শিশুদের শরীরে আঘাত হানতে পারবে না করোনার তৃতীয় ঢেউ

করোনার তৃতীয় ঢেউয়ে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হতে পারে শিশুরা। এমন তথ্য উঠে আসার পর চিন্তা বাড়ছিল মা-বাবাদের। কিন্তু সেই আশঙ্কাকে উড়িয়ে দিলেন শহর কলকাতার একদল চিকিত্সক। 

চিকিত্দের মতে, করোনার তৃতীয় ঢেউ আসার আগেই ভাইরাস কাবু করার ‘প্রোটিন কোষ’ অর্জন করে ফেলেছে অনেক খুদে। 

অতি সম্প্রতি ১৮ বছরের নিচের শিশুদের জন্য শুরু হয়েছিল করোনা টিকার ট্রায়াল। কলকাতার পার্ক সার্কাসের ইনস্টিটিউট অফ চাইল্ড হেলথ-এ হয়েছে এই ট্রায়াল। সেখানে অনেক শিশু মধ্যে করোনার অ্যান্টিবডি পাওয়া গিয়েছে। অর্থাত্ ‘প্রোটিন কোষ’ তৈরি হয়েছে তাদের শরীরে।  ফলে তাদেরকে করোনা টিকা দিতে হয়নি। 

একজন চিকিত্সক সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, যে সব শিশুদের শরীরে করোনার অ্যান্টিবডি (প্রোটিন কোষ) তৈরি হয়েছে, তারা করোনা আক্রান্ত হয়েছিল। উপসর্গ না থাকায় পরিবারের লোকেরা টের পাননি। তাদের অজান্তেই শিশুরা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা অর্জন করে নিয়েছে। এই অ্যান্টিবডি যতদিন থাকবে করোনা তাদের কিচ্ছু করতে পারবে না।


Tags:
third wave
corona
kolkata