ধর্মবিদ্বেষের মুখে জার্মানির ওজিল

0
144

বিশ্রীভাবে বিশ্বকাপে হেরে গিয়েছে জার্মানি। তার জন্য জার্মানদের যাবতীয় রাগ গিয়ে পড়েছে মেসুত ওজিলের ওপর। কারণ তিনি তুর্কি। তাঁর শিকড় তুরস্কে। অতি দক্ষিণপন্থীরা ওজিলের বিরুদ্ধে কোলাখুলি বর্ণবিদ্বেষী প্রচারে নেমে পড়েছে। আগুনে ঘি পড়েছে, যখন ওজিলের পাশে দাঁড়ানোর বদলে জার্মান ফুটবল কর্তারা বলেছেন, ওজিলকে ছাড়া দলের ফল ভালো হত। বিশ্বকাপ শুরুর আগে থেকেই এই রাজনৈতিক বিতর্কের সূত্রপাত। তুরস্কের স্বৈরতন্ত্রী প্রেসিডেন্ট রিসেপ এরদোগানের সঙ্গে ওজিল আর তাঁর টিমের সহ খেলোয়াড় গুন্ডোগান ছবি তুলেছিলেন। ছবি প্রকাশের পরেই প্রশ্ন তোলা হয়, ওজিল কি নিজের দেশের প্রতিই বেশি অনুগত? জার্মানি না তুরস্ক, কোনদিকে তিনি? এনিয়ে গুন্ডোগান মুখ খুললেও আগাগোড়া নিশ্চুপ ওজিল। তাতে আরও চটেছে জার্মান সমর্থকরা। ২০১৪ সালে জার্মানির জয়ে বড় ভূমিকা ছিল তাঁর। অথচ মাঠে তাঁকে এত বিদ্রুপ সহ্য করতে হয়েছে যে লকার রুমে ফিরে কান্নায় ভেঙে পড়েছেন তিনি। ইসলামবিরোধী ও অভিবাসনবিরোধী দল ওএফডি-র নেতা জেনস মেইয়ার খোলাখুলি বলেছেন, ওজিলকে ছাড়া আমরা জিতাম। এভাবে প্রকাশ্য ধর্মবিদ্বেষে রীতিমতো আতঙ্কিত জার্মানির মুসলিমরা। তারা বরং জার্মানির ফুটবল কর্তাদেরই পদত্যাগ দাবি করেছেন।