ব্রেকিং নিউজ
   শিলিগুড়িতে বাড়িওয়ালা দম্পতির ওপর ধারালো অস্ত্র দিয়ে হামলা, মৃত্যু হয় স্ত্রীর, গুরুতর আহত স্বামী     কুলতলীতে আগ্নেয়াস্ত্র সহ গ্রেফতার তিন দুষ্কৃতী, উদ্ধার বন্দুক ও এক রাউন্ড কার্তুজ      জীবনতলা থানা এলাকায় আগুনে পুড়ে মৃত্যু হল এক গৃহবধূর, চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়     মায়াপুরে আগামীকাল পালিত হবে গীতা জয়ন্তী উৎসব      প্রয়াত নাট্য জগতের বর্ষীয়ান মায়া ঘোষ     আজ কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৫.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস  
headmaster-transfer-aggitation
School প্রধান শিক্ষকের বদলির অর্ডার, প্রতিবাদে বিক্ষোভ ছাত্রছাত্রী-অভিভাবকদের

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-01-10 19:56:34


জাতি গঠনের কারিগর শিক্ষক। শিক্ষাদানই যাঁর মহান ব্রত, তিনিই শিক্ষক। কিন্তু সবাই কি আদপে আদর্শ শিক্ষক হয়ে উঠতে পারেন? একজন আদর্শ শিক্ষকের সঙ্গে কেবল শ্রেণিকক্ষের অভ্যন্তরের পাঠদান জড়িয়ে রয়েছে তা নয়, শ্রেণিকক্ষের বাইরের জীবনও জড়িত। একজন আদর্শবান শিক্ষকই একজন ছাত্রের ভবিষ্যৎ তৈরি করে দিতে পারেন।

তবে বর্তমানে শিক্ষকদের অনেককে নিয়ে প্রায়ই শোনা যায় বিভিন্ন দুর্নীতির অভিযোগ। এবার কিন্ত তা নয়। পূর্ব মেদিনীপুরের এগরা ২ নং ব্লকের বিবেকানন্দ গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার বিদুরপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রবি রাউৎ। তিনি ২০০০ সালের ১ সেপ্টেম্বর বিদুরপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। তারপর থেকে পঠনপাঠন, ছাত্র-ছাত্রীদের খোঁজখবর নেওয়া, পড়ুয়ারা কামাই করলে বাড়িতে গিয়ে খোঁজখবর নিয়ে আসা, স্কুলের পরিকাঠামোগত উন্নতি, খেলাধূলা, ছবি আঁকা, ছাত্রছাত্রীদের মনোযোগ সহকারে পঠনপাঠন করোনার জন্য যা যা প্রয়োজন, সবটাই করতেন প্রধান শিক্ষক রবি রাউৎ। তাঁর আন্তরিকতায় মুগ্ধ ছিলেন অভিভাবকরাও।

কিন্তু গত কয়েকদিন আগেই তাঁর কাছে সরকারিভাবে বদলিপত্র আসে। এই স্কুল থেকে তাঁকে ট্রান্সফার করে দেওয়া হচ্ছে অন্যত্র। এই খবর ছড়িয়ে পড়তেই অবিভাবক ও গ্রামবাসীরা একত্রিত হয়ে স্কুলের সামনে বসে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন। স্কুলের গেটে তালা লাগিয়ে দেন অভিভাবকরা। তাঁদের দাবি, এই স্কুলের প্রধান শিক্ষককে অন্যত্র বদলি করা যাবে না

প্রধান শিক্ষক রবি রাউৎ বলেন, তিনি বদলির জন্য কোনও আবেদন জমা দেননি। তিনি ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকদের আবেগকে সম্মান জানিয়ে আইনিভাবে চেষ্টা করে দেখবেন, যেন এই বদলি বন্ধ করা যায়। এই স্কুলটি তাঁর বাড়ি থেকে ৭ কিমি দূরে। কিন্তু নতুন যে স্কুলে বদলি করা হচ্ছে, সেটি তাঁর বাড়ি থেকে ৩০ কিমি দূরে। ফলে সেক্ষেত্রেও তাঁর সমস্যা হবে।

ছাত্রছাত্রীরা জানায়, প্রধান শিক্ষককে এখান থেকে যেতে দিতে চায় না তারা। প্রধান শিক্ষকের ওপরই স্কুলটি নির্ভর করে। স্যারের বদলি হয়ে গেলে স্কুলটি পরিকাঠামোগত ও শিক্ষাগত দিক থেকে ভেঙে পড়তে পারে। তাই তারা বিক্ষোভ দেখাচ্ছে বলে জানায়।

এখন দেখার বিক্ষোভের উদ্দেশ্য সফল হয় কিনা।






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন