লাশি চলছে। প্রাথমিক তদন্তে পুলিশ দাবি করেছে, এগরার ঘটনার পর বেআইনি বাজি তৈরির অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছিল কেরামতকে। কিন্তু জামিন হয়ে যায়।

গত মে মাসে পূর্ব মেদিনীপুরের এগরার ঘটনার পর মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে ছ দফা নির্দেশিকা জারি করা হয়েছিল। পাঠানো হয়েছিল রাজ্যের ১৮ জেলায়। নির্দেশিকা তৈরির পাশাপাশি পুলিশকে আরও সতর্ক হতেও নির্দেশ দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু রবিবারের দত্তপুকুর ফের তা ভুল প্রমাণ করল।

স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, আলুবোম তৈরির জন্য বিখ্যাত ছিল নীলগঞ্জের এই বাজি কারখানা। জেল থেকে ছাড়া পাওয়ার পর কেরামত তাঁর ব্যবসার বৃদ্ধি করেছিল। প্রথমে একটি বাড়িতে কাজ হত। পরে আরও তিন-চারটি বাড়ি নেওয়া হয়েছিল। তাঁদের দাবি, এমন বিস্ফোরণ আগেও হয়েছে। তবে, তা চুপিসারেই রয়ে গিয়েছে।

মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশেই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে সিআইডি। প্রাথমিক তদন্তে ঘটনাস্থল থেকে বিস্ফোরক মজুতের প্রমাণও পাওয়া গিয়েছে। ঘটনাস্থলে রয়েছে বম্ব স্কোয়াডও। এখনও ঘটনাস্থলে বিস্ফোরক রয়েছে কীনা, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

8 months ago
Explosion: টাকির সরকারি স্কুলের ল্যাবে বিস্ফোরণ, আহত শিক্ষক সহ ১০ পড়ুয়া

মঙ্গলবার দুপুরে টাকির একটি সরকারি স্কুলের ল্যাবরেটরিতে বিস্ফোরণের ঘটনায় গুরুতর আহত শিক্ষক সহ অন্তত ১০ জন ছাত্রী। তাঁদের তড়িঘড়ি ভর্তি করা হয় স্থানীয় হাসপাতালে। ঘটনায় আতঙ্কের আবহ তৈরী হয়েছে গোটা স্কুল জুড়েই। প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে, দীর্ঘদিন ল্যাব পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রুক্ষণাবেক্ষণ করা হয় না। অ্যামোনিয়া গ্যাসের জেরেই বিস্ফোরণ হয়েছে বলে খবর।

উত্তর ২৪ পরগনার বসিরহাট মহকুমার টাকি ষষ্ঠীবর লালমাধব উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ে ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার দুপুরে। জানা গিয়েছে , স্কুলের বিজ্ঞান শিক্ষক দ্বাদশ শ্রেণি ছাত্রীদের নিয়ে তালা খুলে ল্যাবে ঢুকেছিলেন প্র্যাকটিকাল শেখাতে। তখনই বিকট আওয়াজ করে বিস্ফোরণ ঘটে বলে খবর

9 months ago


Flight: মাঝ আকাশে যাত্রীর মোবাইল ফোন ফেটে হুলস্থুল কাণ্ড, জরুরি অবতরণ করানো হয় বিমানের

মাঝ আকাশে ফের বিপত্তি। এবারে বিমানের (Flight) মধ্যে এক যাত্রীর মোবাইল ফোন ফেটে গিয়ে বিস্ফোরণ ঘটল। এরপরই জরুরি অবতরণ করানো হয় বিমানটির। জানা গিয়েছে, বিমানটি রাজস্থানের উদয়পুর (Udaipur) থেকে দিল্লির উদ্দেশে পাড়ি দিয়েছিল ও এটি এয়ার ইন্ডিয়া সংস্থার বিমান। ঘটনাটি ১৭ জুলাই, সোমবার দুপুরের দিকে ঘটেছিল বলে খবর।

জানা গিয়েছে, সোমবার বেলা ১ টা নাগাদ রাজস্থানের দাবক বিমানবন্দর থেকে এয়ার ইন্ডিয়ার বিমানটি দিল্লির উদ্দেশে রওনা দিয়েছিল। এরপর বিমানটি উড়ে যেতেই এক বিমানযাত্রীর মোবাইল ফোন আচমকা বিকট শব্দে ফেটে যায়। এই বিস্ফোরণের পরেই বিমানের মধ্যে ধোঁয়ায় ভরে যায়। এরপর এই খবর পাইলটের কাছে যেতেই তিনি যাত্রীদের নিরাপত্তার কথা ভেবে বিমানের জরুরি অবতরণ করান। উদয়পুরের বিমানবন্দরেই অবতরণ করানো হয় বিমানটির।

জানা গিয়েছে, সেই সময়ে বিমানের মধ্যে ১৪০ জন যাত্রী ছিলেন। ফলে বিমানের মধ্যে এমন বিস্ফোরণের পর পাইলট বিমানটির জরুরি অবতরণ করানোর সিদ্ধান্ত নেন। এরপরই বিমানযাত্রীদের নামিয়ে শুরু হয় তল্লাশি। সমস্ত কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়। কিন্তু বিমানের মধ্যে সমস্ত কিছু ঠিক থাকায় প্রায় এক ঘণ্টার মধ্যেই ফের দিল্লির উদ্দেশে রওনা দেয় বিমানটি। এরপর বিমানটি ঠিকমতো গন্তব্যে পৌঁছে যায় বলে খবর।

9 months ago
Death: রাজ্যে ফের বোমা বিস্ফোরণের বলি এক ব্যক্তি, তদন্তে পুলিস

পঞ্চায়েত ভোট সবেমাত্র শেষ। এরই মধ্যে ফের বোমা (bomb) বাধার সময় বিস্ফোরণে (explosion) মৃত্যু (Death) হল এক ব্যক্তির। ঘটনায় আহত হয়েছে আরও বেশ কয়েকজন। শুক্রবার ঘটনাটি ঘটেছে মালদহের (Maldah) কালিয়াচক থানার অন্তর্গত কালিয়াচক পুরনো সিকোস্তি গ্রাম ও করারি চাঁদপুরের মাঝে পাগলা নদীর ধারে লিচু বাগানে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় কালিয়াচক ও বৈষ্ণবনগর থানার পুলিস। বোমা উদ্ধারের পর এলাকা ঘিরে রয়েছে পুলিস ও কেন্দ্রীয় বাহিনী। এরপর খবর দেওয়া হয় বম্ব স্কোয়াডকে। পুলিস জানিয়েছে, এই ঘটনায় তল্লাশি চালাচ্ছে কালিয়াচক থানার পুলিস। এছাড়া সূত্রের খবর, এখনও ওই ব্যক্তির পরিচয় জানা যায়নি। 

পুলিস সূত্রে খবর, বোমা বাধার সময় তখনই বিস্ফোরণ ঘটে। ফলে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় একজনের। পুলিস জানিয়েছে, বিস্ফোরণের ঘটনাস্থলেই ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে বোমার টুকরো। বোমা উদ্ধারের পর ঘটনাস্থলটি ঘিরে রয়েছে পুলিস। বোমা উদ্ধার ও বিস্ফোরণকাণ্ডে ব্যাপক চাঞ্চল্য় ছড়িয়েছে গোটা এলাকায়। কে বা কারা এই বোমা বাঁধতে চেয়েছিল তা জানতে তদন্তে শুরু করেছে পুলিস প্রশাসন। 

9 months ago


Explosion: ভোটগণনার মাঝে ময়নায় বাঁশ বাগানে বোমা বিস্ফোরণ, হাত উড়ল বৃদ্ধের

পঞ্চায়েত নির্বাচনের ফলাফলের দিন বোমা (bomb) বিস্ফোরণে (explosion) উড়ল এক ব্যক্তির হাত। পূর্ব মেদিনীপুর (East Medinipur) ময়নায় বাকচা গ্রাম পঞ্চায়েতের অন্তর্গত গোবরদন গ্রামে ঘটনাটি ঘটে। জানা গিয়েছে, ওই ব্যক্তির নাম গুরুপদ ভূঁইয়া (৬৪)।

গুরুপদের পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, এ দিন দুপুরে বাঁশ বাগানে বাঁশ কাটতে গিয়েই এই বিপত্তি। বাঁশ কাটার সময় একটি কাঠ রাখার জায়গায় বিস্ফোরণটি ঘটে। তাতেই গুরুতর আহত হন ওই ব্যক্তি। এই ঘনটায় ওই ব্যক্তির বাম হাতের কব্জি সম্পূর্ণভাবে উড়ে যায়। এছাড়াও সারা শরীরে বোমার আঘাতও পান তিনি। কপাল এবং মাথাতেও আঘাত লেগেছে। গুরুতর আহত অবস্থায় ওই ব্যক্তিকে তাম্রলিপ্ত মেডিকেল কলেজ এন্ড হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। 

বর্তমানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে ওই ব্যক্তি। পুলিস ঘটনাস্থলে এসে প্রায় ছয়টি বোমা উদ্ধার করে বালতিতে রেখে জল ঢেলেছে। ভোট গণনার দিনে গ্রামের ভেতরে বোমা বিস্ফোরণের জেরে ব্য়পক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

9 months ago
Haroa: হাড়োয়ায় বোমা বিস্ফোরণে মৃত্যু এক ব্যক্তির, তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব অভিযোগ পরিবারের

হাড়োয়ার (Haroa) শালীপুর এলাকায় বোমা বিস্ফোরণে (Explosion) মৃত্যু ১ ব্যক্তির। পুলিস (Police) জানিয়েছে, বিস্ফোরণে মৃত ব্যক্তির নাম পরিতোষ মন্ডল। হাড়োয়া থানার পুলিস মৃতদেহটির ময়নাতদন্তের জন্য বসিরহাট জেলা হাসপাতালে পাঠিয়েছে। সূত্রের খবর গতকাল গভীর রাতে একটি বোমা বিস্ফোরণে মৃত্যু হয় ওই ব্যক্তির। ওই ঘটনায় আরও এক ব্যক্তি গুরুতর আহত। যদিও এই ঘটনায় মৃতের পরিবারের তরফ থেকে পরিতোষকে খুনের অভিযোগ করা হয়েছে।

এই ঘটনা পরিতোষের স্ত্রী সুষমা মণ্ডলের দাবি, পরিতোষ রবিবার সোনাপুকুর শঙ্করপুকুর গ্রাম পঞ্চায়েত সমিতির তৃণমূল প্রার্থী বীথিকা মন্ডলের হয়ে প্রচার করছিলেন। তখনই তৃণমূলের আরেক পক্ষ ওই এলাকায় বোমাবাজি করে। এবং পরিতোষ মন্ডলকে খুন করার চেষ্টা করে। পরিতোষের স্ত্রী সুষমার আরও দাবি, শালীপুর গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকা থেকে দেহ উদ্ধার হয় পরিতোষের। তাঁর পরিবারের আরও অভিযোগ, পরিতোষের মৃতদেহের কোন জামাকাপড় ছিল না, পকেট থেকে ৫ হাজার টাকাও লুঠ করা হয়। এমনকি দুহাত কেটে ফেলা হয়েছে বলে অভিযোগ করেন তার স্ত্রী। এই ঘটনায় আপাতভাবে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বকেই দায়ী করছে পরিতোষের পরিবার।

যদিও এ ঘটনায় পুলিস তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ মানতে নারাজ। এ বিষয়ে এসডিপিও মিনাখা, সিএন- ডিজিটালকে বলেন, 'প্রাথমিক তদন্তের পর একটি বোম বিস্ফোরণের ঘটনার খবর আমরা পেয়েছি। সেখানে একজন মৃত ও একজন আহত। এখানে তৃণমূলের কোনও গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব কিংবা বোমা বাঁধতে গিয়ে মৃত্যু হয়েছে কিনা সে বিষয়ে এখনও কোনও প্রমাণ বা তথ্য মেলেনি।

10 months ago
Murshidabad: উত্তপ্ত মুর্শিদাবাদে বোমা বাঁধতে গিয়ে মৃত্যু, সংঘর্ষে গ্রেফতার ২

পঞ্চায়েতের (Panchayat Election) আগে বরাবরের মতো উত্তপ্ত রইলো মুর্শিদাবাদ (Murshidabad)। একদিকে যখন বোমা বাঁধতে গিয়ে বিস্ফোরণে (Explosion) মৃত্যু ১ ব্যক্তির। অন্যদিকে তখন মুর্শিদাবাদের রানীনগরে দুগোষ্ঠীর মধ্যে ব্যাপক বোমাবাজি।

বোমা ফেটে মৃত্যু মুর্শিদাবাদের বেলডাঙায়। বোমা বাঁধার কাজ চলছিল। সেই বোমা ফেটে মৃত্যু একজনের। শনিবার সকালে দফায় দফায় উত্তপ্ত হয়ে ওঠে বেলডাঙার মজম্মপুরের নতুনপাড়া। সকাল ৯টা নাগাদ, পাটের জমিতে বোমা বাঁধতে গিয়ে আলিম শেখ নামে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়।

এদিকে  শুক্রবার সন্ধ্যায় মুর্শিদাবাদের রানিনগরে দফায় দফায় উত্তেজনা ছড়ায়। বোমাবাজিরও অভিযোগ উঠেছিল। ইতিমধ্যেই ঘটনায় ২ জনকে গ্রেফতার করেছে রানিনগর থানার পুলিস। পুলিস যদিও ধৃতদের নাম ও পরিচয় জানায়নি। শনিবারও সকাল থেকে এলাকা থমথমে। নির্বাচনের দিনঘোষণার পরই উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে রানিনগর। আতঙ্কে এলাকাবাসীরা।

পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে দফায় দফায় উত্তপ্ত হয়েছে বাংলা। মুর্শিদাবাদের একাধিক এলাকা উত্তপ্ত হয়েছে। নির্বাচন ঘিরে অশান্তির আবহে ফের নতুন করে উত্তপ্ত হয়েছে মুর্শিদাবাদের রানিনগর।

10 months ago


Explosion: চিনের রেস্তরাঁয় ভয়াবহ বিস্ফোরণ, গ্যাস সিলিন্ডার ফেটে মৃত্যু ৩১ জনের, আহত বহু

ভয়াবহ বিস্ফোরণ (Explosion)। রেস্তরাঁয় গ্যাস সিলিন্ডার ফেটে অগ্নিকাণ্ড। এই ঘটনায় অগ্নিদগ্ধ হয়ে মৃত্যু (Death) হল কমপক্ষে ৩১ জনের। বুধবার রাতে এই ঘটনাটি ঘটেছে চিনের (China) ফুইয়াং নামের একটি বারবিকিউ রেস্তোরাঁতে। বিস্ফোরণের পরই উদ্ধারকাজে ছুটে আসে বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী। আহত ও নিহত সবাইকে উদ্ধার করে নিয়ে যাওয়া হয় হাসপাতালে। এই ঘটনার খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে আসেন চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। তিনি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে দ্রুত চিকিৎসা করার নির্দেশও দেন। 

এক সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন থেকে জানা গিয়েছে, ‘ড্র্যাগন বোট ফেস্টিভ্যাল’ উপলক্ষে আশেপাশের আর পাঁচটি রেস্তরাঁয় মতোই ফুইয়াং নামের একটি বারবিকিউ রেস্তোরাঁতেও ভিড় জমিয়েছিলেন মানুষ। সেই সময়ই এই বিস্ফোরণের ঘটনাটি ঘটে। 

এক সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন থেকে আরও জানা গিয়েছে, আহতদের মধ্যে সাত জন গুরুতর জখম হয়েছেন। এমনকি ওই সাত জনের মধ্যে এক জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। এছাড়াও দু'জনের শরীরের বড় অংশ ভয়ানকভাবে পুড়ে গিয়েছে এবং দু'জন বিস্ফোরণের পর কাচ বিঁধে আহত হয়েছেন। আহতরা সবাই এখন হাসপাতালে চিকিৎসারত। তবে এই ঘটনায় মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে, অনুমান প্রশাসনের।

10 months ago
Arrest: তৃণমূল নেতার বাড়ি বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় পুলিশের হাতে গ্রেফতার ওই নেতা

বারুদের স্তুপে দুবরাজপুর (Dubrajpur)। সোমবারের বিস্ফোরণের (Explosion) পর অভিযোগ স্থানীয় বাসিন্দাদের। তাঁদের দাবি গত কয়েক মাসে এই নিয়ে পর পর বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটল। তার পরেও প্রশাসন নির্বিকার বলেই অভিযোগ করা হয়েছে। এদিকে, সোমবারের বিস্ফোরণের ঘটনায় একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিস। ধৃতের নাম শেখ মরিলাল। পুলিস (Police) জানিয়েছে, এই ব্যক্তি মূল অভিযুক্ত শফিকের ভাই। এই ঘটনায় আটক শাহরুখ নামের আরও এক যুবক। সে শফিকের ছেলে বলেই জানিয়েছে পুলিস। বাড়ির সিড়িতে বোমা মজুত ছিল।

সোমবার বীরভূমের দুবরাজপুর তৃণমূল নেতা শেখ শফিকের বাড়িতে বোমা বিস্ফোরণ হয়। স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, গত কয়েক মাসে কার্যত বোমার শিল্প হয়ে দাঁড়িয়েছে এই এলাকা। যদিও রাজনৈতিক মহলের মতে, শুধু দুবরাজপুর নয়, দীর্ঘদিন থেকেই বারুদের মধ্যেই রয়েছে বীরভূম। কখনও নানুর তো কখনও দুবরাজপুর বার বার খবরের শিরোনামে এসেছে।

ইতিমধ্যেই ঘটনাস্থলে গিয়ে নমুনা সংগ্রহ করেছে সিআইডি। তাদের যাওয়ার আগেই অবশ্য ঘটনাস্থল থেকে প্রচুর পরিমাণে বোমার মশলা উদ্ধার করেছে পুলিস।

11 months ago