শিরোনাম
film-industry-social-work
অভিনয় জগতের মানুষও কাজ করে


Post By : সিএন ওয়েবডেস্ক
Posted on :2021-11-11 12:39:13

সিনেমা বা থিয়েটারের মানুষরা রঙিন জগতের জন্য কি কিছু করতে পারেন? আজকাল তো রাজনীতিতে আসা তাঁদের একটা ফ্যাশন হয়ে গিয়েছে | অবশ্য রাজনীতিতে পরোক্ষভাবে অভিনেতা-অভিনেত্রীরা বহুদিন আগেই এসেছিলেন | পরিচালকদের অনেকেই বামপন্থী রাজনীতি করতেন সারা বিশ্বে | এঁরাই কিন্তু বিশ্ব চলচিত্র জগতে সিনেমার জন্য পুরস্কৃত হতেন | ত্রুফো বার্গম্যান, ফেলিনি, গদার, সত্যজিৎ রায় থেকে ঋত্বিক ঘটক, মৃণাল সেন, তপন সিংহ, হৃষিকেশ মুখার্জি, গুলজাররা বামপন্থী ছিলেন | সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকেই এঁরা ছবি তৈরি করতেন | নাট্য জগতে শম্ভু মিত্র, উৎপল দত্ত প্রমুখ নাটক লিখতেন সামাজিক বিষয়ে | ব্যতিক্রম নয় অভিনেতারাও | কিন্তু অপেক্ষাকৃত দরিদ্র সমাজের জন্য এঁদের কি দায়বদ্ধতা ছিল ? 

উত্তমকুয়ার সর্বদা গরিব টেকনিশিয়ানদের অর্থ সাহায্য করতেন। কিন্তু শর্ত থাকতো, কাউকে বলা চলবে না | কিন্তু তাঁর মৃত্যুর পর সব কিছু প্রকাশ পেয়ে যায় | একসময় অভিনেতা বিশ্বজিৎ প্রচুর টাকা দান করতেন | নানান সময়ে শিল্পীরা পথে নেমে সাহায্য তুলতেন | সারা ভারতে এই সংস্কৃতি ছিল | সাম্প্রতিক করোনা আবহে সচিন তেন্ডুলকর থেকে অক্ষয় কুমার অবধি বহু শিল্পী সংকটে পড়া মানুষের পশে দাঁড়িয়েছেন | অনেকে হাসপাতালকে পর্যন্ত সাহায্য করেছেন | কিন্তু সর্বকালের সেরা এ দেশে নির্দ্বিধায় বলতে হবে অভিনেতা সোনু সুদ |

করোনার বহু আগে থেকেই সাধারণ মানুষ ভারতের যে কোনও প্রান্তে থাকুক না কেন, সোনুকে একবার জানালেই কিংবা তিনি কোনওভাবে জানতে পারলে সাহায্য করবেনই | কোটি কোটি টাকা খরচ করেছেন তিনি | হায়দরাবাদ থেকে পাঞ্জাব, এমনকি এই বাংলায় পর্যন্ত তাঁর সাহায্য আছে | তিনি কিন্তু অনেকটাই প্রচার বিমুখ | আজকের দুনিয়াতে কোনও কিছু চাপা থাকে না। কারণ আজকের মিডিয়া জগৎ অত্যন্ত শক্তিশালী | এছাড়া সোশ্যাল নেট দুনিয়া তো রয়েছেই | গরিবের মসিহা অর্থাৎ ভগবান তিনি | একটি বিমান সংস্থা বিমানের গায়ে তাঁর ছবি পর্যন্ত ছেপে দিয়েছে | তাই চলচ্চিত্র জগৎকে যতই ট্রোল করা হোক না কেন, যুগ যুগ ধরে তাদের একটি অংশ কিন্তু মানুষের পাশেই আছে।




All rights reserved © 2021 Calcutta News   Home | About | Career | Contact Us