১৬ এপ্রিল, ২০২৪

Gardenrech Controversy: গার্ডেনরিচের বহু অবৈধ নির্মাণ প্রশাসনের ঔদাসীন্যতা! উঠছে প্রশ্ন...
CN Webdesk      শেষ আপডেট: 2024-03-19 19:07:29   Share:   

রাজ্যজুড়ে যেন অবৈধ কারবারির পাহাড়। ভিন্ন ক্ষেত্রে দুর্নীতির প্রমাণ তো বহুদিন ধরেই সামনে আসছে, এবার বিপজ্জনক ভাবে কোনও নিরাপত্তার তোয়াক্কা না করেই নির্মিত বহু অবৈধ নির্মাণ চোখে পড়ল সিএন-এর। গার্ডেনরিচ এলাকাজুড়ে গজিয়ে উঠেছে এমন বহু অবৈধ বহুতল। কোনওটির ক্ষেত্রে দেখা গেল এক বিল্ডিংয়ের সঙ্গে পাশের বিল্ডিং লেগে, সেই বিল্ডিং-র অবস্থা ভগ্নপ্রায়। তাতেই প্রাণভয়ে বাস করছেন আবাসিকরা।  

এমন অবৈধ নির্মাণ চোখে পড়ে লোকচক্ষুর আড়ালে নয়, বড় রাস্তার ওপরে গার্ডেনরিচের পাহাড়পুর এলাকাতেও। সেখানে এক আবাসন নির্মিত হয় ২০১৯ সালে। দিন যতই এগোয়, ততই একটির পাশে আরেকটি বহুতল জুড়ে যেতে থাকে। প্রাণভয়ে বাস করছেন আবাসিকরা। এগুলোর কোনওটির ক্ষেত্রে নেই কোনও বৈধ কাগজ, কোনওটির আবার নেই অনুমতিপত্র, ছাড়পত্র কিছুই। ২০২৩ সালে পাহাড়পুরের এই বহুতলে 'বিপজ্জনক বাড়ি'র পোস্টার বসিয়ে দিয়ে যায় কলকাতা পুরসভা। তবে তারপরেও আবাসিকদের জীবন সুরক্ষায় পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে কই? এই অবৈধ নির্মাণের ব্যাপারে সব জানে কাউন্সিলর, সব জানে সেখানকার বিধায়ক তথা কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম, সব জানে রাজ্য প্রশাসন। অবৈধ নির্মাণে প্রোমোটারের ওপর আশীর্বাদের হাত রয়েছে সকলেরই। মঙ্গলবার স্থানীয়দের এমনই বিস্ফোরক অভিযোগ শুনল সিএন। 

এদিকে আবার এলাকার কাউন্সিলর শামস ইকবালের সঙ্গে ভেঙে পড়া বহুতলের প্রোমোটার মহম্মদ ওয়াসিমের এক ফ্রেমে ছবি প্রকাশ্যে এসেছে। প্রোমোটার-কাউন্সিলরের ঘনিষ্ঠতার গন্ধও পাচ্ছে ওয়াকিবহাল মহল। এদিকে মেয়র ফিরহাদ হাকিম বলছেন, কাউন্সিলরের কিছু করার নেই। দলের কাউন্সিলরকে যেন বাঁচানোর আপ্রাণ চেষ্টাও দেখছে ওয়াকিবহাল মহল। নানা মহলে শুধুই নিন্দার ঝড় উঠছে, এককালীন গর্বের কলকাতা পুরসভা নিয়ে। হেলে পড়া একের পর এক বহুতল দেখে আতঙ্ক বাড়ছে আবাসিকদের।  


Follow us on :