ব্রেকিং নিউজ
Learn-some-of-the-symptoms-of-this-disease-to-fight-autism
World autism day: অটিজমের লড়াইয়ের জন্য জানুন এই রোগের কয়েকটি লক্ষণ

Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2022-04-02 09:24:46


আজ বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস। দিবসটি জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদ দ্বারা ৬২/১৯৯ ধারা অনুযায়ী মনোনয়ন লাভ করে। "বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস" প্রস্তাবটি ২০০৭ সালের ১ নভেম্বর জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদে পাস হয়েছিল এবং সেটি গৃহীত হয়েছিল একই বছরের ১৮ ডিসেম্বর। এটি প্রস্তাব করেছিলেন জাতিসংঘে কাতারের প্রতিনিধিবৃন্দ। সকল সদস্যরাষ্ট্র এই প্রস্তাবকে সমর্থন করে।

এই প্রস্তাবনাটি জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে বিনা ভোটে পাশ এবং গৃহীত হয়েছিল। মূলত মানবাধিকার উন্নয়নে জাতিসংঘের পূর্ববর্তী উদ্যোগসমূহের পরবর্তী পদক্ষেপ হিসেবেই এমনটি করা হয়েছিল। বিশ্ব অটিজম দিবস স্বাস্থ্য-সংক্রান্ত জাতিসংঘের সাতটি দিবসের মধ্যে অন্যতম।

কিন্তু কি এই অটিজম? কীভাবে আপনি বুঝবেন আপনার শিশুটি অটিজমে আক্রান্ত?

অটিজ়ম একটি মানসিক বিকাশজনিত সমস্যা যার শুরু হয় শিশুর জিনের গঠনগত অস্বাভাবিকতা থেকে। প্রতি ৭০ থেকে ৮০ জন শিশুর মধ্যে ১ জনের অটিজ়ম হয়। প্রতিদিন রোগ নির্ণয়ের সংখ্যা বাড়ছে। তাই জনপ্রতি অটিস্টিক মানুষের সংখ্যার হেরফের হচ্ছে। কখনও ওই সংখ্যা প্রতি ৫০ জনেও ১ জন হচ্ছে। তবে বিশেষজ্ঞদের মতে আন্তর্জাতিক মান অনুসারে প্রতি ৭০ জনে ১ জন অটিস্টিক। ছেলে ও মেয়েদের মধ্যে অটিজ়মের অনুপাত ৩:১।

অটিজমে আক্রান্ত রোগীর পক্ষে শব্দ, অঙ্গভঙ্গি, মুখের অভিব্যক্তি এবং স্পর্শের মাধ্যমে নিজের ভাব প্রকাশ করা কঠিন। একজন মা সর্বপ্রথম বুঝতে পারেন তাঁর সন্তান অন্যরকম। তাই চিকিত্সকরা সন্দেহ হলেই গুরুত্ব দেওয়ার পরামর্শ দেন। এটি এমন এক জটিল অবস্থা যাতে কথা বলতে, যোগাযোগ করতে এবং আচরণের ক্ষেত্রে একাধিক সমস্যা দেখা দেয়। পাশাপাশি বিভিন্ন নতুন জিনিস শেখার ক্ষেত্রেও সমস্যা হতে পারে। কখনও কখনও আক্রান্তের দক্ষতা অসম ভাবে বিকশিত হয়।

মুলত, অটিজমের প্রাথমিক লক্ষণগুলি হল, বয়স অনুযায়ী ঠিকঠাক কথার বিকাশ ঘটে না।

২. শিশু কানে শুনতে পেলেও কথা বলছে না।

৩. চোখে চোখ রেখে কথা বলে না।

৪. ডাকলে অন্য দিকে তাকিয়ে থাকে।

৬. নতুন খেলা থাকা সত্ত্বেও একই খেলা বারবার খেলে।

৭. পাখা,গাড়ির চাকার মতো গোল ঘুরন্ত জিনিস একদৃষ্টে দেখে।

৮. খুশি হলে হাত-পা ঝাঁকায়।

৯. পায়ের পাতা না ফেলে বুড়ো আঙুলের ওপর ভর দিয়ে হাঁটে।

১০. অন্য শিশুদের সঙ্গে মেলামেশা করে না।

তবে চিকিত্সকদের মতে, পরিবারে এই রোগের ইতিহাস থাকলে এই রোগের ঝুঁকি বাড়ে। অন্যদিকে বেশি বয়সে সন্তানধারণ করলে, অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় অ্যালকোহল বা অ্যান্টি-সিজার জাতীয় ওষুধ খেলে অটিস্টিক শিশু জন্মানোর ঝুঁকি বেড়ে যায়।

চিকিৎসকের মতে মনোরোগ অটিজমকে জেনে প্রথম বাধাটা পার করা গিয়েছে। এখনও বাকি অনেকটা পথ চলা। সচেতনতা, এই স্পেকট্রাম ডিজ়অর্ডার মোকাবিলায় একটা বড় হাতিয়ার।

গবেষণায় জানা গেছে অনেক দম্পতির বিবাহ-বিচ্ছেদের কারণেও সন্তানের অটিজ়ম স্পেকট্রাম ডিজঅর্ডার হয়েছে। তবে আমাদের সামাজিক জড়তার কারণে অধিকাংশ ক্ষেত্রেই বাবা-মা তাঁদের সন্তানের অসুস্থতা গোপন করে যান। আবার অনেকেই লড়েছেন সন্তানদের জন্য, সন্তানদের নিয়ে একদম সামনে থেকে।






All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us

এই সংক্রান্ত আরও পড়ুন