কলকাতা
ভোটের বাজারে হরেক রকমের মিস্টি।

কলকাতা  |  3 hours ago

অভিযোগ নারী নির্যাতনের তবুও কানে নেয়নি আমহার্স্ট স্ট্রিট থানা।

কলকাতা  |  4 hours ago

টানা ২৪ ঘণ্টা স্কুলের গেটের বাইরে আন্দোলনে দিল্লি পাবলিক স্কুল নর্থ কলকাতার অভিভাবকরা।

কলকাতা  |  8 hours ago

দেওয়াল লিখন নিয়ে নিউটাউনের তারুলিয়ায় উত্তেজনা

কলকাতা  |  yesterday

৩৫ দিন ধরে অবস্থান এবং ২৫ দিন অনশনে এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ চাকরিপ্রার্থীরা।

কলকাতা  |  yesterday

রবিবার ব্রিগেডে মহাসমাবেশ গেরুয়া শিবিরের

কলকাতা  |  2 days ago

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজ স্ট্রিট ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ পড়ুয়াদের

কলকাতা  |  2 days ago

স্কুলের রেজিস্ট্রেশন নিয়ে বিতর্ক

কলকাতা  |  2 days ago

নিয়োগের দাবিতে নির্জলা অনশন আন্দোলন শুরু এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ চাকরিপ্রার্থীদের

কলকাতা  |  2 days ago

পরিবহণ ভবনে বিক্ষোভ বাসমালিকদের

কলকাতা  |  2 days ago

জোটের জটে দেরি বাম-তালিকায়

কলকাতা  |  2 days ago

রসিকার রহস্যমৃত্যুতে অবশেষে নড়েচড়ে বসল লালবাজার

কলকাতা  |  2 days ago

প্রথম দফার নির্বাচনের দিন নিয়ে আপত্তি পর্যটন ব্যবসায়ীদের

কলকাতা  |  2 days ago

পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে পথে নামছে ১০টি বামপন্থী ছাত্র সংগঠন

কলকাতা  |  2 days ago

আন্দোলনে রোজভ্যালির আমানতকারীরা

কলকাতা  |  3 days ago

আসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, ব্রিগেড প্যারেড গ্রাউন্ডে প্রস্তুতি তুঙ্গে

কলকাতা  |  3 days ago

সুদীপ্ত সেনের বিরুদ্ধে ৫৬ লক্ষ টাকার প্রতারণার অভিযোগ আনলেন দেবযানী মুখোপাধ্যায়ের মা

কলকাতা  |  3 days ago

পুলিসি জুলুমের প্রতিবাদে বন্ধ নাগেরবাজার-দমদম জংশন রুটের অটো

কলকাতা  |  3 days ago

ফের ডিভিশন বেঞ্চে জামিনের আবেদন আনিসুর রহমানের আইনজীবীর

কলকাতা  |  3 days ago

আব্বাসের সঙ্গে জোট নিয়ে বিতর্ক তৈরি হয়েছে কংগ্রেসের অন্দরেও।

কলকাতা  |  3 days ago

সর্বশেষ আপডেট
অনেকে পড়ছেন
গরুপাচারকাণ্ডে উঠে এল আরো এক নাম বিকাশ মিশ্র

গরুপাচার কাণ্ডে বিনয় মিশ্রের পাশাপাশি এবার নাম উঠে এল অন্যতম পান্ডা  বিকাশ মিশ্র। বিকাশ মিশ্রের  বিরুদ্ধে লুক আউট নোটিস জারি করল সিবিআই। সিবিআই সূত্রের খবর , গরুপাচারকারী অভিযুক্তদের কাছ থেকে বেশকিছু তথ্য পাওয়া গেছে। তথ্যের ভিত্তিতে উঠে  এসেছে বিকাশ মিশ্রের নাম.যদিও  তদন্তে সাহায্য করতে এগিয়ে আসে বিকাশ মিশ্র। উল্লেখ্য  এর আগেও  বিনয় মিশ্রকে রেড কর্নার নোটিস জারি করেছিল সিবিআই । এবার পাচারচক্রের অন্যতম পান্ডা বিকাশ মিশ্রকে ওয়ারেন্ট জারি করল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। অন্যদিকে বিনয় রয়েছেন দুবাই তে. সেই খবর পাওয়া মাত্রই সিবিআই ফের রেড কর্নার নোটিস জারির পরিকল্পনা করছেন। এবার গরুপাচার মামলায় সিবিআইয়ের নজরে আইপিএস অফিসার। 

....

6 hours ago

ভিডিও খবর

Popular TV Programme

গরুপাচারকাণ্ডে উঠে এল আরো এক নাম বিকাশ মিশ্র

গরুপাচার কাণ্ডে বিনয় মিশ্রের পাশাপাশি এবার নাম উঠে এল অন্যতম পান্ডা  বিকাশ মিশ্র। বিকাশ মিশ্রের  বিরুদ্ধে লুক আউট নোটিস জারি করল সিবিআই। সিবিআই সূত্রের খবর , গরুপাচারকারী অভিযুক্তদের কাছ থেকে বেশকিছু তথ্য পাওয়া গেছে। তথ্যের ভিত্তিতে উঠে  এসেছে বিকাশ মিশ্রের নাম.যদিও  তদন্তে সাহায্য করতে এগিয়ে আসে বিকাশ মিশ্র। উল্লেখ্য  এর আগেও  বিনয় মিশ্রকে রেড কর্নার নোটিস জারি করেছিল সিবিআই । এবার পাচারচক্রের অন্যতম পান্ডা বিকাশ মিশ্রকে ওয়ারেন্ট জারি করল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। অন্যদিকে বিনয় রয়েছেন দুবাই তে. সেই খবর পাওয়া মাত্রই সিবিআই ফের রেড কর্নার নোটিস জারির পরিকল্পনা করছেন। এবার গরুপাচার মামলায় সিবিআইয়ের নজরে আইপিএস অফিসার। 

মর্জিমতো বাস ভাড়া নেওয়ার পরিকল্পনা বাস মালিকদের

এবার যাত্রী ভাড়ার  পাশাপাশি বাড়ছে ডিজেলের দাম. বেশ কয়েকমাস  ধরে চলছে বাস মালিকদের তরফে ভাড়া বৃদ্ধি র দাবি।  এদিকে বাস মালিক সংগঠনের সঙ্গে একাধিকবার রাজ্য সরকার বৈঠক করলেও  কোনোরকম সুরাহা মেলেনি। ডিজেলের দাম অস্বাভাবিক বাড়ছে তার জেরেই বাস মালিক সংগঠনের ভাড়া বৃদ্ধির না হওয়ার আসায় এবার যাত্রীদের কাছ থেকে অনুদান হিসেবে  বাড়তি বাস ভাড়া নেওয়ার  সিদ্ধান্ত নিল বাস মালি সংগঠন। ইতিমধ্যে বিভিন্ন রুটের বাসগুলোতে পোস্টের মারা হয়েছে। প্রায় ৩০ টি রুটের বসে এই পোস্টের লাগানো হয়েছে। ২২৩,২২৭, ৪৫,৭৯ বি.৯১ উল্লেখ আরো অনেক বসেই এই পোস্টের।

আনলক পর্ব থেকেই যদিও বাস চালু হলএ ও বাস ভাড়া কিলোমিটার প্রতি বার্তার থাকে।এরপর পেট্রল ডিজেলের অস্বাভাবিক দামের জেরে ভাড়া বাড়ানোর দাবি জানায়। চলতি মাস থেকেই বাসের ভাড়া যাত্রীদের থেকে নেওয়া হচ্ছে বাড়তি।এক এক জায়গা থেকে বাসগুলি যাত্রীদের কাছ থেকে যেভাবে খুশি ভাড়া নিচ্ছে। তবে ডিজেলের দাম বাড়ায় এবার অনুদান হিসেবে যাত্রীদের কাছ থেকে বাড়তি ভাড়া নেওয়ার  পরিকল্পনা বাস মালিকদের। কিলোমিটার প্রতি ভাড়া বাড়িয়ে ১০ টাকা, ১২ টাকা,১৪ টাকা। বাসে  লাগানো পোস্টারের  ওপর ভিত্তি করেই এখন থেকে বাড়তি ভাড়া নেবে যাত্রীদের কাছের থেকে। বেসরকারি বাস মালিক সংগঠনগ বারবার রাজ্য সরকারকে  জানিয়েও কোনো সুরাহা পাচ্ছেনা তাই এই সিধান্ত নেওয়া  হলআপন মর্জিমতো বাস ভাড়া নেওয়ার পরিকল্পনা বাস মালিকদের

ভোটের মুখে ফের কুণাল ঘোষকে জেরা ইডি-র

সামনেই আসন্ন বিধানসভা নির্বাচন। এরমধ্যেই সারদাকাণ্ডে তৃণমূলের মুখপাত্র কুণাল ঘোষকে তলব করেছিল এনফোর্সমেন্ট ডাইরেক্টরেট। মঙ্গলবার  সকাল ১১টা নাগাদ তৃণমূলের মুখপাত্র কুনাল ঘোষকে ডেকেছিল ইডি। সেইমতো সকাল ১১টার কিছু আগেই কুণালবাবু ইডি-র দফতরে পৌঁছে যান। তাঁকে এই মুহূর্তে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। যা নিয়ে সরগরম রাজ্য রাজনীতি।  প্রসঙ্গত সারদাকাণ্ডের জেরে  কুণাল ঘোষকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। প্রায় ৩৪ মাস জেলে থাকার পর তিনি জামিন পেয়েছিলেন। এখনও কিন্তু সারদা তদন্ত শেষ হয়নি। এরমধ্যে বহুবার সারদা মামলায় কুণালকে জেরা করেছে সিবিআই এবং ইডি।  

এদিন সল্টলেক সিজিও কমপ্লেক্সে ইডি দফতরে ঢোকার আগে কুণাল ঘোষ জানান, ২০১৩ সাল থেকে এই  সারদাকাণ্ডের তদন্ত চলছে। এর আগেও ইডিকে  নানা নথিপত্র দিয়ে সাহায্য করেছি। এখনও নিশ্চিত করছি যতটুকু সাহায্য করার তা অবশ্যই করব। তিনি পরিস্কার করে জানিয়ে দিয়েছেন, ‘যতবার চাইবে ততবার এসে হাজিরা দেব। হাজারবার দেব’। তবে ইডি সূত্রে খবর, সম্প্রতি সারদা তদন্তের আধিকারিকদের বদলি করেছে ইডি। নতুন আধিকারিকরা এসেই কুণাল ঘোষকে ডেকে পাঠালেন।

পামেলাকাণ্ডে গ্রেফতার আরও একজন

পামেলাকাণ্ডে কলকাতা পুলিশ আরও একজনকে গ্রেফতার করল। রবিবার রাতে সূরযকুমার সাউ নামে একজনকে কলকাতার অরফ্যানগঞ্জ রোড থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে মাদক মামলায়। সেই সঙ্গে একটি স্কুটিও আটক করেছে পুলিশ। নিউ আলিপুরে বিজেপি নেত্রী পামেলা গোস্বামী গ্রেফতার হওয়ার সময় এই সূরযের স্কুটিতেই চড়ে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যান অমৃত সিং নামে এক ব্যক্তি। যিনি বিজেপি নেতা রাকেশ সিংয়ের অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ বলেই জানতে পেরেছে পুলিশ। এই মামলায় অমৃত সিং নামে ওই ব্যক্তিকেও খুঁজছে পুলিশ।

তদন্তকারীদের দাবি, এই মামলায় অমৃতের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। পামেলাকে গ্রেফতারের সময় অমৃতের সঙ্গে ছিলেন সূরয। এখন পুলিশ ওই স্কুটি করেই কোকেন আনা হয়েছিল কিনা সেটা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। কলকাতা পুলিশ সূত্রে জানা যাচ্ছে, পামেলা জেরায় জানিয়েছেন, তাঁর ব্যাগে মাদক (কোকেন) রাখা হয়েছিল, কেউ বা কারা উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে মাদক রেখেছিল। তাঁর অভিযোগ ছিল সরাসরি বিজেপি নেতা রাকেশ সিংয়ের দিকে। রাকেশকেও গ্রেফতার করে নিজেদের হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ। এবার আরও একজন ধরা পরল এই মামলা। আরও বেশ কয়েকজন সন্দেহভাজনকে জেরা করছে পুলিশ।

ব্রিগেডে উধাও ‘বন্দেমাতরম’

রবিবারের ব্রিগেডে প্রায় সকলের ভাষণেই স্থান পেয়েছে ‘ইনকিলাব জিন্দাবাদ’। স্বাধীনতা সংগ্রামে সশস্ত্র আন্দোলনকারীদের কণ্ঠে থাকতো ইনকিলাব ধ্বনি। অবশ্য বন্দেমাতরমও থাকতো। বামেরা বিপ্লবের কথা ব্যবহার করতো বলে তাদের বিশ্ব কমিউনিস্টদের স্লোগান বিপ্লব দীর্ঘজীবী হোক অর্থাৎ ইনকিলাব জিন্দাবাদ ধ্বনি ভারতীয় স্লোগান হয়েছিল। আবার 'জয় হিন্দ' ধ্বনি হিন্দু দলগুলির না-পসন্দ ছিল, কারণ এই ধ্বনি নেতাজি ব্যবহার করতেন, যা নেতাজি সহযোগী জয়নাল আবেদিনের সৃষ্টি বলে কথিত আছে। তাই তাঁরা ‘ভারত মাতা কি জয়’ স্লোগান এনেছিলেন রাজনীতিতে।


কিন্তু ‘বন্দেমাতরম’ স্লোগান আসে বঙ্কিমচন্দ্রের লেখনী থেকে। বঙ্কিমচন্দ্রের লেখনীতে হিন্দু সংস্কৃতি স্থান পেয়েছিল, তাই বামেরা দেশকে মা হিসাবে বন্ধনা করতে নারাজ ছিলেন বলে শোনা যায়। অবশ্য এই নিয়ে বিতর্কও রয়েছে প্রচুর। কংগ্রেস কিন্তু ‘জয় হিন্দ’ এবং ‘বন্দেমাতরম’ দুইই ভাষণের শেষে ব্যবহার করে থাকে, তৃণমূলও তাই। বিজেপি আবার ভারত মাতার মতো বন্দেমাতরম ধ্বনি দিয়ে থাকেন। রবিবার কিন্তু কোনও বক্তা বন্দেমাতরম বললেন না। ভাষণ শেষে অধীর চৌধুরী বললেন, জয় হিন্দ, ইনকিলাব জিন্দাবাদ। ছত্রিশগড়ের মুখ্যমন্ত্রী বক্তব্য শেষে শুভ জয় হিন্দ বললেন।

ভোট ঘোষণার পর রাতেই বিজেপির পরিবর্তন রথ ভাঙচুর

ভোট ঘোষণার দিনই বিজেপির পরিবর্তন রথ ভাঙচুরের অভিযোগ উঠল মানিকতলা এলাকায়। অভিযোগের তির অবশ্যেই তৃণমূলের দিকেই। অভিযোগ, শুক্রবার রাতে মানিকতলার কাদাপাড়া এলাকায় একটি গোডাউনে রাখা বিজেপির পরিবর্তন যাত্রার রথ ভাঙচুর করে তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। এছাড়াও ওই রথে থাকা এনইডি স্ক্রিন, মোবাইল ও ল্যাপটপও চুরি গিয়েছে বলে দাবি করেছে স্থানীয় বিজেপি নেতৃত্ব। বিজেপির অভিযোগ, ভোটের প্রচারের জন্য বিভিন্ন সামগ্রী রাখার জন্যই ওই গুদামঘরটি ভাড়া নেওয়া হয়েছিল। বিজেপির দাবি, শুক্রবার গভীর রাতে সেখানেই হানা দেয় ১৫ থেকে ২০ জনের একটি দুষ্কৃতী দল। তাঁরা নির্বিচারে ভাঙচুর শুরু করতে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করেন নিরাপত্তারক্ষী এবং পরিবর্তন রথের চালক ও খালাসি। গোলমাল শুনে সেখানে ছুটে আসেন আরও কয়েকজন। অভিযোগ তাঁদের মারধোর করে চম্পট দেয় ওই দুষ্কৃতীরা। খবর পেয়ে রাতেই সেখানে পৌঁছে যান বিজেপি নেতা সব্যসাচী দত্ত। পরে তিনি ফুলবাগান থানায় এই সংক্রান্ত লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে ফুলবাগান থানার পুলিশ। যদিও শনিবার সকাল পর্যন্ত কোনও গ্রেফতারির খবর নেই।

পামেলা কাণ্ডে এবার নোটিশ অনুপম ও শঙ্কুকে

শুক্রবার কয়লা কাণ্ডে একদিকে যখন ইডি-সিবিআই তোলপাড় করে দিচ্ছে পশ্চিমবঙ্গের নানান প্রান্ত। ঠিক তখনই কলকাতা পুলিশের গোয়েন্দা শাখার নোটিশ গেল বিজেপি নেতা অনুপম হাজরা এবং শঙ্কুদেব পাণ্ডার বাড়িতে। বিষয় পামেলা কাণ্ড। বিজেপির যুবনেত্রী পামেলা গোস্বামী সম্প্রতি কলকাতা পুলিশের হাতে ড্রাগ সহ ধরা পড়েন। পামেলার বয়ানের উপর নির্ভর করে গ্রেফতার হয়েছেন আরও এক বিজেপি নেতা রাকেশ সিংকে। কোর্টের আদেশে এঁরা এখন পুলিশের হেফাজতে। সূত্র মারফত জানা যাচ্ছে যে এদের জেরা করে উঠে এসেছে বিজেপির অরক দুই নেতা অনুপম হাজরা এবং শঙ্কুদেব পান্ডার নাম। এই কারণে দুই নেতাকে ইতিমধ্যেই নোটিশ পাঠানো হয়েছে বলে সূত্রের খবর।


যদিও নোটিসের বিষয়ে আলোকপাত করতে পারেননি অনুপম হাজরা। তবে এমনটি হলে তাতে প্রতিহিংসার গন্ধ পাচ্ছেন তাঁরা। এই বিষয়ে শঙ্কুদেব পান্ডার বক্তব্য জানা যায়নি কারণ তাঁর পরিচিত ফোন নম্বরটি বন্ধ। ধরা পড়ার পর পামেলা গোস্বামী রাকেশ সিংয়ের নাম উল্লেখ করেছিলেন। কিন্তু বাকি দুই নেতার সূত্র এর মধ্যে কি করে এল, তা নিয়ে এখনও পর্যন্ত সরকারি বক্তব্য জানা যায়নি।

কুঁদঘাটে ম্যানহোলে মৃত শ্রমিকদের ৫ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেবে কলকাতা পুরসভা

বৃহস্পতিবার কুঁদঘাটে মর্মান্তিকভাবে ম্যানহোল পরিস্কার করতে নেমে তলিয়ে যায় ৪ জন ঠিকা শ্রমিক। কলকাতা পুরসভার পাম্পিং স্টেশনের কাজ চলছিল। ৪ শ্রমিককে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠাতে ২ ঘন্টার বেশি সময় লেগে যায় বলেই অভিযোগ। অনেক পরে বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর ডুবুরিরা তাঁদের উদ্ধার করে। কিন্তু হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরই চারজনের মৃত্যু হয়।

এই ঘটনার পর পুরসভার কাজকর্ম নিয়ে প্রশ্ন ওঠে বিভিন্ন মহলে। নির্দিষ্ট সুরক্ষাবিধি ছাড়াই কিভাবে ওই ঠিকা শ্রমিকরা ম্যানহোলে নামানো হল সেটা নিয়েও প্রশ্ন ওঠে। ফলে নড়েচড়ে বসে কলকাতা পুরসভা। সূত্রের খবর, মৃত ৪ জনকে ক্ষতিপূরণ দেবে কলকাতা পুরসভা। নিহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে ৫ লাখ টাকা করে দেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে। পাশাপাশি আহতদেরও দেওয়া হবে ১ লাখ টাকা করে। এই ঘটনার তদন্তে ৩ সদস্যের কমিটিও গড়েছে কলকাতা পুরসভা। 

বিরোধীদের অভিযোগ, বারবারই একই ধরণের দুর্ঘটনা ঘটছে, তবুও হেলদোল নেই রাজ্য প্রশাসনের। কেন কোনও সুরক্ষা সরঞ্জাম ছাড়াই শ্রমিকদের ম্যানহোলে নামানো হচ্ছে সেই নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক। এরমধ্যেই আসরে নামে পুরসভা। তড়িঘড়ি ক্ষতিপূরণ ঘোষণা করে তদন্ত কমিটি গঠন করে ফিরহাদ হাকিমের নিয়ন্ত্রণাধীন সংস্থা। জানা যাচ্ছে, বৃহস্পতিবার সকালে কুঁদঘাটের কাছে ১১৪ নম্বর ওয়ার্ডে একটি পাম্পিং স্টেশনের জন্য পুরোনো জলের লাইনের সঙ্গে নতুন পাইপলাইন জোড়ার কাজ চলছিল।

 সেটা পরিস্কার করতে সাতজন ঠিকা শ্রমিক নীচে নামে বেলা ১২টা নাগাদ।  সহকর্মীদের চোখের সামনেই চারজন তলিয়ে যায়। পুরসভা সূত্রে জানা যাচ্ছে, ওই ম্যানহোলে যে জল আছে সেটা ধারণা ছিল না কারোর। তাই দীর্ঘদিনের জমা জল ও জঞ্জালে তৈরি হওয়া বিষাক্ত গ্যাস থেকেই দমবন্ধ হয়ে মৃত্যু হয়েছে ওই চার ঠিকা শ্রমিকের।

কুঁদঘাটে ম্যানহোলে কাজ করতে নেমে তলিয়ে মৃত্যু পুরসভার চার ঠিকাকর্মীর

কুঁদঘাটে কলকাতা পুরসভার পাম্পিং স্টেশন তৈরি কাজ চলছিল। কলকাতা পুরসভার ১১৪ নম্বর ওয়ার্ডে তার জন্য ম্যানহোল পরিস্কারের কাজ করতে নামেন পুরসভার চার ঠিকাকর্মী। মুহুর্তের মধ্যে তাঁরা তলিয়ে যান সহকর্মীদের চোখের সামনেই। বেশ কিছুক্ষণ ডাকাডাকির পরও তাঁদের সাড়া না পাওয়া গেলে খবর যায় পুলিশ ও দমকলে। এলাকায় ছুটে আসে দমকল ও পুলিশকর্মীরা। কিন্তু ঘন্টাখানেকের প্রচেষ্টাতেও তাঁদের খোঁজ করতে পারেননি দমকলকর্মীরা। এরপরই খবর দেওয়া হয় বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরে। তাঁদের ডুবুরিরা এসে ওই ম্যানহোলে নামেন। এরপরই ঘন্টা দুয়েক পর দুজনকে উদ্ধার করেন বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর সদস্যরা। দ্রুতই তাঁদের পাঠানো হয় এসএসকেএম হাসপাতাল এবং বাঘাযতীন হাসপাতালে। তাঁদের প্রত্যেকেরই অবস্থা আশঙ্কাজনক ছিল। কিন্তু পরে জানা যায় চারজনেই মৃত্যু হয়েছে। এই নিয়ে ক্ষোভও ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়।
স্থানীয় সূত্রে জানা যাচ্ছে বৃহস্পতিবার সকালে পুরসভার ১৪৪ নম্বর ওয়ার্ডে কুঁদঘাট পাম্প হাউসের কাছে ম্যানহোলে পুরনো ও নতুন পাইপ সংযুক্তিকরণের কাজ চলছিল। সেখানেই চারজন ঠিকাকর্মী কাজ করতে নামেন। এই ঘটনার পর এলাকায় ব্যপক উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। প্রায় দুই ঘন্টা খোঁজার পর ডুবুরি নামিয়েই উদ্ধার করা সম্ভব হয়। ওই এলাকায় কাজ করতে আসা পুর কর্মী এবং স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, দমকল আসতেই অনেক দেরী হয়। আবার বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীকেও অনেক দেরীতে খবর দেওয়ার অভিযোগ উঠছে। কেন কোনও সুরক্ষাব্যবস্থা ছাড়াই ওই কর্মীদের ম্যানহোলে নামানো হল সেই প্রশ্নও উঠেছে বিভিন্ন মহলে। যদিও ঘটনাস্থলে যান রাজ্যের মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস। তিনিও অসুস্থ কর্মীদের পাশে দাঁড়ানোর আশ্বাস দিয়েছেন। কিন্তু হাসপাতালে ওই চারজনেই মৃত্যু হয়েছে বলে পরে খবর আসে।

রাকেশ কাণ্ডে সোজাসাপ্টা রুপা

ড্রাগকাণ্ডে রাকেশ সিং গ্রেফতার হওয়ার পর কি তাঁকে ছেঁটে ফেলতে চাইছে বিজেপি? বিজেপির অন্দরমহলে এমনটাই শোনা যাচ্ছে। যদিও রাকেশ সিং ইস্যুতে কোনও নেতাই এখন মুখ খুলতে চাইছেন না। কিন্তু দলের রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ জানিয়েছেন, অকারণে রাকেশের ছেলেদের অকারণ হয়রানি করেছে পুলিশ। কিন্তু একই সাথে তিনি এও দেখে নিতে চাইছেন, ড্রাগ কর্মকাণ্ডতে গতি কোন পথে যায়। অন্যদিকে এই ইস্যুতে বিজেপির রাজ্যসভার সাংসদ রুপা গঙ্গোপাধ্যায় অনেকদিন বাদে মুখ খুললেন সংবাদ মাধ্যমের কাছে।
রুপা সোজাসাপ্টা জানালেন যে, যাকে যা অন্যায় করতে দেখা যাবে তাকে গ্রেফতার করে ফেলা হোক। অভিষেকের বাড়িতে কেন্দ্রীয় পুলিশের অভিযানের পাল্টা হিসাবে রাকেশ গ্রেফতার? এমন প্রশ্নের উত্তরে রুপা জানালেন, আমি পাল্টা বুঝি না, যে অন্যায় করবে তাঁকেই জেলে যেতে হবে। বুধবার আলিপুর কোর্টের বিশেষ নার্কোটিক আদালত নির্দেশ দিয়েছেন, রাকেশকে ১ মার্চ অবধি পুলিশি হেফাজতে থাকতে হবে।

সর্বশেষ খবর

হাজারো আশ্বাস, হাজারো প্রতিশ্রুতি ,পূরণ হয়নি কিছুই।

3 hours ago

খেয়া পার হয়েই রোজকার যাতায়াত।

3 hours ago

প্রচারে নেমে পড়লেন বেহালা পূর্ব কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী রত্না চট্টোপাধ্যায়।

3 hours ago

ভোটের বাজারে হরেক রকমের মিস্টি।

3 hours ago

কালনা মহকুমা হাসপাতালে মিলছে না ইউএসজি পরিষেবা সহ একাধিক পরিষেবা।

3 hours ago

গ্রামে নিম্নমানের সামগ্রী দিয়ে কাজ, ঢালাই রাস্তার কাজ বন্ধ করলেন এলাকার মানুষ।

3 hours ago

সিপিএম কংগ্রেসের জোটকে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছতে দুই নেতার ছেলের বিয়েতে অভিনব আয়োজন।

3 hours ago

পানীয় জলের দাবিতে প্রতিবাদে সরব ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী।

4 hours ago

অভিযোগ নারী নির্যাতনের তবুও কানে নেয়নি আমহার্স্ট স্ট্রিট থানা।

4 hours ago