‘আর নয় অন্যায়। আমরা আসল পরিবর্তন চাই’, হুগলিতে বললেন মোদি

বাংলায় কোটি কোটি টাকার বিনিয়োগ করা হচ্ছে। রেল-সড়কের উন্নয়নে আমরা উদ্যোগী হয়েছি। আপনাদের মেট্রো উপহার দিচ্ছি। এতদিন বাংলার কোনও উন্নয়ন হয়নি, তাই আর দেরি করলে চলবে না, বাংলার উন্নয়নের লক্ষ্যে আসল পরিবর্তন চাই বাংলা। হুগলির সাহাগঞ্জের ডানলপ মাঠে জনসভা থেকে এভাবেই বিজেপি সরকার গঠনের জন্য রাজ্যবাসীর কাছে আহ্বান জানালেন নরেন্দ্র মোদি। এদিন সাহাগঞ্জের মঞ্চ থেকেই প্রধানমন্ত্রী বলেলন, এর আগের কোনও সরকারই উন্নয়নে নজর দেয়নি। তাই পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে বাংলার মানুষ। এদিন বাংলাতেই নিজের ভাষণ শুরু করেন প্রধানমন্ত্রী।


তিনি হুগলি ও বাংলার ঐতিহ্য, কৃষি, শিল্পের পাশাপাশি সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের কথা উল্লেখ করেন ভাষণের শুরুতেই। বলেন, তারকনাথ এবং জগন্নাথ দেবকে আমার প্রমান। হুগলির এই পূণ্যভূমিতে এসে আমি ধন্য। এরপরই রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসকে তীব্র আক্রমণ করে প্রধানমন্ত্রী কাটমানি ও তোলাবাজির প্রসঙ্গ তুলে ধরেন। নরেন্দ্র মোদি বলেন, সিন্ডিকেট এবং কাটমানি ছাড়া এই বাংলায় কেউ বাড়ি ভাড়াও নিতে পারেন না। ফলে বাংলার বিকাশ কোনও দিনই সম্ভব না, যতদিন না এই তোলাবাজি এবং কাটমানির সংস্কৃতি থাকবে। প্রশাসন যত দিন গুন্ডাদের আশ্রয় দিয়ে যাবে, তত দিন এখানে উন্নতি সম্ভব নয়। আর নয় অন্যায়, আমরা আসল পরিবর্তন চাই।