ব্রেকিং নিউজ
The-protesters-have-no-place-in-the-armed-forces-said-the-hero-of-the-Kargil-war
Agnivir: বিক্ষোভকারীদের সশস্ত্র বাহিনীতে কোনও জায়গা নেই, বললেন কার্গিল যুদ্ধের নায়ক

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-06-17 10:18:32


মোদী সরকারের 'চুক্তিভিত্তিক অস্থায়ী সেনা' নিয়োগ প্রকল্প 'অগ্নিপথ'এর বিরুদ্ধে অগ্নিগর্ভ পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে দেশব্যাপী। বৃহস্পতিবারও দিকে দিকে রেল, সড়ক অবরোধ করেছেন বিক্ষুব্ধ যুবকরা। জ্বলন্ত ট্রেনের ছবি ধরা পড়েছে একাধিক জেলায়। ভাবুয়ায় রেললাইনের উপর দাঁড়িয়ে থাকা ট্রেনে আগুন লাগিয়ে দেওয়ার ছবিও প্রকাশ্যে এসেছে। এই হিংসাত্মক পরিস্থিতির তীব্র বিরোধিতা করেছেন জেনারেল ভিপি মালিক। যিনি কার্গিল যুদ্ধের সময় ভারতকে বিজয়ের দিকে নিয়ে গিয়েছিলেন। তিনি অগ্নিপথ প্রকল্পের প্রতি সমর্থন প্রকাশও করেন। এবং বলেছেন,  এই প্রকল্পের বিরুদ্ধে যাঁরা বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন, তাঁদের সেনাবাহিনীতে নিয়োগ করতে আগ্রহী নন।

উত্তরপ্রদেশ, হরিয়ানা, পঞ্জাব, হিমাচল প্রদেশ, উত্তরাখণ্ড, ঝাড়খণ্ড এবং দিল্লি সহ ১০টি রাজ্য থেকে এই সহিংসতার খবর পাওয়া গিয়েছে। মঙ্গলবার মন্ত্রিসভায় এই প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়ার পর থেকেই উত্তপ্ত পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। এমনকি বিক্ষুব্ধ যুবকরা বিজেপি কর্মী ও নেতাদের লক্ষ্য করে পাথর ছোঁড়ে।

এই পরিস্থিতির কথা বলতে গিয়ে এক সাক্ষাৎকারে জেনারেল ভিপি মালিক বলেন, সকলকে বুঝতে হবে সশস্ত্র বাহিনী একটি স্বেচ্ছাসেবক বাহিনী। এটি কল্যাণমূলক সংস্থা নয়। এখানে তাঁরাই থাকতে পারবেন যাঁরা দেশের জন্য লড়াই করতে পিছপা হবেন না। দেশকে রক্ষা করাই যাঁদের উদ্দেশ্য। উদ্বেগের সঙ্গে বলেন, যাঁরা বিক্ষোভ দেখাতে গিয়ে দেশের সম্পত্তি নষ্ট করছেন, যাঁরা সাধারণ মানুষের ক্ষতি করছেন, তাঁদের সশস্ত্র বাহিনীতে কোনও জায়গা নেই। তাঁরা একপ্রকার গুন্ডামিতে লিপ্ত হয়েছেন। এমন মানসিকতা নিয়ে সেনাবাহিনীতে কাজ করা অসম্ভব বলে জানান।

তিনি অবশ্য স্বীকার করেছেন,  এমন অনেক চাকরি প্রার্থী ছিলেন যাঁরা নিয়োগ স্থগিত করার জন্য চাকরি পাননি। যাঁদের মধ্যে অনেকের বয়স নির্ধারিত বয়সের থেকে বেশি হয়ে গিয়েছে। এতদিন ধরে তাঁরা অপেক্ষা করেছিলেন। এখন অগ্নিপথ প্রকল্পের জন্য যোগ্য নয় জেনে উদ্বেগ এবং হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়েছে। যা স্বাভাবিক। এক্ষেত্রে তিনি দুঃখপ্রকাশও করেন।

সাত বছর আগে "ওয়ান র‍্যাঙ্ক ওয়ান পেনশন" স্কিমের প্রতিবাদের সময় ব্যাক-চ্যানেল আলোচনার জন্য প্রধানমন্ত্রীর পছন্দ তালিকায় আসেন জেনারেল মালিক।  তিনি বলেন, সেনাবাহিনীর প্রার্থীদের চাকরি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করা উচিত নয়। কারণ সরকার তাঁদের জন্য পুলিস এবং আধাসামরিক বাহিনীতে যোগদানের রাস্তা খুলে দিয়েছে।

জেনারেল মালিক আরও যোগ করেন,  এই স্কিমের অনেক প্লাস পয়েন্ট রয়েছে। স্কিমটি বাস্তবায়িত হওয়ার পরই তা বোঝা যাবে।






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন