শিরোনাম
kolkata-market-vegetabls-price-lower-trend
Market price: স্বস্তি মধ্যবিত্তের, দাম কমছে শীতের সবজির


Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2021-11-14 11:34:36

ইতিমধ্যেই শীতকালীন শাক-সবজি বাজারে আসতে শুরু করেছে। কোথাও কমেছে দামও। প্রথম দিকে দাম কিছুটা বেশি হলেও এখন সবজির সরবরাহ বাড়ছে। ফলে দাম কিছুটা কমের দিকে। সবজি বিক্রেতারা বলছেন, শীত যত বাড়বে, সরবরাহও তত বাড়বে, আর কমবে দামও।

তবে শীতকাল মানেই একাধিক শাক-সবজির সম্ভার। বাজারে এই সময় প্রায় সব ধরনেরই শাক-সবজি পাওয়া যায়। যাতে থাকে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এবং মিনারেল। যা শরীরকে ফিট রাখতে যথেষ্ট। শীতকালীন সবজি বলতে ফুলকপি, বাঁধাকপি, সিম, গাজর, পেঁয়াজকলি, কড়াইশুঁটি, ক্যাপসিকাম এবং আরও কত কী। শীতের সকালে এই সবজিগুলি একেবারে টাটকাই পাওয়া যায়। যা গরমকালে একেবারেই হয়ে ওঠে না।  সেইমত কলকাতার হাতিবাগান, গড়িয়াহাট এবং লেক মার্কেটের রবিবারের বাজারদর চোখে পড়ার মত। 

হাতিবাগান বাজারে প্রতি কেজি সবজির দাম খানিকটা এইরকম।  টমেটো ১০০ টাকা , ফুলকপি ৫০ টাকা , সিম ১০০ টাকা, পেঁয়াজকলি ১৫০ টাকা, গাজর ৮০ টাকা, কড়াইশুঁটি ২০০ টাকা প্রতি কেজি। পালংশাক ১৫ টাকা প্রতি বান্ডিল, বাঁধাকপি ৪০ টাকা প্রতি কেজি, কচুর মুখি ৪০ টাকা প্রতি কেজি, ক্যাপসিকাম ১৪০ টাকা প্রতি কেজি, শসা ৪০ টাকা প্রতি কেজি, ধনেপাতা ১৫ টাকা ১০০ গ্রাম, ডাঁটা ৩০০ টাকা প্রতি কেজি, মুলো জোড়া ১০ টাকা ।

হাতিবাগান বাজারের ক্রেতারা জানান, সবজির দাম কিছুটা কমেছে। উৎসবের মরসুমে অনেকটাই বেড়েছিল। সেই দর থেকে অনেকটাই নিম্নমুখী। তবে শীতের মরসুমি সবজি পাওয়া যাচ্ছে না। সেগুলির দাম খানিকটা বেশি।

লেক মার্কেটের এক ক্রেতা জানান, শীতের সময় শাক-সবজি মানুষ পছন্দ করে। শুরুতেই যদি এত দাম থাকে, মানুষ খাবে কী? কিনবে কী? মধ্যবিত্ত ও নিম্নবিত্তের ভোগান্তি। প্রশাসন এব্যাপারে হস্তক্ষেপ করলে খুব ভালো হয়। হঠাৎ দাম বৃদ্ধি, আবার কখনও কম। খুবই অসুবিধে হচ্ছে।

তবে একের পর এক প্রাকৃতিক দুর্যোগের ফলে নষ্ট হয়েছে বেশ কিছু ফসল। ফলে স্বাভাবিকভাবেই বেড়েছে যে কোনও ফসলের দাম। কলকাতা সহ বেশ কিছু অঞ্চলে সবজির দাম সেই কারণেই কিছুটা বেশি। এখন কমার প্রবণতা লক্ষ্য করা যাচ্ছে, এটাই যা স্বস্তির।





All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us