নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি শাহ

মুম্বইঃ নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত অভিনেতা নাসিরউদ্দিন শাহ।ইতিমধ্যেই তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে খবর।

বিস্তারিত আসছে -


অসুস্থ বর্ষীয়ান সাহিত্যিক সমরেশ মজুমদার

গুরুতরভাবে অসুস্থ সাহিত্যিক সমরেশ মজুমদার। বেশকয়েকদিন ধরেই তার নিঃশ্বাসের সমস্যা হচ্ছিল। এরপর পরিস্থিতি অবনতি হতে থাকে। যদি তাকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।সেখানথেকে icu তে স্থানান্তরিত করা হয় । ইতিমধ্যে বাইপাসের  অ্যাপোলো হাসপাতালে তিনি চিকিৎসাধীন রয়েছেন। হাসপাতালের তরফে জানানো হয়, শ্বাসনালীতে সংক্রমণ রয়েছে।এরপর করোনা পরীক্ষা করা হয়.তাতে রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। তাকে দেখার জন্য ৩ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড বসানো হয়। সমরেশ মজুমদারের বুকের  এক্সরে, সিটি স্ক্যান ও রক্ত পরীক্ষা করানো হয়েছে। এদিকে তাঁর copd এর সমস্যা রয়েছে বলে জানানো হয়।  সাহিত্যিকের শারীরিক পরিস্থিতির দিকে বার বার খেয়াল রাখা ইহচ্ছে বলে জন্য হাসপাতালের তরফে। আপাতত বর্ষীয়ান সাহিত্যিকের শারীরিক পরিস্থিতি স্থিতিশীল রয়েছে জানানো হয়।


শ্বাসকষ্ট নিয়ে মুম্বই হাসপাতালে ভর্তি বর্ষীয়ান অভিনেতা দিলীপ কুমার

শ্বাসকষ্টের  সমস্যা নিয়ে এবার মুম্বইয়ের হাসপাতালে ভর্তি বলিউডের বর্ষীয়ান অভিনেতা দিলীপ কুমার। এদিকে স্ত্রী সায়রা বানু জানান, বেশ কিছুদিন ধরেই শ্বাসকষ্টে  ভুগছিলেন।তাই ঝুঁকি না নিয়েই রবিবার তাকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।  আপাতত বর্ষীয়ান অভিনেতা  মুম্বইয়ের খারে ফিডি হিন্দুজা হাসপাতালে  চিকিৎসাধীন হয়েছেন। যদিও এই অভিনেতাকে মে মাসে চেকাপের জন্য হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।  এরপর করোনা অতিমারিতে মার্চ মাসে দিলীপ কুমার হোম আইসোলেশন ছিলেন।তার সাথে স্ত্রীও ছিলেন। তবে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হল। সিনেমা জগতে দিলীপ কুমারের প্রবেশ দেবিকা রানির বম্বে টকিজ প্রযোজনা সংস্থার কর্মী হিসেবে। মাসিক ১২৫০টাকার বিনিময়ে এই কাজ শুরু করেছিলেন তিনি। সেখানেই অশোক কুমার ও শশধর মুখোপাধ্যায়ের সান্নিধ্য পান। অভিনেতা দিলীপ কুমারের বলিউডে প্রবেশ ১৯৪৪ সালে ‘জোয়ার ভাটা’ সিনেমার মাধ্যমে। বহু ছবির মাফধ্যমে তিনি জনপ্রিয় হয়েছেন এই কিংবদন্তি।

দিল্লির এমসে ভর্তি কেন্দ্রীয় শিক্ষমন্ত্রী

এবার দিল্লির এমসে ভর্তি হলেন কেন্দ্রীয় শিক্ষমন্ত্রী রমেশ পোখরিয়াল। বেশকিছুদিন আগে তিনি করোনায় আক্রান্ত হন।  এরপর তিনি বাড়িতে থেকেই ডাক্তারের পরামর্শ নেন।  সেই কথা তিনি নিজেই টুইট করে জানিয়েছিলেন। টুইটে কেন্দ্রীয় শিক্ষমন্ত্রী জানান,'সকলকে জানাচ্ছি আমি করোনায় আক্রান্ত। চিকিৎসকের পরামর্শ নিচ্ছি।এর সাথে চিকিৎসকের পরামর্শে ওষুধ খাচ্ছি।যারা আমার সংস্পর্শে একযাবৎ এসেছেন তাদের সকলকে করোনা পরীক্ষা  করার অনুরোধ জানাচ্ছি'।  এরপর তিনি  সুস্থ হয়ে যান। যদিও মঙ্গলবার অর্থাৎ আজ থেকে তিনি কাজেও যোগ দেন।  কিন্তু ফের আবার অসুস্থ হয়ে পড়েন। এরপর তাকে এমসে ভর্তি করানো হয়। তবে হটাৎ অসুস্থ হয়ে যাওয়ার কারণ ঠিক জানা যায়নি।