২৪ এপ্রিল, ২০২৪

Maneka: ৭ ঘণ্টা পর ইডি দফতর ছাড়লেন মানেকা, অভিষেকের শ্যালিকার ১২ ঘণ্টায় দ্বিতীয় হাজিরা
CN Webdesk      শেষ আপডেট: 2022-09-12 11:33:24   Share:   

প্রায় ৭ ঘণ্টা পর সিজিও কমপ্লেক্স থেকে বেরোন মানেকা গম্ভীর। কয়লা-কাণ্ডে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) শ্যালিকাকে তিন দফায় জিজ্ঞাসাবাদ এবং বয়ান রেকর্ড করে কেন্দ্রীয় সংস্থা। সেই বয়ান পাঠানো হয়ে দিল্লিতে ইডির সদর দফতরে। সেখান থেকে সংকেত আসতেই তাঁকে সিজিও কমপ্লেক্স ছাড়তে বলেন ইডি কর্তারা। যদিও রবিবার মধ্যরাতে আইনজীবীকে নিয়ে সিজিও কমপ্লেক্সে (CGO Complex)  এসেছিলেন মানেকা (Menaka Gambhir)। এরপর সোমবার দুপুরে ফের সিজিও কমপ্লেক্সে হাজিরা দিলেন অভিষেকের শ্যালিকা মানেকা গম্ভীর। তাঁর আইনজীবীর দাবি, মেনকাকে রাত সাড়ে ১২ টা নাগাদ তলব করেছিল ইডি। রবিবার মধ্যরাতে নির্ধারিত সময়ের প্রায় ১০ মিনিট আগেই ইডির দফতরে পৌঁছে গিয়েছিলেন মেনকা গম্ভীর। কিন্তু সিজিও কমপ্লেক্সে গিয়ে ইডির অফিসারদেরই দেখা পাননি তিনি। ডাকাডাকি, হাঁকাহাঁকি করেও কোনও সাড়া না মেলায় শেষমেশ ইডির (ED) দফতর থেকে রাত ১২টা বেজে ৪০ মিনিট নাগাদ বেরিয়ে গিয়েছিলেন তাঁরা। সূত্রের খবর, মেনকাকে যে সমন পাঠানো হয়েছিল তাতে উল্লেখ ছিল, তাঁকে হাজিরা দিতে হবে ১২ সেপ্টেম্বর ১২.৩০ এ.এম অর্থাৎ ১২ সেপ্টেম্বর রাত সাড়ে বারোটায়। আর এখানেই তৈরি হয় সমস্যা। ভুল স্বীকার করেছে কেন্দ্রীয় সংস্থাও। যদিও তাদের পাল্টা, হাজিরার আগে কেন মেইল করে বা ফোনে কারও সঙ্গে যোগাযোগ করেননি মানেকা গম্ভীর।

এদিকে, মানেকা গম্ভীরের জন্য ১৫-২০টি প্রশ্নের তালিকা তৈরি রেখেছিল কেন্দ্রীয় সংস্থা। প্রসঙ্গত, এর আগে মানেকা গম্ভীরের বিদেশ যাত্রায় বাধা দেয় ইডি। শনিবার রাতে ব্যাঙ্কক যাওয়ার জন্য কলকাতা বিমানবন্দরে পৌঁছে গিয়েছেলেন মেনকা। কিন্তু বিমানবন্দরে পৌঁছতেই তাঁকে দীর্ঘক্ষণ একটি ঘরে বসিয়ে রেখেছিলেন অভিবাসন দফতরের কর্মীরা। দ্রুত তাঁরা দিল্লিতে ইডির সদর দফতরের কর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিলেন। ইডি সূত্রে জানা যায়, তৃণমূল নেতা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের শ্যালিকা মেনকার নামে আগেই লুক আউট নোটিস জারি করা হয়েছিল। সেই নোটিস দেশের সব বিমানবন্দরেই পাঠানো হয়েছিল।  অপরদিকে, মানেকা গম্ভীর যখন সিজিও কমপ্লেক্সে তখন ইডির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার দায়ে মামলা তাঁর আইনজীবীর। কোর্টের নির্দেশ থাকলেও ইডি কীভাবে মানেকা গম্ভীরের বিদেশ যাত্রা আটকাতে পারে? জানতে চেয়েই এই মামলা। 


Follow us on :