ব্রেকিং নিউজ
CM-Mamata-held-cabinet-meeting-on-thursady-amid-partha-case
Nabanna: ক্যাবিনেট বৈঠকে কাউকে ধমক, কাউকে সতর্কবার্তা মমতার, বুঝে নিয়ে ফাইল সইয়ের পরামর্শ

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-08-19 15:57:54


২০১১-র প্রথম ক্যাবিনেট মিটিং হয়েছিল মন্ত্রিসভার শপথের দিনই। সেদিন নতুন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং সুব্রত মুখোপাধ্যায় ছাড়া কারও সেভাবে কোনও প্রশাসনিক অভিজ্ঞতা ছিল না। কিন্তু এতো দীর্ঘ সময় ধরে মিটিং আগে কেউ দেখেনি। পরিবর্তনের সরকারের প্রথম সেই ক্যাবিনেট বৈঠক চলেছিল ৪-৫ ঘন্টা ধরে চলেছিল। রাত ১০টার পরেও ধরা যায়নি নব্য মন্ত্রীদের। শোনা যায় সেদিন মূল বক্তা ছিলেন একমাত্র মমতা।  তিনি নানা উপদেশ-পরামর্শ দিয়েছিলেন। দফতরের সচিবদের সঙ্গে সমন্বয়ে কাজ করতে বলেছিলেন। অভিজ্ঞতা সঞ্চয় করতে বলেছিলেন। তখন তাঁর বা মন্ত্রীদের হাতে যে সমস্ত সচিব বা কর্মচারী ছিল তাঁরা প্রত্যেকেই বাম জমানার।

সেদিন কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী সতর্ক হতে বলেননি বরং তাঁদের নিয়েই কাজ চলেছিল। এখনও প্রায় তাই। কিন্তু এবারে মুখ্যমন্ত্রী বুঝেছেন বোধ হয় যে শুধু আমলাদের উপর ভরসা করে কাজ হয় না। পরোক্ষে ১১ বছর বাদে এবার ক্যাবিনেট বৈঠকে তার ইঙ্গিত দিলেন মমতা।

ধমক খেলেন দলের বহু পুরাতন নেতা এবং তৃতীয় তৃণমূল সরকারের বনমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। তাঁর কাজে মোটেই খুশি নয় মুখ্যমন্ত্রী।

শোনা গিয়েছে, এবার নাকি প্রস্তাব ছিল জ্যোতিপ্রিয়কে মন্ত্রিসভা থেকে বাদ রাখার জন্য। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী, তাঁর স্নেহের বালুকে বাদ দিতে চাননি। বরং খাদ্য থেকে সরিয়ে বন দফতর দেওয়া হয়েছে জ্যোতিপ্রিয়কে। শোনা গিয়েছে, মুখ্যমন্ত্রী বেশি সতর্ক হতে বলেছেন সুজিত বসুকে। কারণ দমকল দফতর অত্যন্ত স্পর্শকাতর জায়গা। নতুন মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়কে, ইন্দ্রনীল সেনের কাছ থেকে কাজের অভিজ্ঞতা নিতে বললেন। পার্থ ভৌমিককে জানিয়েছেন সেচ অত্যন্ত জরুরি পরিষেবার বিভাগ। স্নেহাশিস বর্তমানে পরিবহণের নতুন মন্ত্রী। মমতা তাঁকে বললেন, দপ্তরটি একেবারে ঘুঘুর বাসা, বুঝে কাজ করতে হবে।

তবে মূল বক্তব্য, না বুঝে কোনও কাগজে সই নয়। সচিবদের উপর পরম ভরসার মুখ্যমন্ত্রী তবে কি বিশ্বাস হারাচ্ছেন?






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন