শিরোনাম
Jurisdiction-of-bsf-at-border
BSF: প্রসঙ্গ বিএসএফের এক্তিয়ার,রাজ্য-কেন্দ্রের সংঘাত


Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2021-11-19 17:23:08

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র দফতরের সিদ্ধান্তে সীমান্তে সুরক্ষা ব্যবস্থা আরও মজবুত করতে বাড়ানো হয়েছে বিএসএফের এক্তিয়ার ।  বিএসএফের এক্তিয়ার সীমান্তের কাঁটাতার থেকে ১৫ কিলোমিটারের জায়গায় বাড়িয়ে ৫০ কিলোমিটার করা হবে। ইতিমধ্য়েই কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্ত নিয়ে শুরু হয়েছে রাজ্য কেন্দ্রের মধ্যে সংঘাত। ভারত বাংলাদেশ সীমান্তে অবস্থিত বসিরহাটের স্বরূপনগর, বাদুড়িয়া, টাকি-হাসনাবাদ ও হিঙ্গলগঞ্জ সহ সুন্দরবনের বিস্তীর্ণ এলাকা। এই গোটা অঞ্চল জুড়ে সীমানার পঞ্চাশ কিলোমিটার ভিতরে ঢুকছে বিএসএফ।

সীমান্তে  বিএসএফের এক্তিয়ার বাড়ানোয়  অনেক ক্ষেত্রেই সুবিধে হলেও কিছু কিছু ক্ষেত্রে  বিএসএফ নজরদারিতে এলাকাবাসীদের পড়তে হচ্ছে অসুবিধার মুখে।  সাধারণ নাগরিকদের মধ্যে অকারণে আধা-সামরিক বাহিনীর  কর্মকাণ্ডে একটা বিড়াম্বনার সৃষ্টি হতে পারে বলে আশঙ্কা রাজ্য়ের। আবার  অন্য়দিকে কেন্দ্রের দাবি, জাতীয় সুরক্ষার জন্য এই পদক্ষেপ খুবই গুরত্বপূর্ণ। উভয়পক্ষের দাবিতে সরগরম দেশীয় রাজনীতি।এই আবহে অনেক ক্ষেত্রেই অতিরিক্ত প্রহরায় অতিষ্ঠ  এলাকা মানুষরা। সীমান্তে অস্বচ্ছন্দ মানুষরা।অভিযোগ, সামান্য জল আনতে গেলেও বাধার সম্মুখীন হন তারা। এমনকী বাজারে যেতেও বাধার মুখে পড়তে হয় তাদের।

সীমানা বরাবর চাষের জমি। মাছের ভেড়িও রয়েছে অসংখ্য। মাছ ধরার পর বাজারে নিয়ে যেতে গেলে পড়তে হয় বিএসএফ এর নজরদারিতে। নিময় অনুসারে করতে হয় দীর্ঘ অপেক্ষা। এরপর মাছ মরে গেলে দাম মেলে না আড়তে।

বেশ কয়েক বছর আগেই রাজস্থানে ৫০ কিলোমিটার ও গুজরাটে ৮০ কিলোমিটার এক্তিয়ার বাড়ানো হয়েছে বিএসএফের। কিন্তু বর্তমানে তা কমিয়ে ৫০ কিলোমিটার করা হয়েছে। তবে নতুন করে অসম,পাঞ্জাব ও পশ্চিমবঙ্গে এই নিয়ম কার্যকর করার পরিকল্পনা করেছে কেন্দ্র। পশ্চিমবঙ্গ ও পাঞ্জাবের একাধিক জায়গায় এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে বিরোধিতা হয়েছে। বসিরহাট মহকুমার স্বরুপনগরের হাকিমপুর, বিথারী ও কৈজুরি, বাদুড়িয়ার শায়েস্তানগর, বসিরহাট ১ নম্বর ব্লকের ঘোজাডাঙা, পানিতর ও উত্তরপাড়ার মতো একাধিক এলাকার সীমান্তবর্তী মানুষ জানালেন তাদের হয়রানির কথা। 

এছাড়া অভিযোগ রাত্রি বাড়লে বাড়ে হেনস্থাও । এমনটাই জানাচ্ছেন কেউ কেউ।

তবে  বিএসএফ প্রহরার ভালো দিকও আছে, মানছেন এলাকাবাসী। বিএসএফের অতন্দ্র প্রহরায় কমেছে অসমাজিক কাজ, কমেছে সীমান্তে চুরি। কিছুটা নিশ্চিন্তে কাটানো যাচ্ছে রাত।

বিএসএফ এর ভূমিকা নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া সীমান্ত এলাকায়। সাধারণ মানুষকে হেনস্থা না করে পাহারা চলুক। এমনই আবেদন সীমান্ত পারের মানুষের।




All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us