Durga Puja: বাংলাদেশে রামকৃষ্ণ মিশনমঠে এবারও হল না কুমারী পুজো

ঢাকাঃ ষষ্ঠী ও সপ্তমী শেষে আজ অষ্টমী। দেবীকে অঞ্জলি প্রদানের দিন। আজ সকালে দুর্গা দেবীর মহাষ্টমী বিহিত পুজো প্রশস্তা, ব্রতোপবাস ও পুষ্পাঞ্জলি হয়। তবে করোনা পরিস্থিতিতে গতবারের মতো এবারও রাজধানীর রামকৃষ্ণ মিশনমঠে মহাঅষ্টমীর মূল আকর্ষণ কুমারী পুজো হচ্ছে না।

দুর্গাপূজার অন্যতম বৈশিষ্ট্য কুমারী পুজো । দেবী পুরাণে কুমারী পুজোর সুষ্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে। কুমারী পুজোর বিষয়ে শ্রীরামকৃষ্ণ পরমহংস দেব বলেছেন, সব স্ত্রী লোক ভগবতীর এক-একটি রূপ। শুদ্ধাত্মা কুমারীতে ভগবতীর বেশি প্রকাশ। কুমারী পুজোর মাধ্যমে নারী জাতি হয়ে উঠবে পুত-পবিত্র ও মাতৃভাবাপন্ন। প্রত্যেকে শ্রদ্ধাশীল হবে নারী জাতির প্রতি।

১৯০১ সালে ভারতীয় দার্শনিক ও ধর্ম প্রচারক স্বামী বিবেকানন্দ সর্বপ্রথম কলকাতার বেলুড় মঠে নয়জন কুমারী দিয়ে এ পুজোর মাধ্যমে এর পুনঃপ্রচলন করেন। তখন থেকে প্রতি বছর দুর্গাপুজোর অষ্টমী তিথিতে এ পুজো হয়ে আসছে। পুজোর আগে পর্যন্ত কুমারীর পরিচয় গোপন রাখা হয়। এছাড়াও নির্বাচিত কুমারী পরবর্তী সময়ে স্বাভাবিক জীবনযাপন আচার-অনুষ্ঠান করতে পারে।

মহামারী করোনা আবহে পুজা উদযাপনে রয়েছে নানা বিধি নিষেধ। তাই ভক্তদের মনও কিছুটা খারাপ। তবে গত বারের চেয়ে এবার কিছুটা বিধি নিষেধ শিথিল থাকায় ভিড় জমেছে পুজা মন্ডপগুলোতে। আর তাইতো দেবীর কাছে মহামারী দুর করে দেওয়ার প্রার্থনা জানিয়েছেন ভক্তকুল। দুর্গাাদেবীর কাছে প্রার্থনা যাতে আগামী বছর মহামারী কাটিয়ে ভাতৃত্বের বন্ধনে আবদ্ধ হয়ে সব ধর্মীয় উৎসব যেন পালন করতে পারে সেই প্রার্থনা জানাচ্ছেন।


Tags:
durgapuja 2021
Bangladesh