ব্রেকিং নিউজ
  মহালয়ার আগে কাটছে নিম্নচাপ দক্ষিণবঙ্গে, উত্তরবঙ্গের ৫ জেলায় ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা     অস্থায়ী কর্মীদের স্থায়ীকরণের দাবীতে দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থার বাঁকুড়া ডিপো ঘেরাও করে বিক্ষোভ     কুড়মিদের রেল অবরোধ আজ পঞ্চম দিন, পুরুলিয়া কুস্তাউর রেল স্টেশনে রেল ট্রাক এ বসে আন্দোলনকারীরা      ক্যানিংয়ে গাছ কাটার প্রতিবাদ করায় আক্রান্ত বৃদ্ধ দম্পতি     রোগী মৃত্যুকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা বারাসাতে এক বেসরকারি হাসপাতালে, মৃতদেহ ফেলে রেখে বিক্ষোভ পরিবারের  
mamata-snubs-bjps-visit-to-rampurhat-followed-by-kunal-ghosh-tweet
TMC-BJP: 'ল্যাংচাতে ল্যাংচাতে রামপুরহাট', বিজেপিকে খোঁচা মমতার, 'এটা মুখ্যমন্ত্রীর ভাষা?', পাল্টা শুভেন্দু

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-03-23 17:30:10


বিজেপির রামপুরহাট যাত্রা (Rampurhat Incident) প্রসঙ্গে ট্যুইট বিতর্ক উসকে দিয়েছেন তৃণমূলের কুণাল ঘোষ। আর সেই বিতর্কের রেশ ধরেই খানিকটা রাজ্যের বিরোধী দলের প্রতি কটাক্ষ ছুঁড়লেন মুখ্যমন্ত্রী। বুধবার সকালে এমএলএ হস্টেল থেকে বেরিয়ে বিজেপি (BJP) বিধায়কদের একটি প্রতিনিধি দল রামপুরহাটের উদ্দেশে রওয়ানা হয়েছিল। মাঝে বর্ধমানের শক্তিগড়ের একটি ল্যাংচার দোকানের সামনে হল্ট দেয় বিজেপির সেই বাস। আর এই হল্টকে কটাক্ষ করেই মমতার খোঁচা, 'কিছু দল ল্যাংচা খেতে খেতে ল্যাংচাতে ল্যাংচাতে রামপুরহাট যাবে। তাই আমার সব ঠিক থাকলেও আজ রামপুরহাট গেলাম না। আমি পায়ে পা লাগিয়ে ঝগড়া করতে পারি না। তাই কাল রামপুরহাট যাব।' যদিও মুখ্যমন্ত্রীর এই ভাষাকে কটাক্ষ করেছেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। পাল্টা জবাব দিয়েছেন বিজেপি সভাপতি সুকান্ত মজুমদারও।

এদিকে, বিজেপির প্রতিনিধি দলের এই রামপুরহাট অভিযানকে প্রথমে ব্যঙ্গের সুরে বিঁধেছেন কুণাল ঘোষ।

তিনি একটি ভিডিও ট্যুইট করে লেখেন, বিজেপির পিকনিক ২। গাড়ি, বাসে যথাযথ আয়োজন বলে খবর। তবে শক্তিগড়ের ল্যাংচা না হলে চলে? উল্লেখ্য, ওঁরা রামপুরহাটের দুঃখজনক ঘটনাস্থল দেখতে যাচ্ছেন।'

পাশাপাশি এদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের 'ল্যাংচাতে ল্যাংচাতে' কটাক্ষকে পাল্টা তোপ দেগে শুভেন্দু বলেন, 'এটা মুখ্যমন্ত্রীর মুখের ভাষা? কলকাতা থেকে রামপুরহাট আসবেন, মাঝে একটু চা-জল খাবেন না? উনি ব্লিচিং পাউডার দিয়ে মুখ ধুয়ে আসুন।'

ঠিক কী বললেন শুভেন্দু:

সুকান্ত মজুমদার বলেন, 'উনি তো আকাশপথে এলাকা পরিদর্শন করবেন। মাটিতে পা ফেলার ব্যাপার নেই। তাহলে ঝগড়া হবে কী করে?' বিধানসভায় বিজেপির মুখ্য সচেতক মনোজ টিজ্ঞা বলেছেন, 'আমাদের দলে বয়স্ক-ডায়াবেটিক বিধায়করা ছিলেন। তাঁদের জন্য একটু দাঁড়ানো হয়েছিল।'

জানা গিয়েছে, বিজেপির এই প্রতিনিধি দলে রয়েছে বিজেপির বিধায়ক অশোক কীর্তনিয়া, জুয়েল ওঁরাও, নিলাদ্রী দানা, মালতি রাভা, মনোজ টিজ্ঞা, শঙ্কর ঘোষ, শ্রীরূপা মিত্র চৌধুরী প্রমুখ। জানা গিয়েছে, একাধিক বাসে প্রায় ৫৫ জন বিধায়ক রামপুরহাটের বগটুকি গ্রাম পরিদর্শনে গিয়েছেন।






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন