মোবাইল, ইয়ারফোন কাড়ছে শ্রবণশক্তি

0
108

২০৫০ সালে ৯০০ কোটিরও অধিক মানুষ তাদের শ্রবণশক্তি হারাবে। তার অর্থ, প্রতি দশজনের একজন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)-এর এক বিবৃতিতে এই তথ্য জানিয়েছে। তাতে বলা হয়, স্মার্ট ফোনসহ বিভিন্ন মোবাইল ডিভাইস ব্যবহারের জন্য দুনিয়ার ১০০ কোটির বেশি যুবক শ্রবণশক্তি হারানোর ঝুঁকিতে রয়েছে। আগামি ৩ মার্চ বিশ্ব শ্রবণ দিবসের আগেই তারা নতুন আন্তর্জাতিক মানদণ্ড ইস্যু করেছে। মঙ্গলবার ডব্লিউএইচও’র এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ব্যক্তিগত ইয়ারফোনের মাধ্যমে মাত্রাতিরিক্ত এবং উচ্চ আওয়াজে মিউজিক শোনার কারণে শতকরা ৫০ ভাগ যুবক শ্রবণশক্তি হারানোর ঝুঁকিতে রয়েছে। যাদের বয়স ১২ থেকে ৩৫ এর মধ্যে। সংস্থাটি আন্তর্জাতিক টেলিকমিউনিকেশন ইউনিয়নের সঙ্গে সমন্বয়ে একটি আন্তর্জাতিক মানদণ্ড ইস্যু করেছে। যাতে স্মার্ট ফোনসহ অডিও মিডিয়া প্লেয়ার তৈরির বিষয়ে নির্দেশ দেয়া হয়েছে, যাতে এগুলো দিয়ে নিরাপদে শোনা যায়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার তথ্য মতে, বিশ্বের শতকরা পাঁচ ভাগ অর্থাৎ ৪কোটি ৬৬ লক্ষ মানুষ শ্রবণশক্তি হারিয়েছে। এর মধ্যে ৪ কোটি ৩২ লক্ষ প্রাপ্তবয়স্ক আর ৩ কোটি ৪ লক্ষ শিশু। আর এদের অধিকাংশই স্বল্প ও মধ্যম আয়ের দেশে বাস করে।