মাফিয়াদের খবর করতে গিয়ে প্রাণ হারাল সাংবাদিক

এবার মদ মাফিয়াদের বিরুদ্ধে খবর করতে গিয়ে, প্রাণ হারাতে হল এক সাংবাদিককে। এদিকে পুলিশের দাবি, বাইক দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে তাঁর। কিন্তু সাংগবিদিকের পরিবার ও সহকর্মীরা মানতে নারাজ। তাঁরা জানিয়েছে, প্রাণ সংশয়ের আগেই ওই সাংবাদিক পুলিশকে চিঠি দেয়। এদিকে ২৪ ঘন্টাও কাটেনি তার মধ্যে এই ঘটনা ঘটল। রবিবার রাত  ১১ টা নাগাদ বাড়ি ফেরার পথে দুর্ঘটনাগ্রস্ত হয়ে তাঁর মৃত্যু হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ।

নিহত সাংবাদিকের নাম সুলভ শ্রীবাস্তব। তাদের দাবি,ইটভাঁটার পাশ দিয়ে ওই সাংবাদিক বাইক চালিয়ে আসছিলেন। এরপর কলের সাথে ধাক্কা খেয়ে ছিটকে পরে মাটিতে। তবে সুলভের এই মৃত্যু দুর্ঘটনায় নয়। পিছনে রয়েছে কোনও একটা রহস্য। তবে এই ঘটনায় যোগীরাজ্যের সরকার ইতিমধ্যে প্রশ্নের মুখে পরেছে।

মেয়েদের মোবাইল ফোন দেওয়া ঠিক নয়, মন্তব্য মহিলা কমিশনের

মেয়েরা বেশি মোবাইল ফোন ব্যবহার করে। বাড়ছে তাই ধর্ষণ। এবার বিতর্কিত মন্তব্য করলেন উত্তরপ্রদেশের মহিলা কমিশনের সদস্য। আলিগড়ে মহিলাদের বিরোধী  অপরাধের শুনানিতে হাজির ছিলেন উত্তরপ্রদেশ মহিলা কমিশনের সদস্যা মীনা কুমারী। সেই সময় তিনি বলেন, “মেয়েদের হাতে মোবাইল দেওয়া এখন উচিত নয়।  মোবাইলের জন্য বাড়ছে ধর্ষণের ঘটনা।” তিনি আরও বলেন, “মোবাইল হাতে পাওয়ার ফলে অচেনা ছেলেদের সঙ্গে  কথা বলতে শুরু করে মেয়েরা। এরপর যৌন নির্যাতনের শিকার হয় মেয়েরা। এছাড়া  মীনা কুমারী এও বলেন, মেয়েদের অতি যত্নে মানুষ করা দরকার। সেদিকে মায়েদের নজর দিতে হবে।  এই মন্ত্যবকে ঘিরে তীব্র বিতর্কের সৃষ্টি হয়। এরপর ফের মেয়েদের হাতে মোবাইল ফোনে আপত্তি জানালেন মীনা কুমারী।

করোনার মৃতদেহ ছুঁড়ে ফেলল নদীতে ,প্রকাশ্যে ভাইরাল ভিডিও

অবাক করার মত ঘটনা ঘটল এবার উত্তরপ্রদেশে। যার ভিডিও সোশ্যাল  মিডিয়ায় প্রায় ছড়িয়ে গেছে। করোনায় মৃত এক ব্যক্তির দেহ ব্রিজ থেকে ছুড়ে  ফেলে দেওয়ার ভিডিও ইতিমধ্যে ভাইরাল হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের বলরামপুরে। যদিও ঘটনাটি ২৮ মে ঘটে. বৃষ্টির দুপুরে পি পি ই কিট  পড়া এক ব্যক্তি সঙ্গে ছিলেন আরও একজন দেহটিকে নদীতে ছুড়ে ফেলে। আর সেই সময়ে গাড়ি থেকে একজন ভিডিওটি করে. এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই প্রশাসন নড়েচড়ে বসে. এদিকে কেন্দ্রের তরফে কড়া বার্তা দেওয়া হয়েছে সেইসমস্ত রাজ্যগুলিতে।