ব্রেকিং নিউজ
  Weather Update: বজ্রবিদ্যুৎ-সহ হাল্কা থেকে মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা বঙ্গের বিভিন্ন জেলায়      Sourav-Wriddhi: বেহালা ছেড়ে ৪০ কোটির বাড়িতে সৌরভ, কিন্তু বাংলা ছাড়ছেন না ঋদ্ধি     Delhi Rain: ঝড়বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত দিল্লি, বিদ্যুৎ-বিভ্রাট, ব্যাহত বিমান চলাচল     Monkeypox: মাঙ্কিপক্স নিয়ে ভারতকে সতর্ক করল হু     Lake Club: আজই খুলছে দুটি রোয়িং ক্লাব, তবে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে, উঠছে সতর্কতা নিয়ে প্রশ্ন     Anubrata: এবার ভোট পরবর্তী হিংসা মামলায় মঙ্গলবার তলব অনুব্রতকে     Fire: মহেশতলায় গেঞ্জি কারখানায় বিধ্বংসী আগুন     SSC: ব্রাত্য বসুকে আজই তলব করলেন রাজ্যপাল     Market: ভোজ্যতেল, আলুর পর কি এবার ডালের দামও বাড়ছে? আশঙ্কায় সাধারণ মানুষ     Corona Update: দেশে সংক্রমণ এবং মৃত্যু নিম্নমুখী      Suicide: কিশোর ভারতী স্টেডিয়ামের পাশেই নিরাপত্তারক্ষীদের সুপারভাইজারের ঝুলন্ত দেহ     Ceremony: ৯৫ বছর বয়সে বৃদ্ধ খুঁজে নিলেন স্বপ্নের মহিলাকে, বাঁধলেন গাঁটছড়া     Arjun singh: আজ জেলা নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠক অর্জুনের, তৃণমূলে ফিরতে পারেন ছেলেও     Delhi: মাটিতে জাতীয় পতাকা পেতে নমাজ পাঠ! দিল্লির ঘটনায় তোলপাড় দেশ  
Donot-go-to-another-school-the-students-broke-down-in-tears-at-the-headmasters-feet
Panskura: 'অন্য স্কুলে যাবেন না', প্রধান শিক্ষকের পায়ে পড়ে কান্নায় ভেঙে পড়ল ছাত্রছাত্রীরা


Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-04-10 19:57:49


রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে প্রতিনিয়ত শিক্ষক নিগ্রহের ঘটনা উঠে আসছে।  ঠিক তখনই অন্য চিত্র ধরা পড়ল পূর্ব মেদিনীপুরের (East Medinipur) পাঁশকুড়ার চাঁপাডালি উচ্চ বিদ্যালয়ে। প্রধান শিক্ষকের বদলি (transfer) আটকাতে স্কুলের অফিসরুমের সামনে বসে পড়ে বিক্ষোভ দেখাল ছাত্রছাত্রীরা। প্রধান শিক্ষক যাতে অন্য স্কুলে বদলি না হন, সেই আর্জি জানিয়ে পায়ে পড়ে কান্নায় ভেঙে পড়তেও দেখা গেল ছাত্রীদের। কারোর মুখে স্কুল ছেড়ে যেতে না দেওয়ার শ্লোগান, কেউবা হাত টেনে ধরে রেখেছেন।

আসল ঘটনাটি হল, উৎসশ্রী প্রকল্পের মাধ্যমে ওই হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক নরেশ রানা নিজের বাড়ির কাছের স্কুলে যাওয়ার আবেদন করেছিলেন। চাকরি জীবন প্রায় শেষের দিকে। অবসরের আগে কটা বছর কাছাকাছি চাকরি করতে চাইছিলেন। আর সেই আবেদন মঞ্জুর করা হয়েছিল স্কুল শিক্ষা দফতর থেকে।

কিন্তু চাঁপাডালি স্কুলের পড়ুয়ারা প্রধান শিক্ষকের ভালোবাসা, স্নেহ থেকে দূরে সরে থাকতে চাইছে না। আর সে কারণেই পড়ুয়ারা তাঁদের প্রিয় প্রধান শিক্ষকের অন্যত্র বদলি কোনওভাবেই মেনে নিতে পারছে না। শুধু স্কুলের পড়ুয়ারাই নয়, অভিভাবকেরাও মেনে নিতে পারেননি বিষয়টি। আর সে কারণেই শনিবার পড়ুয়ারা স্কুলের সামনেই বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে। তাদের দাবি, সকলের প্রিয় প্রধান শিক্ষককে স্কুলেই থাকতে হবে। স্কুল ছেড়ে যেতে দেবে না তারা।

পাঁশকুড়া পুরসভার ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের চাঁপাডালি হাইস্কুলে ২০১০ সাল থেকেই প্রধান শিক্ষক হিসেবে রয়েছেন নরেশ রানা। যদিও নরেশবাবুর বাড়ি পশ্চিম মেদিনীপুরের সবং-এর দশক গ্রাম এলাকায়। সে কারণেই তিনি নিজের এলাকার স্কুলে বদলি হয়ে চলে যেতে চেয়েছিলেন। দীর্ঘদিন ধরে স্কুলের সঙ্গেই স্বতঃপ্রণোদিত ভাবে জড়িয়ে ছিলেন নরেশবাবু। স্কুলের শিক্ষা থেকে শুরু করে শিক্ষাকেন্দ্রের বিভিন্ন কার্যকলাপ মন কেড়েছে পড়ুয়াদের।

উৎসশ্রী প্রকল্পের মাধ্যমে রামকৃষ্ণ বিদ্যাপীঠে বদলির আবেদন মঞ্জুর হয়। সেই মোতাবেক তিনি পাঁশকুড়ার চাঁপাডালি স্কুল ছেড়ে চলে যাবার প্রস্তুতি নেন। তখনই স্কুলের পড়ুয়ারা তাঁকে ঘিরে চলে যাওয়া আটকে দেয়। কিন্তু নিয়ম অনুযায়ী তাঁকে চলে যেতেই হবে, এমনটাই জানিয়েছেন প্রধান শিক্ষক নরেশবাবু। তবে নাছোড়বান্দা ছাত্রছাত্রীদের কথা ভেবে বদলির বিষয়টি আরেকবার বিবেচনা করে দেখবেন বলে আশ্বাস দেন তিনি।

ছাত্রছাত্রীদের এমন আচরণে আপ্লুত প্রধান শিক্ষক। তিনিও ভেঙে পড়েন। এখন অপেক্ষার ছাত্র-ছাত্রীদের কাতর আবেদনে বদলি রোখা যায় কিনা।






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন