টাকা দিয়ে মুখ বন্ধের চেষ্টা, দাবি ধর্ষিতার মায়ের

0
36

টাকা দিয়ে মুখ বন্ধ করার চেষ্টা করছে সরকার। টাকা নয়, দোষীদের শাস্তি চাই। রবিবার সংবাদ মাধ্যমে এমনটাই জানালেন, হরিয়ানার ধর্ষিতা ছাত্রীর মা। তিনি বলেন, ‘টাকা দিয়ে মুখ বন্ধ করার চেষ্টা হচ্ছে। গতকাল কয়েকজন সরকারি আধিকারিক ক্ষতিপূরণের চেক নিয়ে ঘরে এসেছিলেন। সেই চেক ফিরিয়ে দিচ্ছি। কোনও টাকা চাই না। আমরা ন্যায় বিচার চাই। ৫ দিন কেটে গিয়েছে কেউই গ্রেফতার হয়নি।’ স্বাভাবিকভাবেই চাপ বাড়ছে মনোহরলাল খট্টারের সরকারের ওপর। শনিবার রাতেই মূল অভিযুক্ত ৩ জনের ছবি প্রকাশ করেছে প্রশাসন। পঙ্কজ, মণীশ ও নিসু। এদের মধ্যে পঙ্কজ আবার সেনা কর্মী। বর্তমানে রাজস্থানের কোটায় কর্মরত সে। ধর্ষণের ঘটনায় জড়িত থাকার অপরাধে একজনক গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানা গেছে। যেই ঘরে ওই মেধাবী ছাত্রীকে মাদক খাইয়ে ধর্ষণ করা হয়, সেই ঘরের মালিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। কিন্তু মূল অভিযুক্তরা এখনও অধরা। অভিযুক্তদের সন্ধান দিতে পারলে ১ লাখ টাকা পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছে। এদিকে, জয়পুরে সেনা আধিকারিক লেফটেন্যান্ট জেনারেল চেরিস ম্যাথসন জানান, সেনাবাহিনী কোনও অপরাধীকে আশ্রয় দেয় না। অপরাধীকে ধরতে সব ধরনের সাহায্য করা হবে।