ব্রেকিং নিউজ
bjp-and-tmc-faceoff-over-howrah-riots-over-nupru-sharma-comments
Violence: 'আইনশৃঙ্খলা উদ্বেগজনক', ট্যুইট রাজ্যপাল-বিজেপির, পাল্টা জবাব তৃণমূলের

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-06-11 17:10:33


নূপুর শর্মার মন্তব্যের প্রতিবাদে পরিস্থিতি উদ্বেগজনক হাওড়ার। শনিবারও দফায় দফায় উত্তপ্ত হয়েছে পাঁচলা এলাকা। জারি রয়েছে কার্ফু, বন্ধ ইন্টারনেট এবং রুটমার্চ চলছে পুলিসের। এই অবস্থায় রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি উদ্বেগজনক দাবি করে সরকারের বিরুদ্ধে যৌথভাবে সরব রাজ্যপাল এবং বিজেপি।

গেরুয়া শিবিরের নেতা অমিত মালব্যর ট্যুইট, 'রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সামাল দিতে ব্যর্থ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং রাজ্য প্রশাসন। কিছু উন্মত্ত জনতা ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ করলেও নীরব দর্শক হয়ে বসে তাঁর প্রশাসন। উনি ব্যবস্থা নিতে ব্যর্থ হলে, রাজ্যপালকে বলুন রাজ্যে সামরিক বাহিনী নামাতে।' একইভাবে রাজ্য প্রশাসনের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর।

তাঁর ট্যুইট, '৯ তারিখ থেকে রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি উদ্বেগজনক। মুখ্যমন্ত্রী এবং তাঁর প্রশাসন নিষ্ক্রিয় হয়ে বসে রয়েছে। ফলে আরও বেশি সমর্থন পাচ্ছে আইনভঙ্গকারীরা। আইনভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে অবিলম্বে ব্যবস্থা নিক প্রশাসন। অভিযুক্তদের চিহ্নিত করে পদক্ষেপ করা হোক।'


এদিকে, নূপুর মন্তব্যে যখন হাওড়ার পরিস্থিতি অগ্নিগর্ভ, তখন প্রশাসনিক ব্যর্থতার অভিযোগে এভাবে সরব রাজ্যপাল এবং বিজেপি। শনিবার সেই অভিযোগ ভোঁতা করতে আসরে তৃণমূল। এদিন দলের সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায় জানান, মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে প্রশাসন কড়া হাতে পরিস্থিতি মোকাবিলা করা হয়েছে। ইতিমধ্যে ৭০ জন দুষ্কৃতী গ্রেফতার হয়েছে। বিভাজনকারী শক্তি, অশান্তি তৈরি যারা করবে, তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।'

তাঁর খোঁচা, 'মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন পাপ করল বিজেপি, খেসারত দিচ্ছে মানুষ। তাই এই কাণ্ডের পিছনে কাদের ইন্ধন, কারা জড়িত, চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে। তার মধ্যে বিজেপি আজ পথে নেমে আরও ইন্ধন দেওয়ার চেষ্টায় রয়েছে।'

এদিন টক টু মেয়র অনুষ্ঠানে আবার রাজ্য পুলিসের ভূমিকায় পঞ্চমুখ ফ্রিহাদ হাকিম। তিনি বলেন, 'আইনশৃঙ্খলা বাংলায় ঠিক আছে। হাওড়ায় এক-দুটি জায়গায় কিছু হলে সেটা গোটা বাংলা নয়। সুকান্ত মজুমদার এবং শুভেন্দু অধিকারীর আগে উস্কানি দেওয়া বন্ধ করা উচিত। বাংলার মানুষ সবাই একসঙ্গে থাকি। উগ্রতা কেউ সমর্থন করে না। কিন্তু এটাও ঠিক কাউকে আটকে রাখা কোনও ধর্ম শেখায় না। সবাইকে বলছি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে মিলে বলুন যে নুপুর শর্মাকে গ্রেফতার করা হোক। পুলিস ব্যর্থ নয়, কালকে রাজ্য পুলিশ সামলেছে। রাজ্যের মানুষ ধর্মনিরপেক্ষতা চান। বিজেপি শান্তির বার্তা নয়, উস্কানি দিতে যাচ্ছে।'






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন