no-development-tripura
Tripura অবহেলায় ত্রিপুরা


Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2021-11-22 11:42:22

ভারতের এই একটি রাজ্য ত্রিপুরা, যাকে নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বহু বিতর্ক | একদিকে পশ্চিমবঙ্গ যেমন বাঙালিদের রাজ্য, তেমনই ত্রিপুরাও মূলত বঙ্গভাষীদের দ্বিতীয় আস্তানা, নাকি আশ্রয় ? স্বাধীনতার পূর্বে অবিভক্ত ভারতে এই ত্রিপুরা রাজ্যটি কিন্তু আকারে বেশ বড় ছিল| বাংলাদেশের কুমিল্লা জেলাটি ত্রিপুরার মধ্যেই পড়ত | এই সেদিন মন্ত্রিসভার বৈঠকে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী সেকথা স্বীকারও করেছেন। বলেছেন, কুমিল্লার একদল উগ্রবাদী দুর্গাপুজো নিয়ে যা করেছে, তারপর এটা তাঁদের লজ্জা | তিনি আরও বলেন, এটা ভুলে গেলে চলবে না, কুমিল্লা ত্রিপুরার অঙ্গ জেলা ছিল | অবশ্য স্বাধীনতার পর দেশ বিভাগের কারণে ওই দেশ থেকে বহু শরণার্থী যেমন এই বাংলায় এসেছে, তেমনই হিন্দু প্রধান জেলা কুমিল্লা সাফা করে ওই দেশ থেকে হাজার হাজার মানুষ নিজেদের জোতজমি ছেড়ে আগরতলামুখী হয়েছিল | এক সময় এই বৃহৎ ত্রিপুরায় একদল ত্রিপুরী অধিবাসী ছিল, যাদের আদিবাসীও বলা যায়। যারা নিজেদের আজও বাঙালি বলে মনে করে না | 

যাই হোক, দেশ স্বাধীন হওয়ার পর ভারত/বাংলাদেশের একপ্রান্তে পড়ে থাকা ত্রিপুরা চলতে চেষ্টা করল বাঙালি আর ত্রিপুরীদের নিয়ে | সমস্যা হল, ওই রাজ্য এবাংলার মতো কোনও শিল্প-বাণিজ্যের সুবিধা পায়নি | সম্ভবও ছিল না। দেশের শিল্পপতিরা জওহরলালকে পরিষ্কার জানাল যে, মাঝপথে পূর্ব পাকিস্তান ( তখন পাকিস্তান ছিল ) না থাকলে, পরিবহণের সুবিধা পাওয়া গেলে কলকারখানা করা যেত। কিন্তু কলকাতা থেকে শিলিগুড়ি হয়ে বাংলার বর্ডার পার হয়ে অসম পার হয়ে ত্রিপুরায় গিয়ে কারখানা খুললে প্রোডাক্টের মূল্য উঠবে না | কাজেই কেন্দ্রীয় সরকারকেই দায়িত্ব নিতে হল ত্রিপুরার | তখন সমস্ত রাজ্য চলত কেন্দ্রীয় সাহায্যে, যা আজও বিদ্যমান | 


দিন এগোল, রাজনৈতিক পটভূমিকা বদলে গেল | বাম জমানা এল। কিন্তু ত্রিপুরা রইল পূর্ব অবস্থাতেই | চাকরি বলতে সরকারি অফিস বা স্কুল | পরে কিছু বেসরকারি ইনস্টিটিউট হলেও চাকরির বাজারটি বদলাল না | অবশ্য ট্রেডিং বাজার একটা তৈরি হল। কিন্তু সেখানে কত মানুষ কাজ করবে ? বাম জমানা পাল্টালো ওই একটা ইস্যুতে। যা হল, চাকরি নেই, শিল্প নেই, যুব সমাজ বাঁচবে কী করে ? নতুন সরকার প্রতিশ্রুতি দিল অনেক, কিন্তু বছর ঘুরতে না ঘুরতেই বোঝা গেল যে, পূর্ব অবস্থা থেকেও খারাপ হাল রাজ্যের। কারণ জনসংখ্যা বাড়ছে |

ফের ভোটের দামামা বাজছে | একদিকে দ্রব্যমূল্য এ বাংলার দ্বিগুণ প্রায়। এছাড়া মানুষের টাকা কমছে | ভাবনা তাই, ত্রিপুরা কি চিরদিন পরনির্ভর হয়ে থাকবে ?





All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us