ব্রেকিং নিউজ
mp-gives-birth-after-cycling
Cycling প্রসব বেদনা শুরু হতেই সাইকেল নিয়ে সোজা হাসপাতালে সাংসদ

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2021-11-30 20:37:46


মা মানে সর্বশক্তিমান। মা তাঁর সন্তানের জন্য সমস্ত কষ্ট মুখ বুঝে সহ্য করে নিতে পারেন। নিজের সন্তানকে জগতের আলো দেখাতে দশ মাস দশ দিন গর্ভধারণের মতো কষ্টকেও হাসিমুখে মেনে নেন মা-ই। নানা প্রতিকূলতাকে সন্তানের আগমনের খুশিতে তুচ্ছ ভাবতেও পারেন মায়েরাই। আর এমনই এক মায়ের গল্প নিয়ে প্রশংসার ঝড় উঠেছে নেটমাধ্যমে।

প্রসব বেদনা উঠতেই নিজে সাইকেল চালিয়ে হাসপাতাল পৌঁছলেন গর্ভবতী মা। এই ঘটনায় কার্যত তাজ্জব বনে গেছেন নেটাগরিকরা। গত রবিবার ওই মহিলা প্রসব বেদনা অনুভব করেন। আর দেরি না করেই সাইকেল নিয়ে বেরিয়ে পড়েন হাসপাতালের উদ্দেশে। তার ঠিক এক ঘণ্টা পর জন্ম দিলেন ফুটফুটে সন্তানের। সত্যি, এমন সাহসিকতাকে বারবার কুর্নিশ জানাতেই হয়।

এতক্ষণ যে মায়ের গল্প বলা হচ্ছিল, এবার তাঁর সাথে পরিচয় করানো যাক। তিনি নিউজিল্যান্ডের বাসিন্দা। নাম জুলি অ্যানে গেন্টার। তাঁর অবশ্য অন্য একটি পরিচয় রয়েছে। নিউজিল্যান্ডের মহিলা সাংসদ। তিনি 'গ্রিন এমপি' নামে পরিচিত। পরিবেশ সুরক্ষা নিয়ে সচেতনতার অভিযানে তাঁর সুনাম রয়েছে। বারবার আলোচনায় উঠে এসেছেন একজন পরিবেশ সচেতন নাগরিক এমপি হিসেবে। তবে জুলি অ্যানে গেন্টারের আমেরিকা ও নিউজিল্যান্ড, দুই দেশেরই নাগরিকত্ব রয়েছে। ২০০৬ সাল থেকে নিউজিল্যান্ডে এসে বসবাস শুরু করেন তিনি। 

উল্লেখ্য, এই মহিলা সাংসদের কার্যকলাপ রীতিমতো নজর কেড়েছে গোটা বিশ্বের। সন্তান জন্মানোর পর নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে গোটা ঘটনার কথা শেয়ার করেছেন তিনি নিজেই। সঙ্গে তাঁর হাসপাতাল যাওয়ার ও একরত্তির ছবিও দিয়েছেন ফেসবুক পেজে। 

নিউজিল্যান্ডের সাংসদ জুলি অ্যানে গেন্টার তাঁর ফেসবুক পেজে লেখেন, ভোর তিনটে চার মিনিটে তাঁর পরিবারের সবচেয়ে ছোট সদস্যকে স্বাগত জানিয়েছেন। সাইকেলে চেপে হাসপাতালে যাওয়ার কোনওরকম পরিকল্পনাই ছিল না তাঁর। কিন্তু পরিস্থিতিতে পড়ে সাইকেলে চেপেই চলে যান হাসপাতালে। তাঁর ক্যাপশন, বড় খবর! সকাল ৩.০৪ টায় তাঁর ঘর আলো করে ছোট্ট সদস্যের আবির্ভাব হয়েছে। সাইকেল নিয়ে রোজকার মতো শরীরচর্চা করতেই বেরিয়েছিলেন। আর এমন ঘটনাটি হঠাৎ ঘটে যায়। প্রথমে হালকা ব্যথা অনুভব হয়। কিন্তু ১০ মিনিট পরে প্রায় হাসপাতালে পৌঁছনোর সময় ব্যথার তীব্রতা বেড়ে গিয়েছিল। 'আশ্চর্যজনকভাবে এখন সুস্থ, ছোট্ট একজন ঘুমাচ্ছে, যেমন তার বাবা ঘুমোচ্ছে।'

এই পোস্ট করতেই মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায় ঘটনাটি। সকলে একরত্তির মায়ের সাহসিকতায় ভূয়সী প্রশংসা করছেন।






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন