Corona: পুজের আগেই রাজ্যের ৮টি জেলায় ১৭৯ টি কন্টেইনমেন্ট জোন

রাজ্যে কিছুটা নিয়ন্ত্রণে করোনা সংক্রমণ। সামনেই পুজো ও ভোট। তার আগেই রাজ্যে ১৭৯ এলাকাকে কন্টেইনমেন্ট জোন হিসেবে চিহ্নিত করল সরকার। 

যে সব জেলায় কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে,সেগুলো হল হাওড়া জেলা, পশ্চিম মেদিনীপুর, পূর্ব বর্ধমান, জলপাইগুড়ি, বাঁকুড়া, কোচবিহার, ঝাড়গ্রাম এবং উত্তর ২৪ পরগনা।

শুধু উত্তর ২৪ পরগনায় রয়েছে ৬৫টি কন্টেইনমেন্ট জোন। সেখানে বারাসত থেকে বিধাননগর, বনগাঁ থেকে বারাকপুর— প্রায় সব ব্লকেই দু’-একটি করে কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে। বিধাননগর পুরসভার ৬, ১২, ২৯, ৩০, ৩৩, ৩৪, ৪০ নম্বর ওয়ার্ডের কিছু কিছু এলাকাকে কন্টেইনমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে।

এই তালিকায় বারাকপুর ও বারাসত মহকুমার একাধিক পুরসভাও রয়েছে। পাশাপাশি বারাসত ২, বারাকপুর ১, হাবড়া ১, বাদুড়িয়া সব কয়েকটি ব্লকের বাছাই করা কিছু এলাকাকে এই জোনের আওতায় আনা হয়েছে। 

হাওড়া জেলার ৫৯ টি কন্টেইনমেন্ট জোন। এই জেলায় উলুবেড়িয়া মহকুমার বেশ কিছু জায়গাকে মাইক্রো কন্টেইনমেন্ট জোনের আওতায় এসেছে। এর মধ্যে আমতা ১ ও ২ নম্বর ব্লকের অধীনে সর্বাধিক এলাকা রয়েছে। এছাড়াও শ্যামপুর, জগৎবল্লভপুর, ডোমজুড় ব্লকের কিছু অংশও জায়গা পেয়েছে ওই জোনে। 

এদিকে, উত্তরবঙ্গের জেলাগুলির মধ্যে কোচবিহার এবং জলপাইগুড়িতে একটি করে কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে। জঙ্গলমহলের ঝাড়গ্রামে ১৪টি, পশ্চিম মেদিনীপুরে ৬টি এবং বাঁকুড়ায় ১১টি জোন রয়েছে।


Tags:
containment zones
west bengal