ব্রেকিং নিউজ
The-doors-are-opening-on-Monday-the-students-of-the-Sundarbans-desperate-to-meet-their-classmates
School: সহপাঠীদের সঙ্গে দেখা করতে মরিয়া সুন্দরবনের পড়ুয়ারা

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-06-26 17:20:56


দু'বছরের করোনা ও দু'মাসের গরমের ছুটির পর অবশেষে চেনা ছন্দে ফিরতে চলেছে রাজ্যের স্কুলগুলি। আর তাতেই খুশির হাওয়া সুন্দরবনের ছাত্রছাত্রী, শিক্ষক ও অভিভাবকদের মধ্যে। দীর্ঘ দুই বছর করোনা অতিমারীকে কাটিয়ে চলতি বছরের ৩ রা ফেব্রুয়ারি রাজ্যের স্কুলগুলি খুলেছিল। কিন্তু আড়াই মাস যেতে না যেতেই গ্রীষ্মের প্রচণ্ড দাবদাহে পুনরায় প্রায় দুই মাসের গরমের ছুটি দিতে বাধ্য হয়েছিল রাজ্য সরকার। ২০২০ সালের মার্চ মাসে বন্ধ হয়েছিল স্কুলগুলি। তাই বলা যেতে পারে অবশেষে প্রায় আড়াই বছর পর পূর্ণাঙ্গরূপে খুলতে চলেছে রাজ্যের স্কুলগুলি।

একদিকে পড়ুয়ারা যেমন নিজেদের সহপাঠীদের সঙ্গে দেখা করার জন্য আগ্রহী হয়ে রয়েছে, অন্যদিকে শিক্ষকরা প্রহর গুনছেন স্কুলের চেনা সেই পড়ুয়াদের কোলাহল শোনার জন্য। বসিরহাট মহকুমার সুন্দরবনের হাড়োয়া, মিনাখাঁ ও হাসনাবাদের মতো ৬ টি ব্লক সহ বসিরহাট ১, বাদুড়িয়া ও স্বরূপনগরের মতো সীমান্তবর্তী ব্লকে রয়েছে প্রায় ১২৫৬ টি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ২৫টি জুনিয়র হাইস্কুল, মাধ্যমিক স্কুল রয়েছে ১২৪টি, হাইস্কুলের সংখ্যা রয়েছে ১১৮ টি ও সরকারি মাদ্রাসা রয়েছে ৩০টি। সেগুলি ২৭ শে জুন সোমবার থেকে খুলতে চলেছে। যার ফলে আবার স্কুলমুখী হবে মহকুমার প্রায় সাড়ে ৫ লক্ষ শিক্ষার্থী।

কিন্তু চিন্তার বিষয়, ইতিমধ্যে দেশে করোনা সংক্রমণের হার দিনে দিনে বেড়েই চলেছে। তাই স্বভাবতই ফের চিন্তায় রয়েছে রাজ্য শিক্ষা দফতর। রাজ্যের শিক্ষা সচিব স্কুলগুলিতে করোনা মোকাবিলার জন্য কোভিডের নিয়মাবলী মেনে স্কুল খোলার নির্দেশ দিয়েছেন। প্রত্যেক জেলার অতিরিক্ত জেলাশাসকদের নোডাল অফিসার হিসেবে নিযুক্ত করে রিপোর্ট দেওয়ার কথা বলা হয়েছে সরাসরি জেলাশাসককে। রবিবারের মধ্যে সেই রিপোর্ট পৌঁছবে রাজ্যের শিক্ষা দফতরে। দ্রুত কাজ শেষ করার জন্য শিক্ষক-শিক্ষিকা ও শিক্ষা কর্মীদের শনিবার থেকেই স্কুলে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল। ইতিমধ্যে বসিরহাট মহকুমার সন্দেশখালি ১ ও ২, হিঙ্গলগঞ্জ, হাড়োয়া, বসিরহাট ২, স্বরূপনগর ও হাসনাবাদ সহ দশটি ব্লকের প্রত্যেকটি স্কুলেই কোভিডবিধি মেনে স্কুল পরিষ্কার করার কাজ চলছে। বিভিন্ন স্কুলে গেলে দেখা যাচ্ছে কোথাও চলছে স্যানিটাইজেশন, আবার কোথাও ধুলো জমা বেঞ্চগুলিকে ঝাঁট দেওয়া ও মোছার কাজ। পাশাপাশি শৌচালয় থেকে শুরু করে স্কুল প্রাঙ্গনে যেখানে ময়লা-আবর্জনা জমে রয়েছে বা ঝোপঝাড় হয়েছে, তা কেটে পরিষ্কার করার কাজ চলছে‌।






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন