করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় দেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রের সেলিব্রেটিরা সরকারকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। তখন বলিউডের কিং খান শাহরুখ চুপ থাকায় সোশাল মিডিয়ায় তুমুল তর্ক-বিতর্ক শুরু হয়। অবশেষে সব বিতর্কের অবসান করে শাহরুখ থান জানিয়ে দিলেন কেন্দ্র ও বিভিন্ন রাজ্য সরকারের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে করোনা যুদ্ধে নামছে তাঁর সংস্থাগুলি। শাহরুখ খানের মালিকানাধিন সংস্থা রেড চিলিস এন্টারটেনমেন্ট, নাইট রাইডার্স, মীর ফাউন্ডেশন আর রেড চিলি ভিএফএক্স একযোগে ও আলাদা আলাদা ভাবে করোনা মোকাবিলায় কাজ করবে। একাধিক পদক্ষেপের কথা জানিয়েছেন শাহরুখ। তবে কোনও ক্ষেত্রেই টাকার অঙ্ক ঘোষণা করেননি বলিউডের মহাতারকা। সোশাল মিডিয়ায় তিনি লেখেন, ‘প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, অরবিন্দ কেজরীবাল এবং অন্যান্য রাজ্যের নেতারা যে ভাবে করোনার মতো অতিমারির মোকাবিলা করছেন তা এক কোথায় আসাধারণ। আমরা প্রাথমিক ভাবে দিল্লি, কলকাতা, মুম্বই এই তিন শহরকে ফোকাস করছি। এই ক্ষেত্রে যা প্রয়োজন আমরা করব’।

তিনি আরও জানিয়েছেন তাঁর সংস্থাগুলি বেশ কয়েকটি সামাজিক প্রকল্প হাতে নিয়েছে। যেমন, রেড চিলি এন্টার্টেইনমেন্ট-এর দুই মালিক শাহরুখ ও গৌরী খান মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর ত্রান তহবিলে অনুদান দেবেন। কলকাতা নাইট রাইডার্সের তরফে তিনি, গৌরী, জয় ও জুহি চাওলা মেহতা PM-CARES তহবিলে অনুদান দেবেন। মহারাষ্ট্র ও পশ্চিমবঙ্গের সরকারি হাসপাতালে ৫০,০০০ পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ ইকুইপমেন্ট (পিপিই) জোগান দেবেন। মীর ফাউন্ডেশনের তরফ থেকে মুম্বইয়ের ৫৫০০ পরিবারকে আগামী একমাস খাওয়ানো হবে। পাশাপাশি ১০০ অ্যাসিড আক্রান্তকে একমাসের আর্থিক সহায়তা প্রদান করবে শাহরুখের সংস্থা। কোথায় কিভাবে করা হবে সহায়তা, সোশাল মিডিয়ায় বিস্তারিত লিখে দিয়েছেন শাহরুখ। তবে কোনও ক্ষেত্রেই সরাসরি টাকার অঙ্ক উল্লেখ করেননি বলিউডের বাদশা।