বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনায় আর রাজ্যপালের ক্ষমতা থাকছে না

0
3908

রাজ্য-রাজ্যপাল সংঘাত অব্যহত। এবার বিশ্ববিদ্যায়ের আচার্য হিসেবে রাজ্যপালের ক্ষমতা খর্ব করার পথে রাজ্য সরকার। মঙ্গলবারই বিধানসভায় একটি সংশোধনী পেশ করেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। সিনেট বৈঠক ডাকার ক্ষেত্রে এবার থেকে উপাচার্য শিক্ষাদফতরের সঙ্গেই আলোচনা করবেন। দিনক্ষণ ঠিক করে শুধুমাত্র রাজভবনকে জানিয়ে দিলেই হবে নতুন নিয়মে। ফলে সিনেট বৈঠকে আর মাথা গলাতে পারবেন না রাজ্যপাল তথা সেই বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য। আগের নিয়মে রাজ্যপালই এই বৈঠক ডাকতেন, এবার সেই ক্ষমতা কেড়ে নেওয়া হচ্ছে।

শুধু এটাই নয়, উপাচার্য নিয়োগের ক্ষেত্রেও এবার থেকে আর রাজ্যপালের কোনও ক্ষমতা রাখা হচ্ছে না। এবার থেকে উপাচার্য নিয়োগের ক্ষেত্রে আর ৩ জনের সুপারিশ নয়। শিক্ষাদফতর যে নামই পাঠাবে তাতেই শিলমোহর দিতে হবে আচার্য তথা রাজ্যপালকে। সেখানে কোনও অদলবদল বা বাছাইয়ের ক্ষমতা থাকবে না রাজ্যপালের। ফলে বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে আর সরাসরি কোনও যোগাযোগ থাকছে না রাজ্যপালের। রাজ্যের শিক্ষাদফতর মারফতই রাজ্যপালকে যে তিনজনের নাম উপাচার্য হিসেবে পাঠানো হবে, তার প্রথম নামেই অনুমোদন দিতে হবে রাজ্যপালকে। পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালন কমিটিতে একজন রাজ্যপালের প্রতিনিধি থাকতেন। তাঁকে রাজ্যপালই বেছে নিতেন। এবার থেকে সেই নামও ঠিক করে দেবে শিক্ষা দফতর। ফলে বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনে এবার থেকে আর রাজ্যপালের সরাসরি কোনও যোগ থাকবে না। এভাবে রাজ্যপালের ক্ষমতা খর্ব করাকে ভালো চোখে দেখছেন না শিক্ষাবিদরা। তাঁদের মতে সংঘাত হতেই পারে। কিন্তু এভাবে ক্ষমতা প্রয়োগ করে রাজ্যপালের ক্ষমতা কমিয়ে দেওয়া ঠিক নয়। এতে বিরূপ বার্তা যাবে শিক্ষামহলে।

Submit your review
1
2
3
4
5
Submit
     
Cancel

Create your own review

CALCUTTA NEWS
Average rating:  
 1 reviews
by dad on CALCUTTA NEWS
dsfdpkp

afsdfsdf