বিহারে ফের শুরু এনডিএর শরিকি তরজা

0
71

বিফলে গেল অমিত শাহের প্রচেষ্টা। বিহারে ফের শরিকি তরজায় জর্জরিত এনডিএ। উনিশের লোকসভায় অমিত শাহের প্রস্তাবিত ‘ফিফটি-ফিফটি’ ফর্মুলায় তীব্র আপত্তি জানালেন এলজেপি ও আরএলসপি। সূত্রের খবর, মোট ৪০ আসনে মধ্যে ৩৪ আসবেন লড়বে বিজেপি ও নিতীশ কুমারের জেডি (ইউ)। বাকি ৬টি আসন ছাড়া হবে এলজেপি ও আরএলএসপিকে। এমনটাই ছিল প্রথমিক চিন্তাধারা। এলজেপির বিহার ইউনিটের প্রধান পশুপতি পরশের দাবি, আসন রফা নিয়ে এখনও কোনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে আসা যায়নি। তবে, বিজেপি ও জেডি (ইউ)-র স্বার্থে নিজেদের বলিদান দেবেন এমনটাও ভাবার কোনও কারণ নেই। পরিষ্কার জানান তিনি। তার বক্তব্য, বিহারে কমপক্ষে ৭ টি আসন ছাড়তে হবে তাদের জন্য। কেননা, গত লোকসভায় ৪০টি আসনের মধ্যে ২২টিতে জিতেছিল বিজেপি। আর ৭টি আসনে প্রার্থী দিয়ে ৬টিতে জয় ছিনিয়ে আনে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রামবিলাস পাসোয়ানের এলজেপি। আরেক শরিক উপেন্দ্র কুশওয়াহর আরএলএসপি ৩টির মধ্যে ৩টিতেই জয়ী হন। সবচেয়ে খারাপ অবস্থা ছিল নিতীশের দলের। পরশের আরও দাবি, যতক্ষণ পর্যন্ত সব শরিক একত্রে না বৈঠক না করছেন, ততক্ষণ কিছুই নিশ্চিত নয়। তাহলে শাহের ‘ফিফটি-ফিফটি’ ফর্মুলার কী হবে? সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘সেরকম কিছুই নয়। এমনও হতে পারে ১০টি করে আসনে লড়বে বিজেপি ও জেডি (ইউ)। বাকি ২০টি ছেড়ে দেওয়া হবে বাকি শরিকদের।’