০৫ মার্চ, ২০২৪

Sheikh Shahjahan: শাহজাহানের কুকীর্তি! আদিবাসীদের জমি লুঠ, বিক্ষোভে ফুঁসছে আদিবাসীরা
CN Webdesk      শেষ আপডেট: 2024-01-31 13:29:00   Share:   

তিনি নাকি সন্দেশখালির গরীব মানুষের মসিহা? অন্তত এমনটাই তো প্রচার করা হয়েছিল শেখ শাহজাহানের সম্পর্কে। কিন্তু সাধারণ থেকে প্রভূত ক্ষমতাধারী হয়ে ওঠার পিছনে আসল কারণগুলো একের পর এক সামনে আসতে থাকে শাহজাহানের গা ঢাকা দেওয়ার পর। এই যেমন দিনের পর দিন শাহজাহনের কুকীর্তির কথা সামনে এনে ক্ষোভে ফুঁসছেন সন্দেশখালির আদিবাসীরা। শাহজাহানের দৌলতে দু'বছর আগেই জমি হারিয়েছেন এই হত দরিদ্র্য মানুষগুলো।

তাঁরা অভিযোগ করছেন, শেখ শাহজাহানের ডান হাত জেলা পরিষদ সদস্য উত্তম সর্দার, সন্দেশখালি ব্লক টুর দাপুটে নেতা, দিনের পর দিন শেখ শাহজাহানের হয়ে আদিবাসীদের বিঘের পর বিঘে সম্পত্তি কেড়েছিল। সন্দেশখালির সম্রাট শেখ শাহজাহান উধাও হতেই, নড়ে চড়ে বসেছে আদিবাসীরা, এতদিন যারা তাঁর ভয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছিল, এখন তারাই বিক্ষোভ দেখাচ্ছে জমি ফেরত পাওয়ার জন্য।

জোর করে জমি কেড়ে নিয়েছে, তার বিনিময়ে কোনও টাকাও দেয়নি। টাকা চাইতে গেলে প্রাণনাশেরও হুমকি মিলেছে। বিক্ষোভ থেকে এমনই আওয়াজ ওঠে। পুলিসে অভিযোগ করতে গেলে উল্টে তাদের বিরুদ্ধেই কেস দেয় পুলিস, মেলে পুলিসের লাঠির ঘা। অভিযোগ বিক্ষোভকারী আদিবাসীদের।

শাহজাহানের বাড়িতে তল্লাশি করতে গিয়ে জখম ইডি আধিকারিক থেকে সংবাদ মাধ্যম।আর তারপর থেকেই বেপাত্তা শাহজাহান। বারবার হাইকোর্টের ভর্ৎসনার পরও রাজ্য পুলিসের ধরা ছোঁয়ার বাইরে সে। এদিকে শেখ শাহজাহানের হাজিরার তারিখ থাকলেও হাজিরা না দিয়ে আগাম জামিনের আর্জি করে ইডির বিশেষ আদালতে আবেদন করেন শেখ শাহজাহান। আর এই ঘটনার ২৪ ঘণ্টা কাটতে না কাটতেই বুধবার জেলা পরিষদ সদস্য সন্দেশখালি ব্লক টুর-এর দাপুটে নেতা উত্তম সর্দারের নেতৃত্বে ভেরি তৈরি করার প্রক্রিয়া শুরু করে দেয়। যে মুহূর্তে জমিতে শ্যালো লাগিয়ে জল ছেঁচে ফেলার কাজ চালু করা হয়, ঠিক সেই সময়ই সেখানে উপস্থিত হয় আদিবাসীরা। যাদের জমি বলপূর্বক কেড়েছিল শাহজাহান ঘনিষ্ঠ উত্তম সর্দার, বিক্ষোভে ফেটে পড়ে তারা, রুখে দেয় জল ছেঁচার কাজ। তাঁরা দাবি তোলে, অবিলম্বে তাদের জমি ফেরত দিতে হবে, নইলে এবার তারা রুখে দাঁড়াবে। এতদিনের জমা ক্ষোভ প্রতিবাদের চেহারা নেয়। দেওয়াল পিঠ ঠেকা মানুষগুলো এবার তাদের অধিকার নিজেরাই বুঝে নিতে জোট বাঁধে অন্যায়ের বিরুদ্ধে।


Follow us on :